অনেকদিন পরে পিসিবিবিডি হাতে আসলো একটি ম্যাকানিকাল কীবোর্ড। কীবোর্ডের নামের সাথে আছে গ্রীক দেবতাদের নাম। যেটি আপনার গেমিং স্কিলকে গডলাইক করবে না কিন্তু আপনার স্কিলকে দিতে পারে এক্সটা কনফিডেন্স। আর শো অফের জন্য আরজিবি আছেই। যাতে অন্যদের  বলতে পারেন, হিংসে হয়। যাইহোক,  আসি রিভিউ প্রসঙ্গে আমাদের হাতে আছে Gamdias Hermes P1 মেকানিকাল কীবোর্ডটি। চলুন দেখে নেয়া যাক কীবোর্ডটি প্রাইস পার রেশিও হিসেবে এবং প্র গেমারদের জন্য সুইটেবল কিনা তা দেখে নেয়া যাক।

ভিডিও রিভিউ দেখার জন্য ক্লিক করুন এখানে। 

Unboxing

আনবক্সিং এর আগে বলে রাখি পারসোনালি আমি গ্যামডিয়াসের কোন প্রডাক্ট আনবক্স করে তেমন মানসিক শান্তি পাই নি।
এবারও তার ব্যতিক্রম হল না।
যাইহোক, আনবক্স করলেই কীবোর্ডের নিচে ইউজার ম্যানুয়াল এবং রিস্ট রেস্ট দেখতে পাওয়া যাবে।

Review

নিজস্ব সার্টিফাইড ম্যাকানিকাল সুইচের Gamdias Hermes P1 কীবোর্ডটি ৪৪৮ মিলিমিটার লম্বা, ২০২.৪ মিলিমিটার চওড়া এবং ৩৬.৯ মিলিমিটার উচ্চতা এর।
কিবোর্ডটি রিস্ট রেস্ট সহ ওজনে প্রায় দেড় কেজির মত।।
ফ্লোটিং কী ডিসাইনের কীবোর্ডটির উপরের শেলটী ব্রাশড এলুমিনিয়ামের ফিনিশিং দেয়া। কিন্তু এর নিচের ফ্রেমটি হার্ড প্লাস্টিক।
নিচে রাবার প্যাডযুক্ত হাইটে এডযাস্টের সুবিধা আছে এবং কীক্যাপ পুলারের একটি আলাদা জায়গা করে দেয়া আছে যাতে কীক্যাপ-পুলারটি কীবর্ডের সাথেই থাকে, হারিয়ে না যায়।
কীবোর্ডটির সাথে একটি এডিশনাল ডিটাচেবল রিস্ট রেস্ট আছে যেটি প্লাস্টিকের। রিস্ট রেস্টটি টাইপিং এ আরগোনমিকাল দিক থেকে আপনাকে এডভান্টেজ দিবে।
যা এর একটি প্লাস পয়েন্ট বলা যায়। তবে রিস্ট রেস্টটি মাউন্টিং সিস্টেমটা তেমন ভাল লাগে নি।

কীবোর্ডেরর তারটি ব্রেডেড এবং ইউএসবি পোর্ট গোল্ড প্লেটেড হাউসিং করা। এছাড়া তারটি বামদিকে অথবা ডানদিকে এর কেবল রাউটিং করার সুবিধা আছে।

 

কিবোর্ডের কীক্যাপ এবিএস প্লাস্টিক কীক্যাপ। যা ডাবল শট ইঞ্জেকটেড কীক্যাপ।

 

Switch Type & Performance

সুইচ হিসেবে আছে গ্যামডিয়াসের সার্টিফাইড মেকানিকাল সুইচ। মূলত সুইচটি হল TTC Blue সুইচ।
আমি পারসোনালি এই প্রাইসে টিটিসি থেকে বেটার সুইচ মেকার ব্রান্ড এক্সপেক্ট করছিলাম। তাই বলে সুইচটি একেবারে খারাপ তাও বলবো না।
এই প্রাইস পয়েন্টের এসে সুইচ মেকার কোম্পানির নাম শুনেই ক্রেতারা কিবোর্ড কিনে থাকে।
খালি আরজিবি থাকালেই যে কিবোর্ড বাজারে চলবে এমনটা সঠিক নয়।

