32 C
Dhaka
Wednesday, September 28, 2022

Heating Issue : কিছু কারণ ও সমাধান

- Advertisement -

আমাদের অনেকেরই পিসিতে গেমিং এর সময় প্রসেসর/ গ্রাফিক্স কার্ড এর তাপমাত্রা স্বাভাবিকের অপেক্ষা বেশি বৃদ্ধি পায় । আজ কিছু  সাধারণ সহজ পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করা হবে যেগুলোর মাধ্যমে কিছুটা হলেও এই সমস্যা হতে আমরা পরিত্রাণ পেতে পারি।

 

অতিরিক্ত তাপমাত্রার সাধারণ কিছু কারণ ও সমাধানঃ

- Advertisement -

প্রসেসরের নিজস্ব manufacturing fault ছাড়াও নিম্নের কারণগুলোতে হিটিং ইস্যুর সম্মুখীন হতে পারেন আপনি।

Processor(Thermal Paste) এবং ধুলা ময়লা

  • প্রথমত হতে পারে আপনার CPU এর Thermal Paste শুকিয়ে গিয়েছে।। Processor এর জন্য  Thermal Paste একটি গুরুত্বপুর্ণ বিষয়। অনেক সময়ই নতুন পিসি বিল্ড এর সময় ও নিজের অজ্ঞতা ,অসতর্কতা ও দোকানির বা যে Assemble করছে তার জ্ঞানের অভাবের কারণে থার্মাল পেস্ট লাগানো হয় না।। সেক্ষেত্রে প্রথম থেকেই অতিরিক্ত তাপমাত্রার সমস্যা দেখা যেতে পারে ।
  • দ্বিতীয়ত , থার্মালপেস্ট লাগানোর পর দীর্ঘদিন অতিক্রান্ত হলে অনেকক্ষেত্রেই তার কার্যকারিতা কমে যায় বা শুকিয়ে যায়, ধীরে ধীরে তখন CPU এর অতিরিক্ত তাপমাত্রা জনিত সমস্যা বৃদ্ধি পেতে থাকে, প্রকাশ পেতে থাকে।
  • এবং, নিম্নমানের থার্মালপেস্ট ব্যবহার করা। এটিও CPU এর তাপমাত্রা বৃদ্ধি জনিত সমস্যার একটি কারণ।। অনেক সময় খরচ বাচাতে কম মুল্যের নিম্নমানের থার্মালপেস্ট ব্যবহার করলে সেটিও তাপমাত্রা কমাতে সেভাবে সহায়তা করতে সক্ষম হয়না।
  • হিটসিংকে ধুলাময়লা জমা, কুলারে ধুলা ময়লা জমা। আমরা সবাই জানি ধুলা,ময়লা অন্যতম বড় শত্রু ইলেক্ট্রনিক জিনিসের। হিটসিংকে ধুলা ময়লা জমলে, কুলারে ময়লা জমলে তা হিটিং ইস্যুর কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

সমাধানঃ

পিসি বিল্ডের সময় অবশ্যই ভালো মানের থার্মালপেস্ট লাগিয়ে নিন। লক্ষ রাখুন কয়েক মাস বা এক  বছর পর কেসিংটি খুলে প্রসেসর খুলে চেক করুন থার্মালপেস্ট শুকিয়ে গিয়েছে কি না, শুকিয়ে গেলে নতুন করে লাগিয়ে দিন। এমনকি লাগানো থাকলেও তা মুছে ভালো মানের দামী থার্মালপেস্ট লাগিয়ে দিতে পারেন কারণ নিম্নমানের থার্মালপেস্ট সেরকম কার্যকরী নাও হতে পারে। এই সময় হিটসিংকের ধুলা,ময়লাও ঝেড়ে পরিষ্কার করে ফেলুন, CPU Cooler এর ধুলা ময়লাও মুছে ঝেড়ে ফেলুন কারণ ধুলা ময়লার কারণে অনেক সময়ই সর্বোচ্চ RPM এ ঘুরতে ব্যর্থ হয় CPU Cooler যা হিট বৃদ্ধিতে আরো একটি কারণ হিসেবে কাজ করে।

