কম্পিউটার চালান কিন্তু ভাইরাসের সম্মুখিন হননি এরকম লোক খুবই মানে খুবই কম পাওয়া যাবে। কম্পিউটারের সাথে ভাইরাস মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ ভাবে জড়িত। আর ভাইরাসের সাথে এন্টিভাইরাসের কথাও এমনিতেই চলে আসে। কম্পিউটারকে ভাইরাস এবং বিভিন্ন প্রকার ম্যালওয়ার থেকে মুক্ত রাখতে আমরা এন্টিভাইরাস ব্যবহার করে থাকি। আমার আগে পোষ্টগুলোতে সেরা ফ্রি এবং প্রিমিয়াম এন্টিভাইরাস নিয়ে আলোচনা করেছিলাম। আজ আমি কথা বলবো বুটেবল এন্টিভাইরাস নিয়ে। যখন আপনার পিসিতে ভাইরাস আক্রমণ করে এবং পুরো অপারেটিং সিস্টেমকে ডাউন করে দেয় কিংবা উইন্ডোজে যখন আপনার কোনো প্রকার একসেস থাকে না তখন আপনি বুটেবল এন্টিভাইরাস দিয়ে উইন্ডোজ লোড করা বা উইন্ডোজ চালু না করেই আপনার পিসিকে স্ক্যান করে নিতে পারবেন। সহজ ভাষায় উইন্ডোজের একসেস ছাড়াই যে এন্টিভাইরাস ব্যবহার করতে পারবেন সেগুলোকেই বুটেবল এন্টিভাইরাস বলা হয়। যারা পিসির সুরক্ষা নিয়ে মিলিটারি গ্রেডের মতো সচেতন এবং যাদের পিসিতে সেন্সিটিভ তথ্যাদি থাকে কিংবা যারা simply বুট সেক্টরকে স্ক্যান করতে চান তারা বুটেবল এন্টিভাইরাস ব্যবহার করতে পারেন। অনেকেই বলে থাকবেন যে নরমাল বিভিন্ন এন্টিভাইরাসে বুট সেক্টর স্ক্যান করার অপশন থাকে তাহলে আলাদা করে বুটেবল এন্টিভাইরাস ব্যবহার করার কি দরকার? নরমাল এন্টিভাইরাসে বুট সেক্টর স্ক্যান আপনি তখনই করতে পারবেন যখন আপনি উইন্ডোজ চালু করতে পারবেন। আপনার উইন্ডোজই যদি ভাইরাসে নস্ট হয়ে যায় তখন এই বুট সেক্টর স্ক্যান করতে বুটেবল এন্টিভাইরাসের সাহায্যের আপনার প্রয়োজন হবে। বুটেবল এন্টিভাইরাসকে আপনি সিডি/ডিভিডি বা ফ্ল্যাশ ড্রাইভে বুটেবল করে নিতে পারবেন এবং পিসির বুট সেক্টর থেকেই চালাতে পারবেন, কোনো প্রকার উইন্ডোজ বা অপারেটিং সিস্টেম না চালিয়েই! তো চলুন দেখে নেই সেরা ১০টি বুটেবল এন্টিভাইরাসগুলোকে।

বি:দ্র: আজকের লিস্টটিতে কোনো প্রকার সংখ্যা পদ্ধতি ব্যবহার করা হয়নি, আজকের লিস্টের সকল এন্টিভাইরাসই বুটেবল হিসেবে ভালো। তাই লিস্টের প্রথমে থাকা এন্টিভাইরাসটি সবথেকে ভালো হবে এবং লিস্টের শেষে থাকা এন্টিভাইরাসটি খারাপ হবে এমনটি কিন্তু না। আজকের লিস্টের সবগুলো এন্টিভাইরাসই সেরা এবং আজকে কোনো প্রকার তুলনামূলক লিস্ট বানানো হয়নি।