যাইহোক, সুইচগুলো যথেস্ট ক্লিকি। এবং সুইচ ক্লিকের সাউন্ড খুব বেশি লাউড না। মডারেট বলা যায়।
এই সুইচের লাইফসাইকেল ৫০ মিলিয়ন ক্লিক্স এবং এন কী রোলওভার সাপোর্টেড।
যদিও ১০ টার বেশি কী ইনপুট একসাথে দেয়াটাই টাফ।

কিবোর্ডের টাইপিং এক্সপেরিয়েন্স ছিল যথেষ্ট ভাল। ক্লিকি এবং ট্যাক্টাইল একটি রেস্পন্স ছিল কীবোর্ডে।
তাছাড়া, কীবোর্ডের রিস্ট রেস্টের জন্য টাইপিং করে ভাল লেগেছে।
১০০০ হার্জ পোলিং রেটের কিবোর্ডটিতে ৭২কেবি অন বোর্ড মেমরি আছে যা যাবতীয় ম্যাক্রো,আরজিবি লাইটিং এসব সেভ করে রাখতে পারে সফটওয়্যার সাপোর্ট ছাড়াই।

Software & RGB

সফটওয়্যার সাপোর্ট হিসেবে আছে গ্যামডিয়াসের সুপরিচিত হেরা সফটওয়্যার যা দিয়ে কীবোর্ডের ম্যাক্রো,ফাংশন্স এবং লাইটিং ইফেক্টস চেঞ্জ করা যাবে।
এছাড়া ৬ টি আলাদা প্রোফাইল সেটাপ সিস্টেম আছে।

কীবোর্ডের আরজিবির কথা বলতে গেলে এর লাইটিং এর কালার একুরেসি যথেস্ট ভাল কিন্তু আরজিবি লাইটের কালার সফট এবং এম্বিএন্ট নিয়ন টাইপের।
তাই এর থেকে কড়া কালার আউটপুট পাবেন না।

এই ধরনের নিয়ন লাইটিং আমার কাছে ভালই লেগেছে। কারন আপনি চাইবেন না কীবোর্ডের এলইডি লাইট দিয়ে টিউবলাইটের মত আলো হোক।
আর অনেকের কাছে এই সফট টাইপ লাইটিং অনেক ভালও লাগতে পারে। মুল কথা লাইটিং তেমন এগ্রেসিভ নয়। তবে কালারটা রিচ বা উচ্চ মার্গীয় বলা যায়।
যাইহোক, কীবোর্ডের কিছু ইফেক্টের মধ্যে আছে
ওয়েভ,ব্রিদিং, স্লাইড ইন, রোটেশন,সার্কুলার মারকুইস,মারকুই,কালারফুল মারকুই,নিয়ন,রেস্পন্সিভ ফেড আউট, রেইনবো ড্রপ,রিপল।

 

 

 

 

Overall Opinion

Gamdias Hermes P1 কীবোর্ডে কিছু ছোট ছোট ফিচার আছে যেসব মেনশন করা হয় নি যেমন, অল কি লক, উইন্ডোজ লক বাটন, wasd & arrow কী চেঞ্জ ইত্যাদি।
৬৬৫০ টাকায় আমি একে খারাপ ডিল বলতে পারি না। যদিও এই দামে এর কম্পিটিটিভ অনেক কীবোর্ডই বাজারে এভেইলেবল।
কিন্তু ঐ কিবোর্ডগুলোর অনেক গুলোতেই আরজিবি নেই।
যাদের মেকানিকাল কীবোর্ডের সাথে আরজিবি চাই তাদের জন্য এটি ভাল একটি চয়েস হতে পারে। এছাড়া রিস্ট রেস্ট থাকাটা এর একটি প্লাস পয়েন্ট।

 

REVIEW OVERVIEW
Build Quality
Switch Quality
Comfort
RGB Lighting
Value For Money
A casual/occasional gamer,writter,programmer and PC enthusiast. :)