31 C
Dhaka
Saturday, July 13, 2024

iTop VPN বাংলা রিভিউ ও Giveaway

- Advertisement -

VPN for PC নিয়ে আমরা মাঝে মাঝেই লিখে থাকি, আমাদের ওয়েবসাইটে এর আগেও পাবলিশ করা হয়েছে বেশ কিছু VPN এর রিভিউ। আজকে থাকছে iTop VPN এর রিভিউ। রয়েছে iTop VPN VIP ACCOUNT এর giveaway  ও। পার্টিসিপেট করতে আর্টিকেল টিতে কমেন্ট করুন ও আর্টিকেল টি শেয়ার(পাবলিক) করুন।প্রথম 50 জন পেয়ে যেতে পারেন iTop VPN এর ভিআইপি একাউন্ট। কমেন্ট করার সময় ওয়েবসাইটের জায়গায় আপনার ফেসবুক একাউন্টের লিঙ্ক দিন যাতে আপনার শেয়ারটি ট্র্যাক করা যেতে পারে।

রিভিউটি আমরা কয়েকটি ভাগে ভাগ করেছি। প্রথমে UI ও ফিচার এনালাইসিস, তারপর আমরা সার্ভার লিস্ট নিয়ে পর্যালোচনা ও পর্যায়ক্রমে ফ্রি ও প্রিমিয়াম সার্ভার এর কানেকটিভিটি/পারফরম্যান্স টেস্টিং,স্পেশাল ফিচার টেস্টিং ও কিছু নেগেটিভ সাইড নিয়ে আলোচনা করবো।

- Advertisement -

User Interface and accessibility

VPN for Windows অর্থাৎ iTop VPN এর উইন্ডজ এডিশনের UI মোটামুটি সিম্পল। হোমপেজে বড় করে connect/disconnect বাটন ও তার নিচেই connectivity status লেখা রয়েছে। নীচে পর্যায়ক্রমে আইপি,সার্ভার লোকেশন ও প্রটোকল রয়েছে যেখানে ক্লিক করে সার্ভার বা প্রটোকল চেঞ্জ করা যাবে।

Home এর পরেই আছে server lists. এখানে সব ধরনের এভেলেবল লোকেশন ও সার্ভার randomly লিস্ট করা আছে,সার্ভার এর লোড ও সিগনাল স্ট্রেনথ ও পাশে লেখা রয়েছে।সার্চবার থেকে সার্চ ও করা যাবে।

- Advertisement -

এই সার্ভার লিস্টেই রয়েছে ডিফারেন্ট ক্যাটাগরির ,ডিফারেন্ট পারপাস এর সার্ভার যা পরের সেকশন গুলোতে ভাগ করে দেওয়া হয়েছে Download servers(P2P  servers),streaming servers (netflix, disney,amazon,hulu etc),social servers (facebook,insta,skype,twitter etc)  ও gaming servers (pubg,cod warzone, minecraft, csgo,new world etc)।

- Advertisement -

Features and accessibility 

এগুলোর নিচেই রয়েছে টুলস সেকশন যেখানে প্রাইভেসি প্রটেকশন ও কুইক এক্সেস নামে দুটি সাবসেকশন ও রয়েছে। প্রাইভেসি প্রটেকশন সাবসেকশনে রয়েছে অনেকগুলো অপশন, security reinforce toggle, browser privacy,IP configuration, IP Checker, Adblocker, Split tunneling,IPv6,Kill switch ও DNS protection এর মত ফিচার গুলো।। এগুলোর কার্যকারিতা সম্পর্কে পরে আলোচনা হবে।

তবে Quick access মেনুটি  নিয়ে এখনই কিছু বলতে হচ্ছে। এই মেনুতে ব্রাউজ সিকিউরলি এন্ড প্রাইভেটলি, হাইড লোকেশন, ওয়াচ নেটফ্লিক্স, ওয়াচ ডিজনি,প্লে পাবজি,আনব্লক ফেসবুক ইত্যাদি অপশন রয়েছে। কিন্ত হাস্যকর ব্যাপার হচ্ছে এই মেনুর নাম quick access দিলেও পজিশন দেওয়া হয়েছে সবার শেষে।। এই অপশনগুলোর কোনো শর্টকার্ট,সেন্টার পজিশন দেওয়া হয়নি।

