টাইটেল দেখেই বুঝতে পারছেন আজকে আইওএস এর আপকামিং লেটেস্ট ভার্সন ১৩ নিয়ে কথা বলা হবে। আর এবারের আপগ্রেডের উপর আমি একটু বেশিই এক্সাইটেড কারণ এই ভার্সনে বেশ কয়েকটি যুগান্তকারি ফিচার অ্যাপল যোগ করেছে যেটা দিন শেষে ইউজারদেরই বেশি কাজে আসবে। গত সোমবারে ইতিমধ্যেই আপনি আইওএস এর নতুন 12.4 আপডেটটি পেয়ে গিয়েছেন। কিন্তু জেনে রাখুন আগামী ৩ জুনে শুরু হতে যাওয়া WWDC 2019 সম্মেলনে অ্যাপল অফিসিয়াল ভাবে iOS 13 কে প্রদর্শন করবে, কিন্তু এর আগেই আমরা আইওএস ১৩ এ থাকা বেশ কয়েকটি “কনফার্মড” ফিচার সম্পর্কে জেনে গিয়েছি। আর আজকের পোষ্টেও এই ফিচারগুলো নিয়ে আমি সংক্ষিপ্ত আকারে আপনাদের সামনে উপস্থাপন করার চেষ্টা করবো। পরবর্তীতে কনফারেন্স থেকে বিস্তারিত আকারে আরেকটি পোষ্ট করা হবে। তো চলুন দেখে নেই আপকামি iOS ১৩ সংষ্করণে কি কি থাকছে:

১) জেইলব্রেক প্রুফ! : অ্যাপল তাদের iOS 13 এর সিকুরিটির উপর বেশ কঠিন ভাবেই বিগত কয়েক মাস ধরে কাজ করে যাচ্ছে। আর আইওএস ১৩ এর মূল ফিচারটিই হচ্ছে এটি একটি Jailbreak “proof” অপারেটিং সিস্টেম হতে যাচ্ছে! জেইলব্রেক সম্পর্কে যাদের ধারণা নেই তারা একে অ্যান্ড্রয়েডের রুট সিস্টেমের সাথে তুলনা করতে পারতেন। বিগত আপগ্রেডগুলোতে এক একটি আইওএস জেইলব্রেক করতে মাসখানেক থেকে শুরু করে বছরখানেক সময় পর্যন্ত ইউজারদের অপেক্ষা করতে হতো। কিন্তু এবারের আপডেটে জেইলব্রেককে সম্পূর্ণভাবে ব্যান করে দিতে যাচ্ছে অ্যাপল! তবে অনেকেই বলছেন একেবারে ধ্বংস করে দিতে না পারলের রিলিজের অন্তত ৫ বছরের মধ্যে আপনি আইওএস ১৩ কে জেইলব্রেক করতে পারবেন না!

২) দ্রুতগতির iOS! : অ্যাপল তাদের আপকামিং আইওএস ১৩ য়ের এনিমেশনকেও বেশ টুইকিং করেছে। এর মাধ্যমে আপনি স্বরণকালের সবথেকে দ্রুতগতির iOS কে উপভোগ করতে পারবেন। ব্যাক এনিমেশন, হোম এনিমেশন, অ্যাপ ক্লোজ / ওপেন এনিমেশন সহ OS এর সকল এনিমেশনকেই নতুন করে ঢেলে সাজানো হয়েছে এবারের আপডেটে। অ্যাপল দাবী করছে যে কিছু কিছু নিদির্ষ্ট ডিভাইসে আপনি ৪০% পর্যন্ত বেশি ফাস্ট আইওএস উপভোগ করতে পারবেন।

৩) পরিস্কার Widgets পেজ! : অনান্য বিষয়ের সাথে সাথে আইওএস ১৩ এর Widgets পেজেও আনা হবে পরিবর্তন। এখন আপনি একটি নিট এন্ড ক্লিন Widgets পেজ উপভোগ করতে পারবেন।

৪) ডার্ক মোড! : জেইলব্রেককৃত ডিভাইসে আগে থেকেই অনেকেই ডার্ক মোড ব্যবহার করে আসছেন। কিন্তু এবারের আপডেটে অফিসিয়াল ভাবেই system wide ডার্ক মোড আপনি পাবেন। আর ডার্ক মোডের সঠিক ব্যবহারের মাধ্যমে আপনার অ্যাপল ডিভাইসে ব্যাটারি থেকে আরো বেশিক্ষণের ব্যাকআপ আপনি পাবেন।