GPU এর থার্মালপেস্টঃ

- Advertisement -

গ্রাফিক্স কার্ড হিট হলে এই ক্ষেত্রেও অনেকসময়ই গ্রাফিক্স কার্ডের থার্মালপেস্ট চেঞ্জ করলেও বেশ উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন দেখতে পাওয়া যায়। তবে সমস্যা হচ্ছে প্রসেসরের মত এটি dismount এবং reassemble করা একেবারে সহজ নয় । অনেক সাধারণ ইউজারই এটা কিভাবে করতে হয় জানেন না এবং অসতর্কতার কারণে কোনো কিছু ভেঙ্গে যেতে পারে, দুর্ঘটনা ঘটে physical Damage এর ফলে ওয়ারেন্টি চলে যেতে পারে।। তবে খুবই সহজেই আপনি কিভাবে কাজটি করবেন তার স্টেপ বাই স্টেপ গাইড রয়েছে ইউটিউবে। নিচের ভিডিওটি ছাড়াও আরো অনেক সহজ ভিডিও পেয়ে যাবেন।

আর জিপিইউ এর থার্মালপেস্ট চেঞ্জ করার সময় কুলিং ফ্যান ও পরিষ্কার করবেন ধুলা ময়লা ঝেড়ে ফেলবেন কেননা কুলিং ফ্যান এ ধুলা ময়লা জমলে তার স্পিড কমতে পারে, তার লাইফ কমতে পারে শব্দ হতে পারে অতিরিক্ত, হিটসিংকও একই সাথে পরিষ্কার করে নিবেন এগুলো আপনার গ্রাফিক্স কার্ড এর কুলিং পারফর্মেন্স বৃদ্ধি করবে। আমাদের সাইটে একটি স্টেপ বাই স্টেপ গাইড রয়েছে কিভাবে আপনি আপনার গ্রাফিক্স কার্ড Maintenance করবেন এই বিষয়ে, বিস্তারিত সব জেনে নিন এখান থেকে।

- Advertisement -

 

গ্রাফিক্স কার্ড মেইনটেনেন্স ও মডিফাই গাইড

কেসিংঃLack of Airflow

কেসিং সংক্রান্ত বিষয়গুলো শুধুই প্রসেসর নয়, অন্যন্য কম্পোনেন্ট এর হিট এর জন্য ও দায়ী।

  • কেসিং এর ভেতর পর্যাপ্ত এয়ারফ্লো না হওয়ার কারণে , ঠান্ডা বাতাস ভেতরে প্রবেশের যথেষ্ট জায়গা না থাকা বা বাতাস বের হয়ে যাওয়ার ও ব্যবস্থা না থাকার কারণে heat এর সৃষ্টি হয় প্রায়ই।। এ ক্ষেত্রে আপনার কেসিং ই দায়ী।
  • Casing এ পর্যাপ্ত ফ্যান না থাকাঃ এয়ারফ্লো এর ক্ষেত্রে কেসিং এর ফ্যান ও গুরুত্বপুর্ণ একটি বিষয়, অনেকেরই ছোট কেসিং এ দেখা যায় শুধুমাত্র পেছনের সাইডে একটি মাত্র ফ্যান রয়েছে ,নেই কোনো roof cooling, front fan. এই সমস্ত স্থানে ভালো মানের ফ্যান না থাকার কারণে হিট এর সৃষ্টি হতে পারে বা অন্য কথায় ঠান্ডা হওয়ার প্রক্রিয়া টি ভালোভাবে হয় না।
  • কেসিংটি আপনি কোথায় রেখেছেন সেটার উপরেও নির্ভর করে এয়ারফ্লো, একটি বদ্ধ স্থানে, টেবিলের চারপাশ বদ্ধ হলে এই ক্ষেত্রে এয়ারফ্লো বাধাগ্রস্ত হতে পারে।

সমাধানঃ

ভালো মানের কেসিং কেনা উচিত বিল্ডের সময় যেখানে Built-in ফ্যান থাকবে এক বা একাধিক। Front এবং Back উভয় দিকেই ফ্যান থাকলে ভালো হয়। সম্ভব হলে roof, front back প্রত্যেক সাইডেই ফ্যান লাগিয়ে নিবেন ভালো মানের এতে করে ভেতরের বাতাস আসা যাওয়ার ব্যাপারটি ভালোভাবে নিশ্চিত হবে। কেসিংটি এমন একটি স্থানে রাখবেন যেখানে পর্যাপ্ত বাতাস আসা যাওয়া করছে। হিটিং সমস্যা যদি ফেস করেন তাহলে উপরে উল্লেখিত thermal Paste এর পদ্ধতি গুলো প্রয়োগের সাথে সাথে আপনার কেসিং এর পজিশন চেঞ্জ, একটি বা দুইটি ফ্যান কেসিং এর ভিন্ন ভিন্ন স্থানে লাগিয়ে দেখতে পারেন (যেমন ফ্রন্টে দুইটি বা ফ্রন্টে একটি, Roof এ একটি,বা Roof এ ২টি) । মাঝেমধ্যেই কেসিংটি খুলে সমস্ত কম্পোনেন্ট এবং ফ্যানগুলো ভালোমত পরিষ্কার করবেন।

