আপনি পছন্দ করেন কিংবা না করেন, কম্পিউটার গেমিংয়ে Steam হচ্ছে মধ্যমনি! ফ্রি গেমস থেকে শুরু করে লেটেস্ট হাইব্রিড গেমসগুলো পর্যন্ত, প্রিঅর্ডার থেকে শুরু করে ৩০/৬০ % ডিসকাউন্ট সবই আপনি পাবেন স্টিমে। পিসি গেমিংয়ের অনান্য ডিজিটাল  ডিস্ট্রিবিউশন প্লাটফর্ম থাকলেও স্টিমের মতো জনপ্রিয় আর কোনো প্লাটফর্ম নেই। আর স্ট্রিম ব্যবহার করাও অনেক সহজ, এখানে জটিলতার কিছুই নেই, আবার সিকুরিটির দিক থেকেও কিন্তু স্টিম পিছিয়ে নেই, সাধারণ ইমেইল সিকুরিটি থেকে বায়োমেট্রিক সিকুরিটি পর্যন্ত স্টিমে দেওয়া থাকে। আমি আজ স্টিমের কিছু টিপস এন্ড ট্রিক্সস নিয়ে আপনাদের সামনে চলে এসেছি, এই টিপসগুলো ফলো করলে আপনিও হয়ে উঠতে পারেন Steam এর একজন অন্যতম পাওয়ার ইউজার। আজকের পোষ্টে স্টিমে কিভাবে আপনার গেমস লাইব্রেরিকে সুন্দর করে সাজাবেন, কিভাবে কাস্টম আইকন সেট, ডিক্স স্পেস কিভাবে ম্যানেজ করবেন এগুলো সহ কয়েকটি টিপস নিয়ে আলোচনা করা হয়েছে। চলুন ভূমিকায় আর কথা না বাড়িয়ে দেখে নেই কিভাবে স্টিমের একজন পাওয়ার ইউজার হবেন:

নতুন উইন্ডোতে লিংক ওপেন করা

আপনারা অনেকেই জানেন না যে Steam Client টা হচ্ছে একটি ওয়েব ব্রাউজার! জ্বী! একটি ওয়েব ব্রাউজারকে হেভি ভাবে মডিফাইড করে স্টিম ক্লায়েন্ট বানানো হয়েছে শুধুমাত্র স্টিম ওয়েবসাইটকে ব্রাউজ করার জন্য। স্টিম ব্রাউজার, টান্সজেকশন ইত্যাদি কাজের জন্য Steam Client যথেষ্ট হলেও একটি ওয়েব ব্রাউজার হিসেবে এটা বেশ স্লো! এছাড়াও আপনাকে ” Settings>Display>Show URL address bar when available ” এই অপশনটিকে টিক দিয়ে রাখতে হবে যদি Steam Client য়ে কোনো ওয়েবসাইট লিখতে চান বা ওয়েবসাইটের ঠিকানাটি কাট-কপি-পেস্ট করতে চান। অনান্য ওয়েব ব্রাউজারের মতোই Steam Clientয়েও আপনি নতুন উইন্ডোতে লিংক ওপেন করতে পারবেন এবং এটা অনেক সময় দরকারি হয়ে উঠে। যেমন দুটি গেমের মধ্যে পার্থক্য খুঁজতে গেলে দুটি গেমের লিংকগুলোকে পাশাপাশি চালু রাখতে হয়। লিংকসগুলোকে multiple windows য়ে চালু করতে চাইলে জাস্ট আপনাকে কিবোর্ডের Ctrl বা কনট্রোল বাটনটি ধরে রেখে তারপর লিংকে ক্লিক করতে হবে। কিংবা লিংকগুলোতে মিডল মাউস বাটন ক্লিক করলেও উক্ত লিংকটি নতুন স্টিম ক্লায়েন্টের উইন্ডোতে চালু হবে।

