19 C
Dhaka
Wednesday, February 8, 2023

বিভিন্ন বাজেট রেঞ্জের জন্য সেরা প্রসেসর গুলো এক নজরে

- Advertisement -

বিভিন্ন বাজেট রেঞ্জে বিভিন্ন উদ্দেশ্যে প্রতিনিয়ত পিসি বিল্ড করেন আমাদের দেশের পিসি বিল্ডার রা। আমাদের গ্রুপগুলোতে বিভিন্ন বাজেটে প্রসেসর কোনটা নেওয়া উচিত তা নিয়ে প্রশ্ন অহরহই দেখা যায়। আজকের আর্টিকেলে আমরা আমাদের চোখে এন্ট্রি লেভেল থেকে শুরু করে ফ্লাগশিপ লেভেল পর্যন্ত ভ্যালু ফর মানি ,সব মিলিয়ে বেস্ট প্রসেসর কোনগুলো তা তুলে ধরবো ,এগুলোর ভালো মন্দ দিক গুলো, একই সাথে এগুলোর বেস্ট অল্টারনেটিভ কোনগুলো হতে পারে সেটাও উল্লেখ করার চেষ্টা করবো।বোনাস হিসেবে কিছু স্যাম্পল বিল্ড ও দেখানো হয়েছে প্রতিটি প্রসেসরের সাথে।

 

বছরের সবথেকে জনপ্রিয় ও চাহিদার শীর্ষে থাকা প্রসেসরঃ Ryzen 5 5600G (ফুল পিসি বাজেট ৩০-৪০ হাজার)

- Advertisement -

কম বাজেটে ফ্রিল্যান্সিং,টুকটাক Esports,Emulator Games খেলা, হালকা পাতলা ফটোশপ,অফিস এপ্লিকেশনস,কন্টেন্ট ওয়াচিং এর জন্য ৩০-৪০ হাজার টাকার মধ্যে পিসি বিল্ড করতে চাইলে নিসন্দেহে এটাই সেরা। বাজেট অনুযায়ী যথেষ্ট ভালো iGPU, মোটামুটি মানের প্রসেসিং স্পিড,৬ কোর ১২ থ্রেড। গ্রাফিক্স কার্ড যাদের নেওয়ার প্রয়োজন নেই/বাজেট নেই। তাদের জন্য এটাই ঠিকঠাক। মাদারবোর্ড ও খুব বেশি দামী নেওয়ার প্রয়োজন নেই এই প্রসেসর এর সাথে।

বাংলাদেশে ২০২২ সালের সবথেকে জনপ্রিয় ও একই সাথে সবথেকে বেশি বিক্রিত প্রসেসর তাই অবশ্যই Ryzen 5 5600G ছাড়া আর কিছু নয়। প্রসেসরটির দাম ২১-২২ হাজার ও ছিল একটা লম্বা সময়। বছরের শেষ কটা মাস ২০ এর নিচে ১৭-১৮ তে কিছুদিন,তারপর তার দাম গিয়ে ১৩-১৫ হাজারের মধ্যে গিয়ে দাড়িয়েছে।

Bonus: Sample build with 5600G

  • Ryzen 5 5600G 15500 (দাম উঠানামা করে প্রতিনিয়ত)
  • BIOSTAR B450MH ৭০০০ (বাজেট বেশি থাকলে ১০ হাজারের উপরের ASUS,MSI এর মডেলগুলো নিতে পারেন)
  • Kingston Fury Beast 8GB ৩২৫০ (বাজেট থাকলে দুটি স্টিক নেওয়ার পরামর্শ থাকলো)
  • Kingston NV1 250GB M.2 NVMe ২৯০০ (চাইলে অন্য ব্রান্ড নিতে পারেন,১২৮ গিগাবাইট ক্যাপাসিটিও নিতে পারেন)
  • SEAGATE BARRACUDA 1TB ৪১০০ (স্টোরেজ রেফারেন্স হিসেবে দেওয়া হলো, প্রয়োজন মত নিয়ে নেবেন)
  • Deepcool PF550 PSU ৩৩০০
  • Maxgreen JX188-15 Casing with 4 fans ৩০৫০ (কেসিং ব্যক্তিগত পছন্দ অনুসারে যেকোনোটাই নিতে পারেন)।
  • মোট ৩৯১০০ টাকা।