তার থেকেও বড় কথা ঘুরে ফিরে আগের সেকশন এর জিনিস গুলোকেই এক জায়গায় করা হয়েছে।ভিন্ন নাম দেওয়া হয়েছে, যেমন হাইড লোকেশন অপশনটি প্রকৃতপক্ষে ভিপিএন চালু করে,হোমপেজ থেকে ভিপিএন চালু করলে যা হয় একই ঘটনা ঘটে ।

তারপর আসা যাক ব্রাউজ সিকিউরলি এন্ড প্রাইভেটলি অপশনটির ব্যাপারে, এটির কাজ ও ভিপিএন চালুই করা।আরেকট ব্যাপার হচ্ছে এই অপশনগুলোতে সবসময় ই কানেক্ট বাটনটি জ্বলে থাকে ,কানেক্ট বা ডিসকানেক্ট ,অপশন এক্টিভেট বা ডিএক্টিভেট হয়েছে কি না তা বুঝার উপায় থাকে না।, ভিপিএন চালু থাকুক বা না থাকুক কানেক্ট বাটনটি থাকে,এমনকি এই কানেক্ট বাটনে ক্লিক করে কথিত ফিচারটি চালু করলেও বুঝার উপায় নেই যে ফিচার ইনেবল হয়েছে কি না,ভিপিএন বা সিকিউরিটি চালু হয়েছে কি না,কেননা কানেক্ট এ ক্লিক করার পর এটিহোমপেজে ফিরে আসে ও তারপর আবার ও কুইক এক্সেস মেনুতে গেলে আগের মতোই কানেক্ট অপশন দেখা যায়, তাহলে ইউজার আদৌ কতটা বিরক্ত ও confused হবেন তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

আর unblock facebook,unblock whatsapp নামের যে অপশনগুলো এই মেনুতে দেওয়া হয়েছে তা আসলে আগের সোশ্যাল সেকশনের সার্ভারগুলোই এক্টিভেট করে মাত্র।

Free Servers and features: performance

যেকোনো ইউজার একটি ভিপিএন বা যেকোনো premium প্রোডাক্ট কিনবেন কি না ব্যাপারটা অনেকটাই নির্ভর করে প্রোডাক্ট টির free VPN ভার্সন এর ফিচার, পারফরম্যান্স নিয়ে ইউজার এর যে ফার্স্ট ইম্প্রেশন হয় তার উপর। অনেকে ইমারজেন্সি কাজেও VPN ডাউনলোড করে থাকেন ,কোনো বিশেষ কাজে একটি নির্দিষ্ট সার্ভার এর দরকার হতে পারে। তাই একটি VPN PROGRAM কতগুলো ফ্রি সার্ভার অফার করছে ও সেগুলোর কানেকটিভিটি, স্পিড,পারফরম্যান্স কেমন তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

আমরা 10-12টি ফ্রি সার্ভার পেয়েছি।যার মধ্যে জাপান,জার্মানি,ফ্রান্স, UK(2টি),অস্ট্রেলিয়া ও USA (5টি ) ছিল। এর মধ্যে USA এর একটিও আমরা কানেক্ট করতে পারিনি। 12 ঘন্টা পর চেষ্টা করেও USA এর একটি সার্ভার ও কানেক্ট হয়নি।

তবে যেগুলো কানেক্ট হয়েছিল সেগুলোতে আমরা আমাদের বাছাইকৃত 6,7টি লিংক,ডাউনলোড, ফেসবুক ইউটিউব ভিডিও প্লে ও ডাউনলোড করে দেখেছি।

20mb বা 2.5MB স্পিডের লাইনে ভিপিএন কানেক্ট থাকা অবস্থায় ইউটিউব এ 1080p ভিডিও মোটামুটি বাফার ছাড়াই চলেছে, দ্রুত লোড হয়েছে ও ডাউনলোড স্পিড ও ভালো ছিল। ফেসবুকেও স্ট্রিম প্লেব্যাক হয়েছে ভালোভাবেই।।অন্যান্য পেজগুলোর লোড স্পিড ও ছিল মোটামুটি ফাস্ট। আমাদের টেস্ট করা 3টি ডাউনলোড লিংকের মধ্যে দুটি ফাস্ট ছিল বেশ, প্রায় ফুল স্পিড উঠতে দেখা গিয়েছে, অপরটি ছিল বেশ স্লো, যদিও তা লোকেশন চেন্জ করে সমাধান হয়ে যাওয়ার কথা । ফ্রি সার্ভার গুলোর মধ্যে প্রায় সবগুলোই কানেক্ট হয়েছে ও স্পিড ভালো ছিল ও লোডিং টাইম ও কম ছিল মোটামুটি।

