প্রায় এক বছর ধরে বিভিন্ন বির্তক সৃষ্টি করে অবশেষে ব্যাটলফিল্ড সিরিজের লেটেস্ট গেম Battlefield 5 কিছুদিন আগে মুক্তি পেলো। আর আমরা চলে এলাম গেমটির রিভিউ নিয়ে। বরাবরের মতোই আজকেও আমি গেমটির স্টোরিলাইন, গেমপ্লে এগুলো নিয়ে কথা বলবো না; আজ সরাসরি গেমটির ভালো এবং মন্দদিকগুলো নিয়ে কথা বলবো যাতে যারা যারা গেমটি কিনবেন বলে ভাবছেন তাদের জন্য সিদ্ধান্ত নেওয়াটা সহজ হয়। বিশেষ করে এনভিডিয়ার নতুন RTX সিরিজের গ্রাফিক্স কার্ড আর রেয় ট্রেসিং ফিচারের কারণে অনেকেই গেমটি কিনবেন। তবে প্রায় এক বছরের বির্তক শুরু হয় গেমটির ট্রেইলার এবং স্টোরিলাইনকে ঘিরে। স্টোরিলাইনের পরিপূর্ণ তথ্য ব্যবহার না করা এবং গেমটির কভারে এই প্রথম মহিলা সোলজার ব্যবহার করার জন্য অনেক ব্যাটলফিল্ড ফ্যান গেমটিকে Battlefield 1.5 বলে আখ্যায়িত করেছেন। তবে নতুন স্টাইলের ভিজুয়্যাল, ক্ল্যাসিক মাল্টিপ্লেয়ার ফরমূর্লার কিছু উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন, নতুন Grand Operations Mode সহ বেশ কিছু নতুনত্ব আনা হয়েছে গেমটিতে। এছাড়াও ইতিমধ্যেই গুজব রয়েছে যে আগামী বছরে EA গেমটিতে বেশ কিছু নতুন কনটেন্ট আনবে, আর গেমটির যে সিকুয়্যাল হচ্ছে সেটারও কিছুটা ইঙ্গিত পাওয়া যায়। ব্যাটলফিল্ড সিরিজের ১৬তম সংষ্করণ Battlefield 5 নভেম্বর ২০ তারিখে বিশ্বব্যাপী মাইক্রোসফট উইন্ডোজ, প্লেস্টেশন ৪ এবং এক্সবক্স ওয়ান গেমস কনসোলে মুক্তি পেয়েছে । তবে যারা যারা গেমটির Deluxe Edition প্রি-অর্ডার করেছিলেন তারা নভেম্বর ১৫ তারিখেই গেমটিতে Early Access পেয়ে গিয়েছেন এবং যারা যারা Origin Access এর প্রিমিয়াম সাবক্রাইবার রয়েছেন তারা আরো আগেই ৯ নভেম্বর, ২০১৮ তারিখেই গেমটিতে একসেস পেয়ে গিয়েছেন। তো চলুন প্রথমে দেখে নেই গেমটির ভালো বা পজিটিভ সাইডগুলোকে।

নতুন Attrition গেমপ্লে

ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটির মূল গেমিং এক্সপেরিয়েন্স কে পরিবর্তন করতে এতে নতুন ফিচার Attrition আনা হয়েছে। এর জন্য এখন প্লেয়ার গেমটিতে লিমিটেড পরিমাণের গুলি (সাধারণত ২ কিংবা ৩ ম্যাগাজিন) নিয়ে Spawn করবে এবং একই সাথে গেমটিতে এখন আর অটোমেটিক্যালি প্লেয়ারের হেলথ regenerate হবে না। এদিকে এই সিস্টেমকে time-to-kill সময় বৃদ্ধির সাথে কম্বাইন করা হয়েছে। আর গেমটির গেমপ্লে কেও এবার বেশ টাইট করা হয়েছে। এমন না যে অবজেক্টিভ পূরণ করার জন্য দৌড়ে গেলেন আর শত্রুদের উপর এলোপাথারি গুলি করে অবজেক্টিভ কমপ্লিট করে নিলেন, গেমটিতে এখন আপনাকে কখন গুলি করতে হবে আর কখন দূরবর্তী শত্রুকে ছেড়ে দিতে হবে এ ব্যাপারে প্ল্যান করা লাগবে। মানে গেমটিতে আপনাকে বেশ tactical thinking করতে হবে। আর অটোমেটিক হেলথ রিস্টোর এবং কম গুলি থাকায় গেমটির Medic ও সার্পোট ক্লাসের গুরত্ব বেশ বেড়ে গিয়েছে। এখন গেমটিতে আপনাকে মেডিক এর ব্যান্ডেজ এবং সার্পোটের ammo pouch এর উপর নির্ভর করে থাকতে হবে।