***বিভিন্ন সোর্সে প্রসেসরের দাম ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে ,ট্রে,অফিশিয়াল/রিয়েল বক্স/ফেক বক্স ইত্যাদি ব্যাপার স্যাপারের কারণে ১২-১৩ হাজার টাকা থেকে শুরু করে প্রসেসরটি ১৫-১৬ হাজার টাকাতে পাওয়া যেতে পারে। ১২-১৩ হাজারের ট্রে বা চাইনিজ বক্স/ফেক বক্স ভার্সনগুলো নিলে অবশ্য বিল্ডের খরচ আরো অনেক খানি কমে আসবে। সেক্ষেত্রে আরো একটি স্টিক র‍্যাম যোগ করা যাবে এই বিল্ডে***

- Advertisement -

***আবার র‍্যাম যদি কর্শেয়ার এর চাইনিজ ভ্যারিয়েন্টগুলো নেওয়া হয়, তাহলেও বিল্ডের খরচ কমে আসবে কিছুটা। পাওয়ার সাপ্লাই আলাদা না নিয়ে পাওয়ার সাপ্লাই যুক্ত কেসিং নিয়ে নিলেও ৩ হাজার টাকা মত বাচিয়ে নেওয়া যাবে।কিংবা ভ্যালু টপ এর পাওয়ার সাপ্লাইগুলোও হতে পারে সমাধান***

১০-১৫ হাজার টাকা বাজেট বা এন্ট্রি লেভেলের সবথেকে ভ্যালু ফর মানি ও পাওয়ারফুল প্রসেসরঃ Ryzen 5 5600

গ্রাফিক্স কার্ড দিয়ে ৬০-৭০-৮০ হাজার টাকার মধ্যে পিসি বিল্ড করতে চান যারা, উদ্দেশ্য হতে পারে গেমিং/ভিডিও এডিটিং/প্রোডাক্টিভিটি সহ যেকোনো কাজ, তাদের জন্য সম্ভবত এর থেকে ব্যালান্সড অপশন আর নেই। 6 cores,12 thread, 32MB Cache,4.4 Ghz বুস্ট ক্লক বিশিষ্ট এই প্রসেসরটির সাথে 12400 এর পারফর্মেন্স এর পার্থক্য আহামরি নয়,যেখানে 12th gen এর ক্ষেত্রে প্রসেসর এর দাম যেমন অনেক খানি বেশি, প্রয়োজন ভালো মানের মাদারবোর্ড ও, যার দাম ও অনেক বেশি। এজন্য সব মিলিয়ে 5600 ই আমাদের কাছে অপেক্ষাকৃত বেটার ভ্যালু প্রসেসর মনে হয়েছে।

Sample Build with 5600 (Budget 70-80,85k)

  • 5600 15000 Tk
  • ASUS TUF 450-PLUS 11000 Tk
  • Kingston Fury Beast 8GBx2 6500 Tk (চাইলে আরজিবি ভার্সনটা কিংবা কর্শেয়ার,জিস্কিল ও নিতে পারেন)
  • Kingston SNV2s Gen4 250 GB M.2 NVMe 3400 Tk (এটা প্লেসহোল্ডার হিসেবে, তবে Gen4 হিসেবে যথেষ্ট ভালো ডিল)
  • Seagate 1TB HDD 4100 Tk (এটাও প্লেসহোল্ডার)
  • Deepcool CC560 WH Case 4400 Tk(কেসিং পছন্দ মত নিলেও হবে)
  • Corsair CV650W PSU 6000 Tk

এবার আসি গ্রাফিক্স কার্ডের কথায়, এই বিল্ডে গ্রাফিক্স কার্ড ছাড়া খরচ আসছে ৫০ হাজার টাকা। যদি বাজেট হয় ৭০ হাজার টাকা, তাহলে PNY GeForce GTX 1650 Dual নিতে পারেন যেটা বর্তমানে ১৯৫০০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে। বাজেট ৮০ হাজার হলে GTX 1660S রয়েছে MSI এর ,যেটার বর্তমান মুল্য ২৯ হাজার টাকা। আর দুই চার হাজার বাড়ালে PNY GEFORCE RTX 3050 8GB VERTO ও পাওয়া যাবে ,সেক্ষেত্রে বিল্ডটি সবথেকে ব্যালান্সড ,ফিউচার প্রুফ হবে। আর যদি কেও একান্তই 3060 নিতে চান তাহলেও সমস্যা নাই। সেক্ষেত্রে বিল্ড এর খরচ ৯৫হাজার-১ লাখ মত হবে।