সাইজের ভিক্তিতে গেমস সাজানো

স্টিমে যদি আপনার একাধিক গেমস থাকে তাহলে এই পদ্ধতি আপনার বেশ কাজে দিবে। এখানে Detail View ব্যবহার করা হয়েছে আর এর মাধ্যমে আপনি আপনার স্টিম লাইব্রেরির সকল গেমসগুলোকে সাইজের ভিক্তিতে সাজাতে পারবেন। এছাড়াও প্রতিটি গেমের Metacritic স্কোর দ্বারা সাজাতে পারবেন। সাধারণ ভিউ আর এই ডিটেইলস ভিউয়ের মধ্যে পার্থক্য হলো এখানে কোন গেমটির রেটিংস কত আর গেমসগুলো আপনার হার্ডডিক্সের কতটুকু জায়গা দখল করে রেখেছে সেটাও আপনি দেখতে পারবেন। এছাড়াও গেমসগুলো ক্লাউড সেভ ফিচারটি সার্পোট করে কিনা সেটাও আপনি দেখতে পারবেন। এটা করার জন্য লাইব্রেরি ট্যাবে এসে উপরের View অপশনগুলোর থেকে লিষ্ট ভিউ, গ্রিড ভিউ, ডিটেইল ভিউ ইত্যাদি অপশনে সুইচিং করতে পারবেন।

কাস্টম আইকন ব্যবহার

আপনি স্টিম লাইব্রেরিতে গ্রিড ভিউ যদি ব্যবহার করে থাকেন তাহলে আপনি চাইলে সহজেই গেমসগুলোর আইকনকে কাস্টমাইজেশন করে নিতে পারবেন। যদিও এটা করার কোনো পয়েন্ট নেই তবে অনেক সময় অনেক গেমের আইকন আমাদের কাছে ভালো লাগে না, কিন্তু গেমটি খেলতে আপনার বেশ ভালোই লাগে। তাই প্রতিটি সেই একই বোরিং গেম আইকন স্টিম লাইব্রেরিতে দেখতে দেখতে ভালো না লাগলে আপনি প্রতিটি গেমের জন্য আলাদা করে আইকন সেট করে নিতে পারেন। এ জন্য গেমটির উপর রাইট বাটন ক্লিক করে “Set custom image” অপশনে ক্লিক করতে হবে। আপনি গুগলে নির্দিষ্ট গেমের বিভিন্ন আইকন খুঁজে পাবেন। বাকিটা আপনার ইচ্ছে!

In-Home Streaming মাধ্যমে অন্য পিসিতে খেলুন

In-Home Streaming অপশনটির মাধ্যমে আপনি একই নেটওর্য়াকের আন্ডারে অন্য পিসিতে খেলতে পারবেন। যেমন আপনার গেমিং পিসিটি বাসার এক রুমে রয়েছে। আপনি চাইলে In-Home Streaming অপশনটির মাধ্যমে আপনার বেডরুমে ল্যাপটপের মাধ্যমে গেমিং পিসিকে Streaming করতে পারবেন। এজন্য প্রথমে আপনাকে Steam Settings মেনু থেকে In-Home Streaming অপশনটি চালু করতে হবে। তারপর যে ডিভাইসে স্ট্রিমিং করতে চান সেখানে আপনাকে একই স্টিম আইডি দিয়ে লগ ইন করতে হবে তাহলেই In-Home Streaming অপশনটি আপনি পাবেন। তবে মনে রাখতে হবে যে এটা কাজ করার জন্য একই নেটওর্য়াকের আন্ডারে আপনার দুটি ডিভাইসকে থাকতে হবে এবং একই সাথে আপনার রাউটারের স্পিড  বেশি হতে হবে না হলে স্ট্রিমিংয়ে প্রচুর ল্যাগ পাবেন।