Animation ভিক্তিক গেমপ্লে

ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে DICE এর আসার অন্যতম মূল কারণ হচ্ছে গেমটির গেমপ্লেকে যতটা পারা যায় সিরিজের আগের গেমসগুলোর থেকে immersive করা। এই কারণেই ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে ভাচুর্য়ালভাবে 3D spotting ফিচারটিকে সরিয়ে ফেলা হয়েছে। অন্যদিকে গেমটির নির্মাতারা গেমটির Animation ভিক্তিক গেমপ্লে সিস্টেমে বেশ জোর দিয়েছেন। এর মাধ্যমে ক্যারেক্টারের উপর প্লেয়ারের অনেক বেশি নিয়ন্ত্রণ থাকবে। যেমন নক আউট হওয়া কোনো টিমমেটকে বাঁচাতে হলে এখন একটি Animationয়ের মাধ্যমে আপনাকে যেতে হবে। উল্লেখ্য যে ব্যাটলফিল্ড ১ গেমটিতে নক আউট হওয়া টিমমেটকে মাত্র সেকেন্ডের মধ্যেই revive করা যেতো। অনেকেই বলবেন যে গেমিং সেক্টরে দ্রুততর revive সবসময়ই একটি কাজের জিনিস, তবে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে “বাস্তবিক” গেমপ্লে স্বাদ আনার জন্যই এনিমেশনকে নিমার্তারা ব্যবহার করেছেন।

র‌্যান্ডম লুট বক্স নেই

গেমটিতে কোনো রান্ড লুট বক্স নেই, মানে গেমটির কারেন্সি দিয়ে আপনি আরো কাস্টমাইজেশনের সুযোগ পাবেন। বিশেষ করে Star Wars Battlefront 2 গেমটির র‌্যান্ডম লুট বক্স স্ক্যান্ডালের পর EA ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটি থেকে র‌্যান্ডম লুট বক্স ফিচারটি উঠিয়ে দিয়েছে। গেমটিতে স্কিন, গুলি, অস্ত্র, কাপড়-চোপড় কাস্টমাইজেশন করার জন্য কোম্পানি কয়েন দিয়ে আপনি যেকোনো কিছুই কিনতে এবং আপগ্রেড করতে পারবেন। এই কয়েনগুলো আপনি গেমটির বিভিন্ন চ্যালেঞ্জ, এসাইনমেন্ট এবং প্লেয়ারের লেভেল আপ করে অর্জন করতে পারবেন। এই সিস্টেমটি পরিপূর্ণ না হলেও অনেকেই একে স্বাগত জানিয়েছে। বিশেষ করে কোনো গেমে কস্ট করে বিভিন্ন অবজেক্টটিভ পূরণ করে প্রিমিয়াম কারেন্সি অর্জন করলেন তারপর সেটাকে র‌্যান্ডম বক্সে খরচ করলেন ভালো কিছু পাবার আশায় কিন্তু অধিকাংশ সময়ই এসব বক্স থেকে ভালো আইটেম পাওয়া যায় না। আর ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে আপনি এই in-game পয়েন্ট দিয়ে নিজের ইচ্ছে মতো কাস্টমাইজেশন করে নিতে পারবেন, যেমন অস্ত্রের কাস্টম camouflage , চরিত্রের জন্য নতুন আউটফিট, গাড়ির নতুন লুকস ইত্যাদি।

চমৎকার গ্রাফিক্স এবং অডিও সিস্টেম

আজকাল রিলিজকৃত প্রায় অধিকাংশ AAA গেমে আর যা কিছু থাকুক বা না থাকুক গ্রাফিক্স আপগ্রেড থাকবেই। এটা চিরন্তন সত্য। তবে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটির গ্রাফিক্স এবং একই সাথে অডিও সিস্টেমটি বেশ চমৎকার এবং প্রশংসার যোগ্য। নিমার্তা প্রতিষ্ঠান DICE গেমটিকে Frostbite ইঞ্জিণ দিয়ে বেশ চমৎকারভাবেই সাজিয়েছে। গেমটিতে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পটভূমিকে খুব সুন্দর ভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে। আর সিরিজের আগের গেমের থেকে গ্রাফিক্সের দিক থেকে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে বেশ কিছু আপগ্রেড রয়েছে, এদের মধ্যে terrain এর ঘনত্ব বৃদ্ধি, পরিবেশের উপর dense, চমৎকার আগুনের ইফেক্ট এবং সিগনেচার Ray Tracing ইফেক্ট। রেয় ট্রেসিং ইফেক্ট নিয়ে নতুন করে বলার কিছু নেই। যারা যারা রেয় ট্রেসিং ফিচারযুক্ত গ্রাফিক্স কার্ড দিয়ে গেমটি খেলতে পারবেন তাদের কাছে গেমটি এক নতুন লেভেলের স্বাদ উপাহার দিতে পারবে। এছাড়াও গেমটির আবহাওয়া সিস্টেমেও আনা হয়েছে পরিবর্তন। কখন কোন আবহাওয়া থাকবে সেটা গেমটিতে র‌্যান্ডম ভাবে আসবে। মানে ধরুন পাহাড়ের চূড়ায় আপনি যুদ্ধ করছেন যেখানে হঠাৎ করে বরফবৃস্টি হতে পারে আবার কড়া রোদও থাকতে পারে।