- Advertisement -

**RTX 3050 ও Gen4 SSD নিলে B550 মাদারবোর্ড নেওয়াটাই বেশি যুক্তিসঙ্গত হবে**

এই প্রসেসর এর সাথে সর্বোচ্চ আমরা RTX 3060 পর্যন্ত নেওয়ার পরামর্শ দি। এর থেকে দামী ও শক্তিশালী গ্রাফিক্স কার্ডগুলোর ক্ষেত্রে 5600x/12400/12500 মডেলগুলোর দিকে যাওয়াটাই ভালো হবে।

বাজেট ২০-২২ হাজার (৯০ হাজার-১ লাখ ১০ হাজার/২০ হাজার পর্যন্ত RTX 3060,6650,3060 Ti দিয়ে বিল্ড)

এই বাজেট রেঞ্জে অপশন হিসেবে আমাদের হাতে দুটি প্রসেসর থাকে, এক। Ryzen 5 5600x, দুই।Intel core i5 12400f।দুটি প্রসেসরেরই কিছু Pros-cons রয়েছে ।

5600X এর ক্ষেত্রে বলা যায়-

  • পারফর্মেন্স ওভারল 12400 থেকে বেটার।
  • তুলনামুলক কম দামেই ভালো মাদারবোর্ড পাওয়া যায় যেটা AMD AM4 প্লাটফর্মের বৈশিষ্ট। এমনকি 450 বোর্ড দিয়েও অসাধারণ বিল্ড করা সম্ভব।(PCIe4 এর ‘সামান্য’ সুবিধাটা স্কিপ করে)
  • 12400f এর সাথে তুলনা করলে খুত হিসেবে এটা বলা যায় যে PCIe5, DDR5 এর মত সুবিধাগুলো ভোগ করা যাবে না এটায়। তবে এই যুক্তি PCIe5 এর পুরোদমে প্রচলন, DDR5 এর দাম নাগালের ভেতরে আসার আগ পর্যন্ত কাজে দেবে না, বরং এই দুটি বিষয় নরমাল হতে আরো অনেক বছর,ততদিনে বরং ইউজার এই পিসিটি পুরোদমে ব্যবহার করে বিক্রি করে সম্পুর্ণ নতুন বিল্ড ই করতে পারবেন।

12400f এর ক্ষেত্রে বলা যায়-

  • DDR5,PCIe5 সুবিধা আছে (কিন্ত এই সুবিধা অকার্যকর। কেননা, এর জন্য DDR5 র‍্যাম ও মাদারবোর্ড লাগবে যার জন্য বিল্ডের খরচ খুবই বাজে ভাবে বেড়ে যাবে। ), আর যদি বলা হয় ফিউচারে DDR5 নেওয়া হবে, সেক্ষেত্রেও যুক্তি খাটে না কারণ তখন ও মাদারবোর্ড পরিবর্তন করতে হবে, র‍্যাম গুলোও। সেক্ষেত্রে অনেক টাকা নতুন করে খরচ করতে হবে।)আর এখনই যদি DDR5 দিয়ে বিল্ড করতেই হয়, সেক্ষেত্রে 12400 না নিয়ে 12600k/13600k দিয়েই বিল্ড করে ফেলা উচিত।
  • ইন্টেলের শেষ কয়েক বছরে বাজেট মাদারবোর্ডগুলোর VRM পারফর্মেন্স এর অবস্থা খুব একটা ভালো না। অন্তত ১৫ হাজার টাকা খরচ করাই লাগবে মোটামুটি মানের এন্ট্রি লেভেল ৬৬০ বোর্ডের জন্য। ১৭-১৯ হাজার হলে আরো ভালো।

এই কথাটা 12500 এর ক্ষেত্রেও একইভাবে প্রযোজ্য।

sample build with 5600X

সুতরাং এই বিষয়গুলো বিবেচনা করলে এই বাজেটে সেরা প্রসেসর 5600X। এবার আমরা একটা বিল্ড স্যাম্পল দেখে নিতে পারি-