Anvi Rescue Disk

ছোট সাইজের সহজে ব্যবহারযোগ্য Anvi Rescue Disk রয়েছে আমাদের আজকের সেরা বুটেবল এন্টিভাইরাসের ১ম স্থানে। বুটেবল এন্টিভাইরাসের নাম শুনলেই যারা শিউরে উঠেন ভাবেন যে কত কঠিন হবে এ জাতীয় এন্টিভাইরাস চালাতে তাদের জন্যেই এই Anvi Rescue Diskটি বেস্ট হবে। এন্টিভাইরাসটি চালু করলেই বুঝতে পারবেন যে মাত্র ৩টি স্ক্যানের অপশন আপনি পাবেন এখানে। ৩টি স্ক্যানের অপশন, ২টি প্রোগ্রামের সেকশন পাবেন এখানে কিন্তু এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটির সমস্যা হচ্ছে এখানে আপনি কোনো কাস্টম সেটিংস প্রয়োগ করতে পারবেন না। Anvi Rescue Disk দিয়ে আপনি কুইক স্মাট স্ক্যান, ফুল সিস্টেম স্ক্যান এবং কাস্টম স্ক্যান দিয়ে স্পেসিফিক ফোল্ডার / ফোল্ডারগুলোতে ভাইরাস সার্চ দিতে পারবেন। এছাড়াও এন্টিভাইরাসে রয়েছে করাপ্ট রেজিস্ট্রি ফিক্স করার ফিচার। আর আগেও বলেছি এই এন্টিভাইরাসের মূল সমস্যা হলো আপনাকে স্ক্যান করার সময় পুরো ড্রাইভ কে স্ক্যান করতে হবে।

AVG Rescue CD

AVG Rescue CD হচ্ছে একটি “text-only” ফ্রি বুটেবল এন্টিভাইরাস প্রোগ্রাম। এটি দিয়ে আপনি বুট সেক্টরে unwanted programs, cookies স্ক্যান, হিডেন ফাইল এক্সটেনশন এবং আকার্ইভের ভেতরে স্ক্যানিং করতে পারবেন। যেকোনো স্ক্যান করার আগে আপনি পুরো সিস্টেম, কিংবা আপনার পছন্দমতো ফোল্ডার বা শুধুমাত্র বুট সেক্টর, শুধুমাত্র রেজিস্ট্রিকে স্ক্যান করতে পারবেন। AVG Rescue CD দিয়ে আপনি ভাইরাস ডেফিনেশন কে অনলাইন এবং অফলাইনেও আপডেট দিতে পারবেন। আর হার্ডড্রাইভ টেস্টার সহ এন্টিভাইরাসটিতে রয়েছে বিভিন্ন টুলস। AVG Rescue CD এর মূল সমস্যা হচ্ছে এতে কোনো গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেস নেই, তাই যারা যারা কমান্ড টুলসের মাধ্যমে কাজ করতে পারেন না তাদের জন্য এটি চালানো অনেক কঠিন হবে।

Avira Rescue System

Avira Rescue System কিন্তু শুধুমাত্র একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস নয়। এটি একই সাথে একটি ফ্রি বুটেবল এন্টিভাইরাস, একটি রেজিস্ট্রি এডিটর, একটি ওয়েব ব্রাউজার সহ বেশ অনেকগুলো কাজেই আপনি Avira Rescue System কে ব্যবহার করতে পারবেন। আর এতে রয়েছে চমৎকার GUI বা গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেস। তাই অপশনগুলো খুঁজে পেতে আপনাকে কোনো প্রকার কস্ট করতে হবে না। এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটি প্রতিবার স্ক্যান করার আগে অটোমেটিকভাবে এর Definitions কে আপডেট করে নিতে তাই আপনাকে মনে করে এন্টিভাইরাসটি আপডেট দিতে হবে না। আর অনান্য বুটেবল এন্টিভাইরাসের থেকে Avira Rescue System কে তুলনামূলক সহজভাবে ইন্সটল করতে পারবেন। তবে Avira Rescue System এর মন্দ দিক হলো আমাদের আজকের লিস্টের ১ম এন্টিভাইরাসের মতো এটাও স্ক্যান করার সময় পুরো হার্ডডিক্স পার্টিশন স্ক্যান করবে, এখানে নির্দিষ্ট ফোল্ডার স্ক্যান করার সুযোগ পাবেন না। আরেকটি মন্দ দিক হলো এই এন্টিভাইরাসটির সাইজ বেশ বড়, প্রায় ৬৫০ মেগাবাইটের চেয়ে বেশি।