কেসিং এর Airflow বৃদ্ধি করার আরো একটি সহজ পদ্ধতি(Has side effects)

আপনার কেসিং এর side window একদিক বা সম্ভব হলে উভয় দিক থেকেই খুলে রাখতে পারেন।। এতে করে airflow তে একটা বড় পরিবর্তন দেখতে পাওয়া যাবে।। হিটিং এর সত্যিকারের সমস্যা থাকলে তা হয়তো এর মাধ্যমে সমাধান করা সম্ভব নয় তবে সাধারণভাবে এই পদ্ধতি airflow তে বড় রকমের উন্নতি ঘটাবে। এটা আমি ব্যক্তিগতভাবে পরীক্ষা করে দেখেছি।গেমগুলোতে প্রসেসর,গ্রাফিক্স কার্ড উভয়ক্ষেত্রেই আগের তুলনায় উল্লেখযোগ্য পরিমাণ  কম temperature বৃদ্ধি পেয়েছে window Open রাখার পর থেকে।   তবে বোনাস হিসেবে অতিরিক্ত ধুলা ময়লা ঢুকার সম্ভাবনা রয়েছে অর্থাৎ আপনাকে নিয়মিতই কম্পোনেন্টস পরিষ্কার করা লাগতে পারে। বরং প্রসেসর, গ্রাফিক্স কার্ড নয়, সব কম্পোনেন্ট এর তাপমাত্রাই কমবে বিভিন্ন পরিমাণে এই পদ্ধতিতে। গ্রাফিক্স কার্ড ,প্রসেসর এ manufacturing fault না থাকলে এটি প্রয়োগ করে সমাধান পেতে পারেন।

A Simple but Effective Fix for Non-Esports Gamers:

যারা Esports গেমস খেলেন না, Competitive Multiplayer গেম খেলেন না তারা গেম খেলার সময় V-Sync অন করে রাখতে পারেন।। অথবা FPS Manually লক করে দিতে পারেন। বিশেষ করে offline shooting, RPG,FPS,Sports গেম যারা খেলেন, Action,Adventure গেম যারা অফলাইনে খেলেন তাদের ক্ষেত্রে V-Sync চালু করলে এমন কোনো ক্ষতি হয় না গেমিং এক্সপেরিয়েন্স এ বরং অনেকক্ষেত্রে এফপিএস বেশি উঠানামা করা, লাফালাফি করার সমস্যা সমাধান হয়ে যায়। Stability বাড়ে।। একই সাথে এই পদ্ধতি প্রয়োগ করে গেম থেকে গেম আপনি 5-15 Degree Cel পর্যন্ত এফপিএস ড্রপ লক্ষ করতে পারেন। এটি পরীক্ষামুলকভাবে প্রমানিত। আপনার যদি গ্রাফিক্স কার্ড, প্রসেসরে প্রকৃতপক্ষে সমস্যা না থাকে সেক্ষেত্রে এই পদ্ধতি আপনাকে সাহায্য করবে।

Manufacturing Fault:Dedicated Components Issue:

কিছুক্ষেত্রে এরকম হয় যে প্রসেসরটির আসলেই সমস্যা রয়েছে বা স্বাভাবিকভাবেই তার তাপমাত্রা অন্য কোনো কারণ ছাড়াই অনেক বেশি হচ্ছে। সম্প্রতি আমরা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিভিন্ন পেজ এবং ফোরামে একাধিক অভিযোগ দেখেছি যে  Chinese Ryzen প্রসেসরে হালকা লোডেই তাপমাত্রা বিপদসীমার বাইরে চলে যাচ্ছে এবং এরকম রিপোর্ট ও এসেছে যে অতিরিক্ত তাপমাত্রার কারণে প্রসেসর নষ্ট হয়ে গিয়েছে।। এই ক্ষেত্রে ওয়ারেন্টি ক্লেইম করা ছাড়া আর কোনো উপায় নেই।।