সিরিজের সেরা সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইন

আপনার ইতিমধ্যেই জানেন যে ব্যাটলফিল্ড গেমস সিরিজের মূল প্রতিযোগী সিরিজ কল অফ ডিউটির ব্ল্যাক অপস ৪ গেমটিতে কোনো প্রকার সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইন নেই। আর ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটির ব্যাপারেও প্রায় একই কথা বলা যায়। ব্যাটলফিল্ড ৫ হচ্ছে  মূলত একটি মাল্টিপ্লেয়ার ফোকাসড ভিডিও গেম। তবে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে আপনি সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইনও পাবেন। গেমটিতে ৪টি সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইন রয়েছে যেগুলোকে একত্রে War Stories বলা হয়। শুরু দিকে আপনি ৩টি war stories এপিসোড পাবেন। এগুলো হচ্ছে Nordlys, Tirailleur এবং Under No Flag । ৪র্থ এপিসোড The Last Tiger অতি শীঘ্রই রিলিজ পাবে। মাত্র ৩/৪টি ক্যাম্পেইন থাকা সত্বেও এই স্টোরিলাইনগুলোকে বেশ চমৎকার ভাবে সাজানো হয়েছে এবং এগুলো খেলার সময় আপনার মনেই হবে না যে আপনি ভিডিও গেমস খেলছেন, মনে হবে যে আপনি দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের কোনো হলিউড সিনেমা দেখছেন। ব্যাটলফিল্ড ১ গেমটিতেও প্রথম বিশ্বযুদ্ধের উপর War Stories ছিলো কিন্তু এবারের গেমে সিঙ্গেল প্লেয়ার স্টোরিলাইনকে বেশ পরিপাটি করে নির্মাণ করা হয়েছে। ব্যাটলফিল্ড ১ গেমটির স্টোরিলাইনকে আপনার বেশ liner এবং একঘেয়ে মনে হতে পারে কিন্তু ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে তা হবে না।

ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটির উল্লেখযোগ্য ভালো দিকগুলো নিয়ে এতক্ষন কথা বললাম। সত্যিই গেমটির গ্রাফিক্স, সাউন্ড সিস্টেম এবং ছোট হলেও সিঙ্গেল প্লেয়ার স্টোরিলাইন প্রশংসার যোগ্য। আর মাল্টিপ্লেয়ার গেমপ্লের আপডেট তো রয়েছেই । কিন্তু এবার আসুন গেমটির মন্দ বা Cons দিকগুলো একবার দেখে নেওয়া যাক।

প্রচুর বাগ দিয়ে ভর্তি!

এটা ব্যাটলফিল্ড ৪ কিংবা বিখ্যাত প্রিন্স অফ পার্সিয়া ফরগটেন স্যান্ডস ভিডিও গেম নয় হবে DICE এর তৈরিকৃত এই ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটির মন্দদিক নিয়ে বলতে গেলে সবার আগে গেমটির বাগস নিয়ে বলতেই হয়। ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে প্রচুর বাগস এব গ্লিচ রয়েছে, যা একই সাথে হাস্যকর এবং প্যাড়া দায়ক। বাগ এবং গ্লিচ প্রতি ভিডিও গেমেই কম বেশি থাকে তবে এই গেমটিতে বেশ বাগস এবং গ্লিচ রয়েছে। তাই গেমটিকে যথাযথ মনিটরিং এবং টেস্ট না করিয়েই রিলিজ করায় অনেকেই গেমটির নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের উপর চটেছেন। মানে গেমটি পুরোপুরি কমপ্লিট না করেই রিলিজ দেওয়া হয়েছে, আর এই বিষয়ে বলতে গেলে গেমটির পরের মন্দদিকটি এটাই:

এটা কমপ্লিট গেম নয়


জেনারেল বা সাধারণত ভাবে বলতে গেলে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে কনটেন্ট এর কোনো কমতি নেই। গেমটিতে রয়েছে ৬ ঘন্টার সিঙ্গেলপ্লেয়ার স্টোরিলাইন, রয়েছে চমৎকার মাল্টিপ্লেয়ার সেকশন । তবে আপনি যদি ব্যাটলফিল্ড সিরিজের ফ্যান হয়ে থাকেন তাহলে আপনার কাছে গেমটি Incomplete বলে মনে হবে। যেমন গেমটির সিঙ্গেলপ্লেয়ার স্টোরিলাইনের একটি পর্ব গেমটির মুক্তির সময় অন্তর্ভূক্ত করা হয়নি। আবার মুক্তির মাসখানেক আগে থেকে গেমটির সম্পর্কে প্রচারিত বিভিন্ন ফিচারগুলো গেমটিতে এখনো আনা হয়নি। যেমন battle royale মোডটি গেমটির মুক্তির সাথে যোগ করার কথা থাকলেও আগামী বছর এই মোডটি গেমটিতে আনা হবে বলে নিশ্চিত হওয়া গিয়েছে। এছাড়াও গেমটি চালু করলে অনেক ফিচারের উপরেই আপনি দেখবেন “coming soon” ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে। তাই গেমটি Incomplete গেম মনে হওয়াটাই বেশ স্বাভাবিক।

অগোছালো ইউজার ইন্টারফেস


যদিও এটা কোনো বড় ইস্যু নয় তবে আপনি লক্ষ্য করলে দেখবেন যে DICE এর নির্মিত প্রতিটি ব্যাটলফিল্ড গেমসগুলোর ইউজার ইন্টারফেস তেমন গোছালো প্রকৃতির নয়। আর ব্যাটলফিল্ড ৫ এর বেলায়ও সেটাই ঘটেছে। মানে ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটি চালু করার পর মেন্যুগুলো দেখে আপনার কোনো আকর্ষণীয় ভাব আসবে না। তবে ভালো ব্যাপার হচ্ছে এবার আপনি ইউজার ইন্টারফেসেও কাস্টমাইজেশনের অপশন পাবেন। তবে কাজের সময় অতিরিক্ত মেন্যুর স্টাইলের জন্য আপনি গেমটির উপর বিরক্ত হয়ে যেতে পারেন।

War Stories


গেমটির সর্বশেষ মন্দ দিক হলো War Stories ! আপনি হয়তো বলতে পারেন যে গেমটির ভালো দিকগুলোতেই আমি একে মেনশন করলাম আবার এখানে একে মেনশন করছি এর মানে টা কি। এর মানে হচ্ছে War Stories অবশ্যই একটি ভালো সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইন কিন্তু স্টোরিলাইনের সত্যতা এবং অনেক সময় আপনার মনে হবে এই স্টোরিলাইন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পটভূমির উপর মানায় না। গেমটিতে War Stories কাহিনীগুলোকে বেশ তাড়াহুড়ো করে বানানো হয়েছে তাই আপনার কাছে মনে হবে সিঙ্গেল প্লেয়ার ক্যাম্পেইনে নির্মাতারা ভালো ফিনিশিং দিতে পারেনি।

তো এই ছিলো গেমটির ভালো এবং মন্দদিকগুলো। আমার মতে গ্রাফিক্স আর অডিও সিস্টেমের চমৎকার আপগ্রেড এবং মাল্টিপ্লেয়ারে বৈচিত্রতা আপনি এই ব্যাটলফিল্ড ৫ গেমটিতে দেখতে পারবেন। যারা ক্যাজুয়াল গেমার রয়েছেন তাদের জন্য গেমটির মন্দদিকগুলো তেমন প্রভাব ফেলবে না তবে যারা ব্যাটলফিল্ড সিরিজের ডাই হার্ড ফ্যান রয়েছেন তাদের জন্য এগুলো বেশ দুঃখজনক।

নির্মাতা:
EA DICE

প্রকাশ করেছে:
Electronic Arts

সিরিজ:
ব্যাটলফিল্ড (১৬তম সংষ্করণ)

ইঞ্জিণ:
Frostbite 3

খেলা যাবে:
মাইক্রোসফট উইন্ডোজ
প্লেস্টেশন ৪ এবং
এক্সবক্স ওয়ান কনসোলে

মুক্তি পেয়েছে:
নভেম্বর ২০, ২০১৮

খেলার ধরণ:
ফার্স্ট পারসন শুটার

খেলার মোড:
সিঙ্গেল এবং মাল্টিপ্লেয়ার

অফিসিয়াল সিস্টেম রিকোয়ারমেন্টস:

সময় পেলে পড়ে আসুন আমাদের Hitman 2 রিভিউ