  • 5600x
  • Gigabyte B550M Aorus Elite
  • Corsair Vengeance RGB Pro 3200 Mhz 8GBx2
  • SSD ,HDD and case Same as the previous build (Reference/placeholder)
  • Deepcool DQ750ST (৬৮০০ টাকায় গোল্ড রেটেড ৭৫০ ওয়াট পাওয়ার সাপ্লাই সাথে আবার ১০ বছরের অফিশিয়াল ওয়ারেন্টি। এটা ফেলে দেওয়ার মত ডিল নয়)।

উপরের এ কয়েকটি কম্পোনেন্ট হিসেব করলে খরচ আসে ৫৮ হাজার এর কিছু বেশি। র‍্যাম,কেস,স্টোরেজ বা পাওয়ার সাপ্লাই সিলেকশনের ভিন্নতা হলে এই খরচ বাড়তেও পারে কমতেও পারে।

এখন আসা যাক গ্রাফিক্স কার্ডের ব্যাপারে, বাজেট যদি হয় ১ লাখ মত, তাহলে PNY GEFORCE RTX 3060 12GB VERTO বা ৪০-৪৫ হাজারের মধ্যে RTX 3060 এর যেকোনো মডেল,যেটা পছন্দ হয় নিতে পারেন। বাজেট যদি আরো ১০ হাজার বেশি হয়, তাহলে RTX 3060 Ti ছাড়া দ্বিতীয় কোনো অপশন নেই।

***একটি aftermarket CPU Cooler নেওয়া ভালো 5600X এর সাথে। Deepcool AK400/AK400 Zero Dark বাজেট রেঞ্জে যথেষ্ট ভালো একটি কুলার***

best budget OCTA-Core Processor:Ryzen 7 5700G

আপনার রিকোয়ারমেন্ট যদি 5600G বিল্ডটির মতই হয় কিন্ত আরো শক্তিশালী, বেশি কোর থ্রেড ,বেশি বুস্ট ক্লক+বেশি GPU Clock,GPU Core এর প্রসেসর দরকার হয়। তাহলে Ryzen 7 5700G রেকমেন্ড করা যেতে পারে। গ্রাফিক্স সহ সবথেকে সস্তা,কম দামী অক্টাকোর প্রসেসর এই মুহুর্তে বাজারে Ryzen 7 4700G,যেটার দাম ২২ হাজার টাকা মত, তবে এটা বেশ অনেকটাই ব্যাকডেটেড,পুরাতন জেনারেশন এর ও এর পারফর্মেন্স ও খুব একটা ভালো না। বরং আরো কয়েক হাজার টাকা বাড়িয়ে ২৫-২৬ হাজারে Ryzen 7 5700G নেওয়াটাই বেশি যুক্তিসঙ্গত হবে বলেই মনে করছি।

এক্ষেত্রে ৪৫-৫০ হাজার টাকার মধ্যে সবথেকে পাওয়ারফুল APU Build করা সম্ভব অক্টা কোর এই প্রসেসরটি দিয়ে। আমরা 5600G এর জন্য যে কম্পোনেন্ট গুলো বাছাই করেছি ,সেগুলোর সবগুলোই একই রকম রেখে শুধু এই প্রসেসরটি পরিবর্তন করলেই যথেষ্ট হবে।

Budget 25-30K

এই বাজেটে এই মুহুর্তে রেকমেন্ড করার মত তেমন কোনো প্রসেসর নেই। অক্টা কোরের 5700X রয়েছে যেটির স্পেকস 5600x,12400f এর থেকে কিছুটা ভালো হলেও পারফর্মেন্স আহামরি ভালো নয়, 12500 নিতে গেলেও আপনাকে মাদারবোর্ডে অতিরিক্ত খরচ করতেই হবে। সেক্ষেত্রে আমাদের পরামর্শ হলো,5600G দিয়ে বিল্ডটি করে, অতিরিক্ত ৪-৫ হাজার টাকা গ্রাফিক্স কার্ড/অন্য কোনো কম্পোনেন্টে খরচ করা বা ভালো একটি কুলার নেওয়া। বিশেষ করে যদি কখনো পরিস্থিতি এমন হয় যে ৫/৬ হাজার টাকা বাড়ালে আপনি সম্পুর্ণ হাই একটি Tier /স্তর এর গ্রাফিক্স কার্ড পেয়ে যাচ্ছেন,তাহলে নিঃসন্দেহে সেই গ্রাফিক্স কার্ডটি নেওয়ার চেষ্টা করুন।