ম্যানুফেকচারিং ফল্ট ছাড়াও কিছু মডেলে স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি টেম্পারেচার উঠে এরকম ঘটনা ও রয়েছে, এসব ক্ষেত্রে স্টক কুলারের জায়গায় একটি ভালো সিপিইউ কুলার কিনে লাগানো যেতে পারে। এতে টেম্পারেচার অনেকটাই কমে আসবে আশা করা যায়।সাথে উপরের পদ্ধতিগুলো ও অল্প অল্প সাহায্য করবে। গেমিং , লোডে ৬০-৮০ এর মধ্যে টেম্পারেচার ঘুরাফেরা করলে আপনার চিন্তার কিছু নাই তা স্বাভাবিক।। কিন্ত কোনো লোড ছাড়াই বা বিনা গেমিং এ যদি তা অনেক বেশি হয় অথবা গেমিং করলে এই রেঞ্জের বাইরে চলে যায় সেক্ষেত্রে ওয়ারেন্টি ক্লেইম অথবা কুলার চেঞ্জ করলে সমাধান হতে পারে।

আরো একটি জনপ্রিয় সমাধান রয়েছে, বিশেষত Ryzen প্রসেসরের ক্ষেত্রে প্রসেসরটি Undervolt করলে তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকে। তবে আমি ব্যক্তিগতভাবে মনে করি এটি কোনো সমাধান নয় এবং এখানে Performance Compensation এর বিষয় রয়েছে তাই এটি করবেন/করুন/করতে পারেন এরকম কোনো কথাই আমি বলবো না।

গ্রাফিক্স কার্ডঃ

গ্রাফিক্স কার্ডের ক্ষেত্রে ৮০ ডিগ্রীর নিচে থাকলে ৭০-৮০ এর মধ্যে টেম্পারেচার (গেমিং করার সময়ে) খুবই স্বাভাবিক ও নিরাপদ। উপরের পদ্ধতি গুলো ব্যবহার করলে তা আরো কমবে। V-sync  চালু করলে বিশাল বড় একটি বুস্ট দেখতে পাওয়ার সম্ভাবনা ও রয়েছে।

এবং আমরা Afterburner ব্যবহার করে কাস্টম কার্ভ সেট করতে পারি, এখন ২০২০ সালে কাস্টম কার্ভ বা Custom Fan Speed মোটেও অনিরাপদ কোনো পদ্ধতি নয় ,গ্রাফিক্স কার্ডের ফ্যানগুলো এখন যথেষ্ট পরিমাণ উন্নত প্রযুক্তি , প্রকৌশল ব্যবহার করে তৈরী ও ডিজাইন করা থাকে এবং অফিশিয়ালি fan controller দেওয়াই থাকে।। এগুলো ব্যবহারে আপনার ফ্যানের লাইফটাইম কমবে, দ্রুত নষ্ট হবে , ক্ষতি হবে এমন ভাবার কোনো কারণ নেই।।  Variable স্পিড সেট করা ১০০% সেফ (variable মানে টেম্পারেচার এর সাথে সাথে ফ্যান স্পিড এর হ্রাস বৃদ্ধি, এতে করে সারাক্ষণ ফ্যান ১০০%/৮০/৭০% রেঞ্জে ঘুরবে বিষয়টি এরকম হবে না, তাপমাত্রা কমলে স্পিড কমবে, তাপমাত্রা বাড়লে তার সাথে সাথে নির্দিষ্ট একটি হারে স্পিড বাড়বে) , সেজন্য ক্ষতির সম্ভাবনা নাই।যেহেতু এটি সর্বক্ষণ ফ্যান স্পিডকে 100% রাখে না তাই অতিরিক্ত চাপ পড়ার ও কারণ নেই।

যদি কার্ডের মডেলের ত্রুটি হয়েই থাকে সেক্ষেত্রে আমাদের বেশ কিছু করার নেই , ড্রাইভার/বায়োস আপডেট অনেকসময় সমাধান করে থাকে।। সাথে সাথে আমাদের উল্লেখিত পদ্ধতিগুলো কিছুটা হলেও সমাধান দিতে পারে। তবে স্থায়ীভাবে অনেক বড় কোনো পরিবর্তন দেখতে পাওয়া যাবে না। যেমন Radeon RX 5700XT এর ASUS TUF এর ক্ষেত্রে সত্যিই ইস্যু ছিল।

শেষ কথাঃ

আশা করা যায় আমরা হিটিং এর সাধারণ কিছু কারণ এবং সমাধান নিয়ে আলোচনার মাধ্যমে আপনাদের একটি ধারণা দিতে পেরেছি। এর মাধ্যমে পিসি ব্যবহারকারীরা সমস্যা খুজে বের করে সমাধান করতে সক্ষম হবেন বলে আশা করা যায়।

- Advertisement -
Soaad Bin Zaman Shoron
Soaad Bin Zaman Shoron
Gamer | Memer | Tech Enthusiast | Food Hunter | JUST PHYSICS 2018

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here