তবে USA এর একটি সার্ভার ও আমরা কানেক্ট করতে পারিনি।ফ্রি স্ট্রিমিং সার্ভার গুলোর মধ্যে sling tv,pluto tv, crunchyroll,beIN sports ছিল যেগুলো প্রত্যেকটিই কানেক্ট হয়েছে ।

দুর্ভাগ্যজনক ভাবে একটি ডাউনলোড সার্ভার ও ফ্রি নয়,সবগুলোই ভিআইপি। একটি হলেও ফ্রি দেয়া দরকার ছিল।একইভাবে একটি গেমিং সার্ভার ও ফ্রি নয়। বলতেই হচ্ছে সার্ভার চয়েস এর হিসাবে ফ্রি একাউন্টে খুবই কম সার্ভার ই ব্যবহার করা যাবে।

ফিচার এর কথা বলতে গেলেও প্রায় একই কথাই বলতে হয়। IPv6,kill traffic আর DNS Protection বাদে বাকি সবগুলো অপশনই ফ্রি একাউন্টে ডিজেবল থাকবে ,সোশ্যাল মিডিয়া আনব্লকিং এর সুযোগ ও নেই।

VIP SERVERS COLLECTION, CONNECTIVITY

ভিআইপি সার্ভারলিস্টটি বলতে গেলে বেশ বড়। প্রচুর লোকেশন ও সার্ভার রয়েছে, কিছু কিছু বড় দেশের প্রদেশ বা শহর অনুসারেও ভিন্নভিন্ন সার্ভার রয়েছে।এশিয়া মহাদেশে বাংলাদেশ ,ভারত,জাপান,রাশিয়া,তুরস্ক,মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর সহ আরো অনেক দেশ রয়েছে।

ইউরোপেও জার্মানি,ফ্রান্স ইতালি ,স্পেন সহ অনেক দেশের সার্ভার রয়েছে।আরো রয়েছে কানাডা ,UK এর অনেকগুলো সার্ভার।

আমরা চেক করেছিলাম এগুলো আদৌ কানেকশন পায় কি না, ভালো ব্যাপার হচ্ছে বাংলাদেশ থেকে শুরু করে আমাদের টেস্ট করা প্রায় সবগুলো লোকেশনেই কোনো সমস্যা ছাড়াই কানেক্ট করা গিয়েছে, বেশিরভাগ ক্ষেত্রে কানেক্ট হতে 2-5 সেকেন্ডের বেশি সময় লাগেনি।

কিছু স্পেশাল সার্ভার ও আছে বিভিন্ন লোকেশনে, asia fastest যেমন এগুলোর মধ্যে একটি। এছাড়া smart location সিলেক্ট করলে iTop VPN তাদের সার্ভারলিস্ট থেকে সবথেকে ফাস্ট ও স্টেবল সার্ভারে কানেক্ট করে।

দুই একবার অটো কানেকশন বা MINIUI থেকে ফাসটেস্ট লোকেশন কানেক্ট করতে গিয়ে 30+ সেকেন্ড লেগে গিয়েছে,কয়েকবার random failure ও ছিল।

এছাড়া রাশিয়া,তুর্কি সার্ভারে আমরা কানেক্ট করতে পারিনি একাধিকবার চেষ্টা করেও, একই কথা US এর সরকারগুলোর ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। অনেকবার চেষ্টার পরেও আমেরিকার লোকেশন এ ঢোকা সম্ভব হয়নি।

VIP SERVERS SPEED, PERFORMANCE

এবার আমরা বেশ কিছু সার্ভারে ইন্টারনেট ব্রাউজ করে দেখবো।বিভিন্ন কান্ট্রিসহ এর মধ্যে এশিয়া ফাসটেস্ট ও বাংলাদেশ ও থাকবে। ভিডিও প্লেব্যাক ও ফাইল ডাউনলোড ও করে দেখবো, প্রায় প্রতি ক্ষেত্রেই আমরা pcbuilderbd.com,startech, techlandbd ও videocardz.com ভিজিট করবো ও mediafire, uptobox, zippyshare থেকে ফাইল ডাউনলোড করবো, সাথে থাকবে ফেসবুক এ ভিডিও প্লেব্যাক ও ইউটিউব এ ভিডিও প্লেব্যাক ও ডাউনলোড। আমাদের বেস ইন্টারনেট স্পিড 20Mbps ,আমরা লক্ষ রাখবো সাইটগুলো কত ফাস্ট লোড হচ্ছে, ডাউনলোড ও ভিডিও প্লেব্যাক ই বা কেমন হচ্ছে,তা বেস স্পিডের কতটা কাছাকাছি স্পিড এ রান করছে।