Comodo Rescue Disk

সাধারণ Comodo এন্টিভাইরাসের পাশাপাশি এর একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস রয়েছে যার নাম Comodo Rescue Disk। এই বুটেবল এন্টিভাইরাসকে আপনি ডিক্স কিংবা ফ্ল্যাশ ড্রাইভে text-only কিংবা GUI ভাবে ইন্সটল দিতে পারবেন। GUI মোডটি আসল এন্টিভাইরাসটির মতোই ডিজাইন রাখা হয়েছে তাই ব্যবহার করতে তেমন কস্ট হবে না। Comodo Rescue Disk দিয়ে আপনি তিন ধরণের স্ক্যান করতে পারবেন, এগুলো হচ্ছে স্মার্ট স্ক্যান, ফুল স্ক্যান এবং কাস্টম স্ক্যান। স্মার্ট স্ক্যান দিয়ে আপনি মেমোরির রুটকিট, বুট সেক্টর, অটোরান এন্ট্রি, রেজিস্ট্রি এবং সিস্টেম ফোল্ডারটি স্ক্যান করতে পারবেন এবং কাস্টম স্ক্যান দিয়ে আপনার পছন্দমতো ফাইলস/ফোল্ডার স্ক্যান করতে পারবেন।

Bitdefender Rescue CD

আমাদের আজকের সেরা ফ্রি বুটেবল এন্টিভাইরাসের লিস্টের মাঝামাঝি স্থানে রয়েছে Bitdefender Rescue CD । এই বুটেবল এন্টিভাইরাসের খারাপ দিকগুলো যদি বলি তাহলে প্রথমেই যেটা বলতে হয় তা হচ্ছে এর ডাউনলোড সাইজ তুলনামূলক বেশ বড় প্রায় ৬৫০ মেগাবাইটের থেকেও বেশি। আর পরেরটা হচ্ছে এই বুটেবল এন্টিভাইরাস স্টার্ট হতে একটু সময় নেয়। মানে অনান্য বুটেবল এন্টিভাইরাসের থেকে তুলনামূলক স্লো স্টার্ট টাইম হয় এতে। তবে এই দুটো যদি আপনার কাছে কোনো সমস্যা না হয় তাহলে Bitdefender Rescue CD আপনার জন্য একটি আর্দশ বুটেবল এন্টিভাইরাস হয়ে থাকবে। Bitdefender Rescue CD আপনাকে একটি নরমাল ডেক্সটপ চালানোর মতোই GUI দিবে। আর এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটি আপডেট দেওয়াও অনেক সহজ, প্রতিবার Bitdefender Rescue CD যখন আপনি চালু করবেন তখন এন্টিভাইরাসটি নিজে নিজেই ইন্টারনেটের মাধ্যমে নতুন আপডেট চেক করবে এবং আপডেট থাকলে সেটা করে নিবে। Bitdefender Rescue CD তে রয়েছে মাল্টিপল স্ক্যান অপশন যেখানে আপনি ফুল সিস্টেম স্ক্যান করা ছাড়াও আপনার পছন্দমতো নিদিষ্ট ফোল্ডারকেও স্ক্যান করতে পারবেন যেটা আজকের লিস্টের কয়েকটি বুটেবল এন্টিভাইরাসে করা যায় না।

Dr.Web LiveDisk

বেশ অনেকগুলো ফিচারসমৃদ্ধ এবং কাস্টমাইজেবল বুটেবল এন্টিভাইরাস হচ্ছে Dr.Web LiveDisk । তবে শুধু এর ডিক্স সাইজ বা ডাউনলোড সাইজটাই একটু বড় আরকি। Dr.Web LiveDisk তে আপনি বেশ কাস্টমাইজেশনের অপশন পাবেন যেমন কোনো ফাইলস ভাইরাসে আক্রান্ত হলে তখন এন্টিভাইরাসটি কি করবে, কোনো ফাইলকে সন্দেহ হলে তখন কোন একশন নেওয়া হবে এমনি আপনি স্পেসিফিক ইস্যু যেমন adware, dialers, jokes, hacktools, riskware এগুলো সম্মুখিন হলেও Dr.Web LiveDisk কি একশন নেবে সেটাও আপনি কাস্টমাইজেবল করে নিতে পারবেন। নিদির্ষ্ট কাস্টম ফোল্ডার স্ক্যান করার সুবিধা ছাড়াও এতে কোন কোন টাইপের ফাইলস স্ক্যান করবেন সেটাও আপনি নির্ধারণ করে দিতে পারবেন। অন্যদিকে বড় বড় ফাইলসকে স্ক্যান থেকে বাদ দিতে পারবেন এবং প্রতিটি সিঙ্গেল ফাইলে Dr.Web LiveDisk কতটুকু সময় ব্যয় করবে সেটার আপনি সেট করে দিতে পারবেন। মানে বোঝাই যাচ্ছে বেশ কাস্টমাইজেবল একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস হচ্ছে এই Dr.Web LiveDisk।