বাজেট যদি বাড়াতেই হয়,তাহলে প্রসেসরের জন্য ৩০ হাজার+ বাজেট করা উচিত। ব্যক্তিগতভাবে আমি মনে করি ২৫-৩০ হাজার টাকার বাজেটরেঞ্জটা এখন Void/Empty অবস্থায় রয়েছে। 13400f/13500 কিংবা Ryzen 5 7600 আসা পর্যন্ত এই বাজেট রেঞ্জের কোনো প্রসেসরই বর্তমানে নেওয়ার মত না।

Best Midrange-Higher Midrange Processor With flagship performance: Intel core i5 13600K/13600KF

৩৫-৩৬ হাজার টাকা দামে 12900k/5900x/5950x/12700k এর মত ফ্লাগশিপ/সেমি ফ্লাগশিপ প্রসেসরগুলোর মতই পারফর্মেন্স,কিছু ক্ষেত্রে বেটার ,কিছু ক্ষেত্রে কাছাকাছি লেভেল এর পারফর্মেন্স, 14কোর,20 থ্রেড, 5.1Ghz পর্যন্ত P core এ বুস্ট ক্লক ,,DDR5,PCIe5 এর পাশাপাশি DDR4 এর ও সাপোর্ট। সব মিলিয়ে মিডরেঞ্জে ফ্লাগশিপ গ্রেড স্পেকস ও পারফর্মেন্স এর কারণে এই বাজেটে সেরা প্রসেসর বা এই ক্যাটাগরিতে সেরা প্রসেসর i5 13600K/13600KF।

এর সাথে Z790/B760 (রিলিজ হবে কিছুদিনের মধ্যে) মাদারবোর্ড,RTX 3070/3070 Ti/3080/6900xt গ্রাফিক্স কার্ড, 850-1000W এর পাওয়ার সাপ্লাই, DDR5/DDR4 র‍্যাম, লিকুইড কুলিং দিয়ে হাই পারফর্মেন্স বিল্ড করা সম্ভব ২লাখ-২ লাখ ৫০ হাজার এরকম বাজেটে। র‍্যাম এর প্রকারভেদ,কুলিং সলিউশন,স্টোরেজ টাইপ ও ক্যাপাসিটি, গ্রাফিক্স কার্ড মডেল,পাওয়ার সাপ্লাই মডেল ও মাদারবোর্ড মডেলের কারণে এই খরচ ভিন্ন ভিন্ন হবে।

একটি স্যাম্পল বিল্ড দেওয়া হলোঃ

  • 13600KF
  • Gigabyte Aorus 16gbx2 5200 Mhz DDR5
  • LIAN LI LANCOOL 215 WH
  • DEEPCOOL ASSASSIN III CPU COOLER
  • ZOTAC GAMING 3080 12GB TRINITY OC
  • ADATA CORE REACTOR 850W MODULAR PSU
  • GIGABYTE Z790 AORUS ELITE D5
  • Storage

এখানে মাদারবোর্ড পরিবর্তন করে অন্য কোনো মডেল নিলে/z690 নিলে কিংবা র‍্যাম DDR4 নিলে, (সাথে DDR4 motherboard), খরচ কমে আসবে।

Which is best (OLD Gen)

ইন্টেল এবং AMD এর আগের জেনারেশন অর্থাৎ 12th Gen ও 5000 সিরিজের দুটি প্রসেসর এই বাজেট রেঞ্জে রয়েছে। 5800X এবং 12600K। দুটি প্রসেসরের স্পেসিফিকেশন আলাদা আলাদা, 12600K আবার DDR5,PCIe5 সাপোর্ট করে।দুটি প্রসেসর গড় হিসেবে আসলে একই স্তরে অবস্থান করছে। কিছু এপ্লিকেশনে 12600k, কিছু এপ্লিকেশনে 5800X বেটার। আবার কিছু ক্ষেত্রে সমান সমান পারফর্মেন্স দেখা যায়। গেমিং এও গড়ে দুটি প্রসেসর একই রকম পারফর্মেন্স দেয়। দুইটি প্রসেসরের জন্যই লাগবে আলাদা করে ভালো মানের কুলার, পাওয়ার ড্র এর পরিমাণ ও একই রকম। স্পেকস শিটে দুটি বেশি কোর  ও DDR5 সাপোর্ট থাকায় হয়তো কিছুটা প্লাস পয়েন্ট 12600k পেতে পারে, তবে এটাও মাথায় রাখতে হবে, এই অতিরিক্ত দুটি কোর খুব বেশি সাহায্য করতে পারছে না। ওভারল আমাদের মতে এটি একটি DRAW বলা যায়।