ক্যাটাগরি ভিক্তিতে লাইব্রেরি সাজান

আপনার স্টিম আইডিতে যদি শতাধিক গেমস থাকে (লোল) তাহলে Detail View মোডে আপনি ক্যাটাগরি ভিক্তিতে আপনার লাইব্রেরিকে সাজাতে পারেন। এতে গেমের ধরণ অনুয়াযী লাইব্রেরিটি সাজানো হবে ইংরেজি আলফাবেটের পরিবতর্তে। এছাড়াও গেমসের সংখ্যা যদি হাজার খানেকের উপরে হয়ে থাকে তাহলে আপনি আলাদা Depressurizer নামের টুল ব্যবহার করেও আপনার স্টিমের গেমস লাইব্রেরিকে ক্যাটাগরি হিসেবে সাজিয়ে নিতে পারেন। এর জন্য প্রথমে স্টিম বন্ধ করুন তারপর Depressurizer চালু করে সঠিক সেটিংসয়ের মাধ্যমে আপনার স্টিম লাইব্রেরিকে ক্যাটাগরির মতো সাজিয়ে নিন।

টু ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন ব্যবহার করুন

স্টিমে আপনি যদি শুধুমাত্র ফ্রি গেমসগুলোই খেলে থাকেন তাহলেও আপনার উচিত টু-ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন ফিচারটি ব্যবহার করা। আর পেইড গেমস কিনে খেললে তো এটা ব্যবহার করার কোনো বিকল্প নেই। কোনো কারণে আপনার স্টিম আইডির পাসওর্য়াড অন্যকেউ পেয়ে গেলে শখের আইডিতো হারাবেনই সাথে সাথে এ যাবৎকালে স্টিমের পেছনের খরচকৃত সকল অর্থই আপনার বিফলে যাবে। এর জন্য ইমেইল প্রটেক্টশনের পাশাপাশি আপনি ফোন নাম্বার এবং স্টিম অ্যাপকে টু ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। অনেক গেমে (Dota 2 ধরুন) ইতিমধ্যেই ফোন নাম্বার ছাড়া র‌্যাঙ্ক গেমস খেলার সুযোগ আর থাকছে না।

ফ্যামিলি শেয়ারিং

ভিডিও গেমসের ডিক্স কিনে যখন খেলতে তখন বন্ধু বান্ধব কিংবা ফ্যামেলি মেম্বারদের মাঝেও কিন্তু আপনি গেমের ডিক্সটি শেয়ার করতেন। আর বর্তমানের ডিজিটাল প্লাটফর্মেও আপনি ফ্যামিলি শেয়ারিং অপশনটি ব্যবহার করে আপনার স্টিমের নির্দিষ্ট গেমসগুলোকে তাদের সাথে শেয়ার করে দিতে পারবেন। অন্য যেকোনো সবোর্চ্চ ৫টি স্টিম আইডিতে আপনার পছন্দমতো গেমসকে আপনি শেয়ারিং করে দিতে পারবেন। তবে মনে রাখতে হবে যে Games for Windows Live এবং Rockstar Social Club টুলসগুলো যে যে গেমস ব্যবহার করে থাকে সে গেমসগুলোকে আপনি এভাবে শেয়ারিং করতে পারবেন না ।

কাস্টম স্ক্রিণ ব্যবহার

ওয়েল! স্টিমের পাওয়ার ইউজার হয়ে যদি নিজের পছন্দমতো কাস্টম স্ক্রিণ বা কাস্টম থিম ব্যবহার করতে না পারেন তাহলে আর কিই বলা যায় বলুন! স্টিমের কালো রংয়ের থিমটি যদি আপনার কাছে বোরিং লেগে থাকে তাহলে আপনি স্টিমের জন্য আলাদা কাস্টম স্ক্রিণ ব্যবহার করতে পারবেন। এর জন্য আপনাকে স্কিণটি ডাউনলোড করে নিয়ে C:\Program Files (x86)\Steam\skins ফোল্ডারে কিংবা আপনার স্টিম ইন্সটলেরশনের স্কিণস ফোল্ডারে কপি করে দিলেই হয়ে যাবে। গুগলে custom steam skin লিখে সার্চ দিলে শতাধিক ভিন্ন ভিন্ন স্টিম স্ক্রিণ আপনি পেয়ে যাবেন।