F-Secure Rescue CD

প্রতিটি স্ক্যানের আগে Virus Definitions কে আপডেট করা, সহজে ব্যবহারযোগ্য, সাইজে ছোট এই বুটেবল সফটওয়্যারটির নাম হচ্ছে F-Secure Rescue CD। F-Secure Rescue CD হচ্ছে একটি সিম্পল বুটেবল এন্টিভাইরাস। তবে এখানে কোনো GUI বা গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেস নেই তাই অনেকেরই এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটি ব্যবহার করতে ঝামেলা মনে হতে পারে। অন্যদিকে যারা কমান্ড লাইন ইন্টারফেস ব্যবহার করার অভ্যাস আছে তাদের জন্য বেশ সহজবোধ্য একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস হবে এটা। শুধুমাত্র এন্টার কি চাপ দিয়েই আপনি স্ক্যানিং শুরু করতে পারবেন আর বলা বাহুল্য যে প্রতিটি স্ক্যানের আগে এটি আপডেট চেক করে তাই দরকারের সময় এটাকে আপনি স্কিপ করে যেতে পারবেন না।

Kaspersky Rescue Disk

যারা যারা প্রিমিয়াম এন্টিভাইরাস ব্যবহার করেন তাদের কাছে ক্যাসপারেস্কি একটি বেশ পরিচিত এবং ট্রাস্টেট নাম। ফ্রি এবং প্রিমিয়াম এন্টিভাইরাস ছাড়াও ক্যাসপারেস্কির “Rescue Disk” নামের একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস রয়েছে যেটা আপনার পিসির বুট সেক্টরের virus, worms, trojans, malicious tools, adware, dialers এবং অনান্য ম্যালওয়ারকে স্ক্যান করতে পারবেন। আর Kaspersky Rescue Disk কে আপনি GUI কিংবা টেক্স মোড দুটো ভাবেই ইন্সটল এবং ব্যবহার করতে পারবেন। তবে সাইজে বড় হলেও আমি রেকোমেন্ড করবো গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেসযুক্ত মোডটি ব্যবহার করার। সম্পূর্ণ ড্রাইভ স্ক্যান করা ছাড়াও আপনি Kaspersky Rescue Diskতে আপনার চাহিদামতো নিদির্ষ্ট ফোল্ডার স্ক্যান করতে পারবেন। এছাড়াও Fileless objects, Startup objects এবং System drive কেও আপনি স্ক্যান করতে পারবেন। অন্যদিকে বুটেবল এন্টিভাইরাস ছাড়াও Kaspersky Rescue Disk য়ে আপনি বিভিন্ন টুলসও পেয়ে যাবেন। যেমন ফাইল সিস্টেমে ব্রাউজিং করে যেকোনো ফাইলকে কপি-পেস্ট-ডিলেট করতে পারবেন, এতে রয়েছে বিল্ট-ইন ফায়ারফক্স মজিলা ব্রাউজার যাতে দরকারের সময় নেট ব্রাউজিংও আপনি করতে পারেন ইত্যাদি। আর প্যাড়াময় ব্যাপার হচ্ছে লিস্টের কিছু কিছু এন্টিভাইরাসের মতোই এটারও ডাউনলোড সাইজ একটু বেশি।