যারা দেড় লাখ-দুই লাখ এর মধ্যে বেস্ট গেমিং পিসি বিল্ড করতে চান তারা 12600K/5800X বেছে নিতে পারেন। সাথে DDR4 র‍্যাম, ইন্টেলের ক্ষেত্রে B660 এর Aorus Pro/TUF/BAZOOKA Motherboard ও AMD এর ক্ষেত্রে b550 Aorus/TUF/Tomahawk/Bazooka ইত্যাদি মডেলের  গেমিং মাদারবোর্ডগুলো নিতে পারেন।

উপরের এই পরামর্শটা তখনই প্রযোজ্য যখন কেও বাজেটের বেশিরভাগটাই একটা পাওয়ারফুল গ্রাফিক্স কার্ডের দিকে দিতে চাইবেন।2 লাখের নিচেই 3070 Ti,6800xt,6750xt দিয়ে বিল্ড করা সম্ভব এক্ষেত্রে। তবে যদি একই বাজেটে 3060/3060ti এর মত গ্রাফিক্স কার্ডেই সীমাবদ্ধ থাকতে চান,ও পরে গ্রাফিক্স কার্ড আপগ্রেড করতে চান সেক্ষেত্রে অবশ্য 13600K নেওয়ার সুযোগ রয়েছে DDR5 এর সাথে।

sample:

  • 12600K
  • B660M Aorus Elite AX DDR4
  • Storage
  • Corsair Vengeance RGB Pro 8GBx2 3200 Mhz
  • Deepcool AK620 Cooler
  • MSI RTX 3070 Ti VENTUS 3X 8G OC/3080/6800XT/6900XT

Best Gaming Processor (DDR4 Platform): Ryzen 7 5800X3D

এখন পর্যন্ত গেমিং এ সব কিছু মিলিয়ে সেরা প্রসেসর আমাদের কাছে মনে হয়েছে Ryzen 7 5800X3D। DDR4 র‍্যাম দিয়েই এই অক্টা কোরের প্রসেসরটি নেক্সট জেনারেশন এর AMD,Intel দুই দিকের ৬ থেকে ১৪ কোরের প্রসেসরগুলোর সাথেই সমানে সমান পাল্লা দিয়েছে , যেগুলো এটাকে পেছনে ফেলতে পেরেছে সেগুলোও যে আহামরি বড় ব্যবধানে পিছিয়ে আছে তা নয়। আর 12th Gen এর সবগুলো প্রসেসর বা 5000 সিরিজের সবগুলো প্রসেসরই গেমিং এ এই প্রসেসরটির থেকে পিছিয়ে। এই প্রসেসর একটা জিনিসই প্রমাণ করে যে, Infinity Cache নামের অতিরিক্ত ক্যাশ মেমোরিই গেমিং এর জন্য ফিউচার।সব মিলিয়ে আমাদের কাছে গেমিং এর জন্য সেরা প্রসেসর এটাই।

যারা শুধুমাত্র গেমিং এর জন্য পিসি বিল্ড করতে চান,Esports হোক বা AAA, শুধুমাত্র গেমিং বা স্ট্রিমিং করতে চান এবং DDR5 সিস্টেমের দিকে যেতে  চাচ্ছেন না,মাদারবোর্ড+র‍্যাম মিলিয়ে অতিরিক্ত পয়সা খরচ করতে চাচ্ছেন না এবং সিংহভাগ বাজেট গ্রাফিক্স কার্ডের জন্য রাখতে চাচ্ছেন, তাদের জন্য 5800X3D ই তাই নেওয়ার পরামর্শ থাকবে।

Best Flagship Processor: Intel Core i9 13900K

আমাদের মতে স্পেকস,পারফর্মেন্স,দাম সবকিছু বিবেচনায় সেরা ফ্লাগশিপ প্রসেসর Intel এর Core i9 13900K। আর এখানে সাজেশন দেওয়ার মত কিছু নেই। Top of the Line প্রোডাক্ট বাছাই করে পিসি বিল্ড করে ফেলুন। ধন্যবাদ।

- Advertisement -

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here