৫) স্টক iOS কিবোর্ডে এবার থাকছে SwiftKey জাতীয় ফিচার। যারা অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইস ব্যবহার করেন তারা কিবোর্ডে swift করে টাইপিংয়ের একটি ফিচারকে দেখে থাকবেন যেটা আলাদাভাবে SwiftKey ফিচার বলা হয়। কিন্তু এবারের আইওএস আপডেটে স্টক কিবোর্ডেই এই ফিচারটিকে আপনি পেয়ে যাবেন।

৬) হেলথ অ্যাপে থাকছে পরিবর্তন। বিভিন্ন ফিচারের পাশাপাশি এবারে হেলথ অ্যাপকে আরো user friendly ভাবে সাজানো হয়েছে। যেমন আপনি বেশিক্ষণ হেডফোন কানে দিয়ে রাখলে হেলথ অ্যাপটি আপনাকে একটি ওয়ার্নিং দেবে ইত্যাদি।

৭) iPad SideCar: এই ফিচারটি শুধুমাত্র iPad এর জন্য প্রযোজ্য। যাদের আইপ্যাড রয়েছে তারা এখন ম্যাকবুকে সাথে আইপ্যাডকে ডিসপ্লে হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন। যেটার জন্য আলাদা একটি অ্যাপ এবারের আপডেটের সাথে ছাড়া হবে। মানে আইপ্যাডকে আপনি ম্যাকবুকের 2nd ডিসপ্লে হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন।

৮) Project Marzipan : একই সাথে অ্যাপলের সকল ধাঁচের ডিভাইসের অ্যাপসগুলোর সমন্নয় করার ফিচার থাকছে এবারের আপডেটে। মানে এবার থেকে ক্রস প্লাটফর্ম অ্যাপস ক্যাটাগরির নতুন অ্যাপস আপনার উপভোগ করতে পারবেন।

৯) অনান্য বিষয়ের রিডিজাইনের মতোই Reminders সেকশনটিকেও অ্যাপল এবারের আপডেটে পরিস্কার রিডিজাইন করেছে। এবার থেকে রিমাইন্ডার অ্যাপকে আরো সহজ ভাবে আপনি ব্যবহার করতে পারবেন।

১০) অন্যদিকে Screen Time সেকশনে বেশ কয়েকটি নতুন Parental Restrictions অপশন যুক্ত করা হয়েছে। যেমন দিনের একটি নির্দিষ্ট সময়ে আপনার সন্তানরা নিদির্ষ্ট কারো সাথে কন্ট্রাক করতে পারবে না এরকম ফিচার থাকছে এবারের স্ক্রিণ টাইম Parental Restrictions সেকশনে।

১১) Books সেকশনেও থাকছে নতুনত্ব আর সাথে থাকছে rewards সিস্টেম ও ট্র্যাকিং সিস্টেম।

১২) এদিকে iMessage এর প্রোফাইল এবং Animoji স্টিকারসগুলোতেও আসছে নতুনত্ব। আর আই মেসেঞ্জে ওয়ার্টসঅ্যাপের মতো প্রোফাইল সিস্টেম আনা হচ্ছে।

১৩) ম্যাপস সেকশনেও বেশ কয়েকটি নতুন ফিচার আনবে যেটা গুগল ম্যাপস থেকে “অনুপ্রেরণা” হিসেবে নেওয়া হয়েছে।

১৪) Find my iPhone: এই সেকশনটিকেও এবার একটি সিঙ্গেল অ্যাপের মাধ্যমে বেশ সহজ ভাবে উপস্থাপন করা হবে।

১৫) Sleep Mode : এবারের আইওএসে থাকবে একটি System Wide Sleep Mode যা আপনার ঘুমের সাহায্য করবে।

১৬) অন্যদিকে এখন Home অ্যাপে আপনি Home security camera গুলোকে নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন। আগে এই দুটি জিনিসকে দুটি আলাদা অ্যাপ থেকে নিয়ন্ত্রণ করতে হতো।

১৭) HomePods য়ে থাকবে মাল্টি ইউজার সার্পোট!

১৮) Safari ব্রাউজারে এবার আপনি নিজস্ব ডাউনলোড ম্যানেজার পেতে যাচ্ছেন!

১৯) এবার সেটিংস এর প্রথম পেজেই আপনি Accessibility কে পেয়ে যাবেন।

২০) Ram ম্যানেজমেন্টেও থাকবে আরো “সহজত্ব” ফিচার।

২১) উল্লেখ্য যে ডার্ক মোডটি সম্পূর্ণ রূপে কালো না হয়ে কনফার্ম হওয়া গিয়েছে যে এটি Grey রংয়ের হবে।

এই ছিলো আইওএস ১৩ এর আগত সকল “কনফার্মড” ফিচারগুলো। আপনাদের মতোই আমিও চোখ রাখছি ৩ জুনের WWDC 2019 সম্মেলনটির উপর।