VBA32 Rescue

গ্রাফিক্যাল ইউজার ইন্টারফেস নেই এতে কিন্তু টেক্স মোডেও বেশ অনেক ডিটেইলস সেটিং আপনি পেয়ে যাবেন VBA32 Rescue বুটেবল এন্টিভাইরাসে। টেক্স বা কমান্ড লাইন জাতীয় বুটেবল এন্টিভাইরাসগুলোর মধ্যে VBA32 Rescue তে আপনি সবথেকে বেশি কাস্টমাইজেশনের সুবিধা পাবেন। ২০০ মেগাবাইটের মতো ডাউনলোড সাইজের এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটি যদি আপনি টেক্স মোডে চালাতে পারেন তাহলে এটা আপনার জন্য অন্যতম সেরা একটি বুটেবল এন্টিভাইরাস হয়ে উঠবে। কোন ড্রাইভটি স্ক্যান করবেন, কোন ধরণের ফাইল টাইপস স্ক্যান করবেন, আকার্ইভের ভেতরের স্ক্যান অপশন ছাড়াও এতে ভাইরাস পেলে এন্টিভাইরাসটি কি একশন নেবে সেটাও আপনি নির্ধারণ করে দিতে পারবেন। আর আপডেট করার ক্ষেত্রে আপনি সরাসরি সিডি বা ইউএসবি ড্রাইভ থেকে এন্টিভাইরাসটি আপডেট করার সুযোগ পাবেন।

Windows Defender Offline

আমাদের আজকের সেরা ১০টি ফ্রি বুটেবল এন্টিভাইরাসের লিস্টের সবার শেষে রয়েছে মাইক্রোসফটের Windows Defender Offline এন্টিভাইরাসটি। পূর্ণাঙ্গ ইউজার ইন্টারফেস আর উইন্ডোজ ডিফেন্ডার যারা যারা ব্যবহার করেন তাদের জন্য এই এন্টিভাইরাসটি ব্যবহার করা তেমন কোনো ঝামেলাই হবে না। যারা যারা বিশেষ করে কোনো থার্ড পার্টি কোম্পানির উপর ভরসা করতে পারেন না তাদের জন্য মাইক্রোসফটের এই বুটেবল এন্টিভাইরাসটিই একমাত্র পন্থা হতে পারে। এই এন্টিভাইরাসটি ডাউনসাইড হচ্ছে একে আপনি সরাসরি ISO ফরম্যাটে ডাউনলোড করতে পারবেন না, একে exe ফাইল আকারে ডাউনলোড করতে পারবেন এবং পরবর্তীতে আপনাকে নিজে থেকে একে iso তে কনর্ভাট করে তারপর ইউএসবি ড্রাইভ বা সিডি ডিক্সে বার্ন করতে হবে। Windows Defender Offline কে আপনি সরাসরি ইউএসবি ডিক্স হতে আপডেট দিতে পারবেন। এতে রয়েছে কুইক স্ক্যান, ফুল স্ক্যান এবং কাস্টম স্ক্যান। ভাইরাস পেলে যেগুলো Quarantined Files গিয়ে জমা হয় সেখান থেকে আপনি ভাইরাসগুলোকে চিরতরে মুছে দিতে পারবেন। এছাড়াও  ফাইল, ফোল্ডার এবং extension টাইপ বেছে নিয়ে স্ক্যান থেকে এগুলোকে আপনি সরিয়ে নিতে পারবেন। অর্থাৎ নরমাল উইন্ডোজ ডিফেন্ডারের মতোই এক্সপেরিয়েন্স পাবেন আপনি এই বুটেবল এন্টিভাইরাসে।

এই ছিলো সেরা ১০টি ফ্রি বুটেবল এন্টিভাইরাস। আপনার যদি বুটেবল এন্টিভাইরাসের প্রয়োজন পড়ে তাহলে লিস্টের যেকোনো একটি কে আপনি বেছে নিতে পারেন। তবে কমান্ড লাইন সেক্টরে আপনি পারদর্শি না হলে text ভিক্তিক বুটেবল এন্টিভাইরাস ব্যবহার না করাটাই শ্রেয়।

 

 

Avatar
Fahad is a freelance games journalist who, while not spending every waking minute selling himself to websites around the world, spends his free time writing. Most of it makes no sense, but when it does, he treats each article as if it were his Magnum Opus - with varying results.