নীচে টেস্টিং এর ভিডিও গুলো দিয়ে দেওয়া হলো।

 

দেখতেই পাচ্ছেন।প্রতি ক্ষেত্রেই সাইটগুলো (pcbuilderbd, videocardz, techlandbd, startech) বেশ দ্রুত লোড হচ্ছে ও ভেতরের ইমেজ,অন্যান্য কন্টেন্ট ও খুবই দ্রুত লোড হচ্ছে,বিশেষ করে videocardz এর লোডিং স্পিড,কন্টেন্ট লোডিং খুবই ফাস্ট। pcbuilderbd, startech,videocardz এর পেজ লোড ও কন্টেন্ট লোড ও ছিল প্রায় প্রতি ক্ষেত্রেই ভালো রকমের ফাস্ট।

Youtube ও Facebook এর ভিডিও লোডিং ছিল যথেষ্ট ডিসেন্ট।1080pতে একদম মিনিমাম বাফারিং এ ভিডিও লোড ও seek হচ্ছিল। ভিডিও ডাউনলোড স্পিড ও বলতে গেলে 75% সময়ে মোটামুটি ফাস্ট পেয়েছি।অনেকক্ষেত্রেই স্পিড 2.5MB রিচ করেছে ও কিছু ক্ষেত্রে 6/7MB ও উঠেছিল।

এবং 3rd party mirror download এর কথা বলতে গেলে, স্পিড সার্ভার থেকে সার্ভার ভিন্ন ছিল, কিছু ক্ষেত্রে ভালো ছিল কিছু ক্ষেত্রে অনেক স্লো ছিল।

Gaming servers

গেমিং সার্ভারগুলো আমার টেস্ট করার সুযোগ হয়নি তবে ভালো স্পিড, লো পিং হয়তো বা পাওয়া যেতে পারে এগুলো থেকে, PUBG,WARZONE, MINECRAFT এর একাধিক লোকেশন এর সার্ভার রয়েছে।। এর বাইরে অন্যান্য গেমের জন্য আশা করা যায় ইউজার সিঙ্গাপুর, মালয়েশিয়া, জাপান বা iTop VPN এর fastest asia  সার্ভারগুলো কাজে আসতে পারে। যেহেতু এগুলো iTop VPN অটোমেটিক সাজেস্ট করে, এই সার্ভারগুলো হওয়ার কথা সবথেকে স্টেবল, সবথেকে ফাস্ট, পিং ও কম থাকা উচিত।

Special options and their working

এবার ফিচার গুলো নিয়ে একটু কথা বলা যাক।Security Reinforce: সিস্টেমের নিরাপত্তা ত্রুটি থেকে বাঁচাবে বা এ সংশ্লিষ্ট সব দেখভাল করবে। gimmicky মনে হয়েছে। browser privacy: মূলত ব্রাউজিং হিস্ট্রি,ক্যাশ,কুকিজ,সাইট সেটিংস এগুলো ক্লিয়ার করে( এটা তো আমরা ব্রাউজার থেকেই করতে পারি)।

IP configure: dynamic ,static,best IP এই ভার্চুয়াল আইপি গুলোর মধ্যে সুইচ করা যায়।। ভালো ফিচার আমার মতে।

IP checker: সিম্পল টুল, nice to have. না থাকলেও আসে যায় না, as the name suggests,আইপি সংক্রান্ত ইনফরমেশন পাওয়া যাবে এখান থেকে।

Ads blocker: মোটামুটি কাজ করে, তবে ads আসে,প্রায়ই আসে,কখনোই ব্রাউজার এর ডেডিকেটেড এডব্লকার এর বিকল্প না।

IPv6 : এটা বেশ ভালো একটা addition .