Enhanced Steam

নামেই বুঝতে পারছেন এটার কাজ কি। Enhanced Steam হচ্ছে একটি ব্রাউজার এক্সটেনশন যেটা স্টিমের ওয়েব ভার্সনকে অনেকগুলো কাজের টুলস এনে দেয়। যেমন কোনো গেমস কেনার সময় এই টুলের সাহায্যে গেমটি কোন অঞ্চলে দাম কত সেটা আপনি দেখতে পারবেন। এক্সটেনশনটি আপনি গুগল ক্রোম, মজিলা ফায়ারফক্স, অপেরা সহ কয়েকটি ব্রাউজারে ব্যবহার করতে পারবেন। এক্সটেনশনটি ডাউনলোড করতে চলে যান তাদের অফিসিয়াল সাইটে: http://www.enhancedsteam.com

গেমিং মিউজিক প্লেয়ার

স্টিম ক্লায়েন্টকে কিন্তু আপনি মিউজিক প্লেয়ার হিসেবেও ব্যবহার করতে পারবেন। শুধু মিউজিক প্লেয়ার নয় বরং গেমিং মিউজিক প্লেয়ার! এর জন্য View > Music Details বা View > Music Player অপশনে চলে যান তাহলে নিদির্ষ্ট গেমের মিউজিকগুলো আপনি এই মিউজিক প্লেয়ারে শুনতে পারবেন। গেমের OST শোনার এটা একটি চমৎকার ব্যবস্থা।

ডাটা ম্যানেজমেন্ট

আমাদের আজকের পোস্টের একদম শেষে চলে এসেছি। আর স্টিমের পাওয়ার ইউজার হতে গেলে এই ডাটা ম্যানেজমেন্ট টুলটি না থাকলেই নয়। ধরুন আপনি স্টিম আপনার সি ড্রাইভে ইন্সটল করেছেন। এক দুটা গেম স্টিমে ইন্সটল করলে তেমন স্টোরেজের সমস্যা হবে না (যতক্ষণ না সেটা জিটিএ ৫ হচ্ছে! লোল) কিন্তু ১০টির উপরে গেমস ইন্সটল করলে স্বাভাবিকভাবেই আপনার সি ড্রাইভটি আস্তে আস্তে স্টোরেজের কমতিতে পড়তে পারে। উল্লেখ্য যে গেমস ইন্সটল করার সময় আপনার হার্ডডিক্সের কোথায় ইন্সটল দিবেন সেটা আপনি নির্ধারণ করে দিতে পারলেও অলরেডি ইন্সটলকৃত গেমসগুলোকে কিন্তু আপনি একটি ড্রাইভ থেকে অন্য ড্রাইভে সরিয়ে নিতে পারবেন না। মানে স্বাভাবিক পদ্ধতিতে নয়। কিন্তু Steam Mover নামের একটি টুলের সাহায্যে আপনি স্টিমের ইন্সটলকৃত গেমসগুলোকে একটি ড্রাইভ থেকে অন্য ড্রাইভে সরিয়ে নিতে পারবেন কোনো প্রকার গেমস ইন্সটল/রিইন্সটলের ঝামেলা ছাড়াই। আরো জানতে টুলটির অফিসিয়াল সাইট থেকে ঢুঁ মেরে আসুন: http://www.traynier.com/software/steammover

আশা করবো আজকের পোষ্টটি আপনাদের কাজে আসবে। পোষ্টটি ভালো লাগলে সোশাল মিডিয়াতে শেয়ার করে দিন যাতে আরো বেশি মানুষ পোষ্টটি দেখতে পারে এবং তারাও স্টিমের পাওয়ার ইউজার হয়ে উঠতে পারে। আজ এ পর্যন্তই। আগামীতে অন্য কোনো টপিক নিয়ে আমি চলে আসবো PCB তে। আল্লাহ হাফেজ।

Avatar
Fahad is a freelance writer and editor with nearly 10 years' experience in Bangla Technology Blogging who, while not spending every waking minute selling himself to websites around the world, spends his free time writing. Most of it makes no sense, but when it does, he treats each article as if it were his Magnum Opus - with varying results.