Split tunneling: শুধুমাত্র আপনার সিলেক্ট করা app গুলোই কেবল ভিপিএন ইউজ করবে,ফুল সিস্টেম নয়।। এটাও ভালো ।

Kill switch: ভিপিএন unfortunately বন্ধ হয়ে গেলে প্রাইভেসি ও সিকিউরিটি এর কারণে নেট কানেকশন ও বন্ধ হয়ে যাবে। ভালো ফিচার কিন্ত একাধিকবার itop vpn কে ফোর্স স্টপ করেও আমরা এই ফিচার এর কার্যক্রম পাইনি। কাজ করে না ।

DNS Protection: handy বলতে হবে, কনফিগার করা যায় টুকটাক।

Quick access

এর পজিশনটাই ঠিক না আগেই বলেছি। আর ফিচার গুলো মূলত একই জিনিস আলাদা করে অন্য নামে  দেয়া ,তার থেকে বড় সমস্যা হচ্ছে অপশন গুলো কানেক্ট করলেও কানেক্ট বাটনই এসে থাকে যা নিয়ে আগেই বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে।  বিরক্তিকর।। ও হ্যাঁ, বেশ অনেকগুলো ফিচার কাজ করেনি কারণ সেগুলো ইউএস সার্ভার।

 

Protocol

যতদূর জেনেছি এটি wireguard বা openvpn এর মত  প্রটোকল এর বদলে নিজেদের কাস্টম স্কিম  ব্যবহার করে। প্রথমে এটি ফাস্ট প্রক্সি কানেকশন এর মাধ্যমে সার্ভারে কানেক্ট হয় ও পরে windivert নামের টুলের মাধ্যমে টানেলিং করে।নিজেদের এই কাস্টম সিস্টেম সম্পর্কে তারা খুব বেশি তথ্য দিচ্ছে না।।এডভান্সড কাস্টমাইজেশন এর দিক দিয়েও iTop VPN খুবই বেসিক একটি ভিপিএন।

no notification, no sound, no sense,random failure and delay :

ভিপিএন কানেক্ট,ডিস্কানেক্ট এর কোনো নোটিফিকেশন,সাউন্ড কিছুই আসে না যা খুবই বাজে একটি ব্যাপার।পিসির স্টার্টআপের সময় app লঞ্চের ও কোনো popup,notification,sound কিছুই আসে না। অনেক সময় কানেক্ট করতে ৩০ সেকেন্ড এক মিনিট লেগে যায় । কিছু সার্ভারে কানেকশন পাওয়া যায় না যেমন US,Russia,Turkey।

আরেকটি বাজে বিষয় হচ্ছে কানেক্টে ক্লিক করলে বেস্ট সার্ভার বা স্মার্ট লোকেশন না, app টি সর্বশেষ কানেক্টেড লোকেশন বা সার্ভারেই কানেক্ট করে। যেমন আমি একবার netflix এ কানেক্ট করলে পরেরবার কানেক্ট অপশনে ক্লিক করলে কোনো লোকেশন না, ভিপিএনটি Netflix এই কানেক্ট করে।

Pricing

বর্তমানে new year sale চলছে।86% ডিস্কাউন্ট এ iTop VPN VIP এই অফারে মাত্র 60 ডলারে  ৩ বছরের সাবস্ক্রিপশন পেয়ে যেতে পারেন। কিংবা ৫৫ ডলারে দুই বছরের সাবস্ক্রিপশন পেয়ে যেতে পারেন।

buy now at 86% discount

try for free

Overall

বেশ কিছু কাজের ফিচার,সিকিউর কানেকশন, বিশাল সার্ভার কালেকশন, সার্ভিস ও কন্টেন্ট ভিত্তিক ভিপিএন সুবিধা,প্রাইভেসির সাথে ফাস্ট ডাউনলোড ও ইন্টারনেট ব্রাউজিং এক্সপেরিয়েন্স।। এগুলোই ভালো দিক।রয়েছে android app ও।

সাথে UI এ কিছু সমস্যা, কিছু অকার্যকর ফিচার,quick access মেনুর ভিত্তিহীন পজিশন ও কার্যহীনতা , কিছু বিরক্তিকর এক্সপেরিয়েন্স যেমন কিছু সার্ভারে এক্সেস না পাওয়া, NOTIFICATION সমস্যা, এগুলো খারাপ দিক যা ডেভেলপার রা চাইলেই সলভ করতে পারেন।।

এক কথায় iTop VPN একটি ভালো ভিপিএন যেটির বেশ কিছু উন্নতির জায়গা রয়েছে। আমি একে রেটিং দেব 10 এ 7।

 

- Advertisement -

175 COMMENTS

  1. আর্টিকেল পড়ে যা বুঝলাম মোটামুটি কাজের ভিপিএন, কথা হলো জিটিএ ফাইভ নির্বিঘ্নে খেলা যাবে কিনা ?

  2. আর্টিকেল পড়ে অনেক কিছু বুঝলাম। বেশ কিছু ফিচারস রয়েছে। Thakns

  3. জীবনে কোনো অ্যাপ এর প্রিমিয়াম অ্যাকসেস পাইনাই। তাই আমি এইবার ফ্রী তে হলেও ভাগ্য বসত কোনো অ্যাপ এর প্রিমিয়াম অ্যাকসেস পাওয়ার আবেদন জানালাম।

  4. টপ এন্ড ভিপিএন হতে হলে কিল সুইচ কার্যকর করতে হবে। যারা নিয়মিতই ভিপিএনের প্রটেকশনে থাকতে চান, তাদের জন্য এ ফিচারটি একদম মাস্ট।
    আরেকটি ব্যাপার, এ ভিপিএনটি লগ রাখে কি না সেটাও একটা গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার।

  5. ভাই, আমারে পিসি হেল্পলাইন এন্ড ডিসকাশন গ্রুপ থেইকা আন ব্যান করেন। প্লিজ (হাইফাইভ)

  6. আর্টিকেল পড়ে বুঝলাম। এটার হোমপেজ বেশ সহজ ভাবে সাজানো হয়েছে। মনেহয় এটা ব্যবহার করা তুলনামূলক সহজ হবে। একই সাথে এটা বেশ কাজের জিনিসও বটে । সব মিলিয়ে দারুণ।

  7. এটার হোমপেজ বেশ সহজ ভাবে সাজানো হয়েছে। মনেহয় এটা ব্যবহার করা তুলনামূলক সহজ হবে। একই সাথে এটা বেশ কাজের জিনিসও বটে । সব মিলিয়ে দারুণ।

  8. পুরো আর্টিক্যালটা পরলাম ভিপিএন টা নিয়ে কয়েকদিন আগেও পোষ্ট দেখেছিলাম। কিন্তু তেমন গুরুত্ব দেইনি। আজকে যখন প্রিয় পিসি বিল্ডারে দেখলাম তাই এখন আর দেরী করলাম না ।

  9. জোশ। আচ্ছা, VPN কি ping reduce করতে পারে কোন গেম এর?

  10. তোমার লিখা গুলো পড়তে আমার বেশ ভালো লাগে
    কারণ পিসিবি বিডি এর আর্টিকেল গুলোতে ইনফরমেশন এ ঠাসা থাকে।

  11. VPN এর এতো ডিটেলস রিভিও.. সত্যিই চমৎকার ছিলো। Android, windows,mac আর ios, 4 প্লাটফর্ম এই কিন্তু vpn টা ব্যবহার করা যায় ❤️.. এটা দারুণ একটা ব্যাপার।

    আর Valentines উপলক্ষে তো ফাটাফাটি Deal দিয়েছে, 3 years এর সাবস্ক্রিপশন কিনলে 86% discount.

    আমি iTop এর old user, free server ও দারুণ স্পিডি। আমার বিজনেসে vpn প্রয়োজন হয়.. প্রায় অনেক vpn টেস্ট করেছি ; iTop vpn টা Value for money হবে আশা করছি।

    PCB যখন Colab করেছে; ভরসা করে অনেকেই subscription করতে পারেন । আমি স্টুডেন্ট মানুষ, আপাতত ফ্রী, ট্রায়াল এরকম এর উপর ই আছি ।

    VPN নিয়ে আসলে এতো সুন্দর পোস্ট কোথাও আগে পড়িও নি বাংলা ভাষায়..কমেন্ট ও করিনি এজন্যে একটু বেশি লিখতে ইচ্ছে করলো আজ।

    Good luck PCB & Itop VPN

  12. আসলে ব্যাবহার করা ছাড়া ভাল কিছু বলা কঠিন। তবে ৫ ধরনের সিস্টেম এ এতা রান করচে অবশ্যই এটা প্রসশংসার দাবিদার …।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

VPN for PC নিয়ে আমরা মাঝে মাঝেই লিখে থাকি, আমাদের ওয়েবসাইটে এর আগেও পাবলিশ করা হয়েছে বেশ কিছু VPN এর রিভিউ। আজকে থাকছে iTop VPN এর রিভিউ। রয়েছে iTop VPN VIP ACCOUNT এর giveaway  ও। পার্টিসিপেট করতে আর্টিকেল টিতে কমেন্ট করুন ও আর্টিকেল টি...iTop VPN বাংলা রিভিউ ও Giveaway