30 C
Dhaka
Saturday, July 24, 2021

সেরা কিছু basic-Low budget PC Deals

- Advertisement -asus motherboards

লো বাজেট সেগমেন্টে পিসি বিল্ড করেন এমন মানুষের সংখ্যা প্রচুর, এবং তাদের চাহিদা ও ভিন্ন ভিন্ন।এর মধ্যে একটা বড় অংশের বাজেট ই অনেক কম।তারা কোনো প্রোফেশনাল কাজ ও সেরকম করেন না, অনেকেই দোকানের জন্য,অফিসের জন্য,একেবারেই সাধারণ কাজের জন্য বা হালকাপাতলা গেমিং এর জন্য বিল্ড করতে চান। আজকে আলোচনা হবে বাজারে এই মুহুর্তে available কিছু সেরা Component এর Deals নিয়ে এবং সেগুলো দিয়ে কি কি ধরণের একটি মনিটর সহ কমপ্লিট পিসি কম বাজেটে বিল্ড করা সম্ভব তার ও একটি ধারণা আমরা নেওয়ার চেষ্টা করবো।

Intel: সেরা বাজেট ফ্রেন্ডলি প্রসেসর-মাদারবোর্ড Combo:(with and without GPU):

Intel Core i3 10100f and 10100:

এক্সট্রিম লো বাজেটে ভালো পারফর্মেন্স চাইলে বর্তমানে এটা ছাড়া মোটামুটি আর কোনো বিকল্প প্রসেসর বাজারে নেই বলা চলে। কয়েক বছর আগেও আই থ্রি শুনলেই আমরা সবথেকে দুর্বল প্রসেসর, কম পাওয়ারফুল এরকম কিছুই মনে করতাম। কিন্ত প্রযুক্তির উন্নতির সাথে সাথে পরিস্থিতি বদলেছে। ইন্টেলের 10th Gen এর আই থ্রি প্রসেসরটিও এখন আগের জেনারেশনের i5 প্রসেসরগুলো থেকে ভালো পারফর্মেন্স অফার করছে। এমনকি একসময়ের ফ্লাগশিপ 7700k বা দুই তিন বছর আগের i5 7500k,7600k  এই প্রসেসরগুলোর সমান,বেটার বা কিছু ক্ষেত্রে কাছাকাছি পারফর্ম করছে এই প্রসেসরটি।

- Advertisement -

আলাদা গ্রাফিক্স কার্ড দিয়ে বিল্ড করলে Intel Core i3 10100f কার্ডটি appropriate হবে এবং দাম পড়বে মাত্র 7500tk~

আর একদমই নরমাল পিসি বিল্ড করতে চাইলে,ব্রাউজিং,অফিস ওয়ার্ক একদম বেসিক কাজের জন্য বিল্ড করলে আলাদা গ্রাফিক্স কার্ড লাগবে না সেক্ষেত্রে ইন্টারনাল গ্রাফিক্সসহ এই প্রসেসরেরই non f ভার্সন 10100 নিলেই কাজ হয়ে যাচ্ছে। খরচ পড়বে 10200 টাকা~। (পাওয়া যাবে সারা দেশেই)

মাদারবোর্ডঃ Biostar H410MH

- Advertisement -

 

10th Gen মাদারবোর্ড এর দাম তুলনামুলক বেশি। কথাটা সত্য হলেও লো বাজেটে সত্য নয়। এ কথাও সত্য যে আমাদের দেশের বাজারে AMD এর মত মাদারবোর্ডে খুব বেশি মডেল এবং ব্রান্ড এভেলেবল নেই। কিন্ত স্টার্টআপ পিসির জন্য যা দরকার, যেটুকু দরকার তা রয়েছে বটে। মাদারবোর্ড হিসেবে এক্ষেত্রে একমাত্র পছন্দ এবং ভ্যালু ফর মানি,বাজেট ফ্রেন্ডলি অপশন হচ্ছে Biostar এর H410MH। বেসিক নয়,বরং মিড বাজেটের পিসির চাহিদা পুরণের মত ক্ষমতা রয়েছে এটির।২টি র‍্যাম স্লটে সর্বোচ্চ ৬৪ জিবি র‍্যাম লাগানো যাবে। সাথে আছে  ৪টি SATAIII পোর্ট, একটি PCIe GEN 3×4 NVMe স্লট, পর্যাপ্ত পরিমাণ Expansion Slot এবং USB Ports সহ রেগুলার সব I/O পোর্টস।

- Advertisement -

মাদারবোর্ডটির দাম পড়বে 6000Taka(special Price)(পাওয়া যাবে বাইনারি লজিকে)

 

AMD: সেরা বাজেট ফ্রেন্ডলি প্রসেসর-মাদারবোর্ড Combo(With and without GPU)

গ্রাফিক্স কার্ড ছাড়া এন্ট্রি লেভেলের AMD পিসি বিল্ড এর ক্ষেত্রে আমাদের হাতে অপশন হিসেবে রয়েছে AMD Ryzen 3 3200G। এটি একটি 4 cores 4 threads বিশিষ্ট প্রসেসর এবং ইন্টারনাল গ্রাফিক্স সেকশনে দেওয়া রয়েছে 8 cores বিশিষ্ট VEGA 8 গ্রাফিক্স। প্রসেসরটির base clock ও boost clock যথাক্রমে 3.6 এবং 4.0 Ghz।

প্রসেসরটির দাম আগে আরো বেশ কিছুটা কম ছিল,৯০০০ এর আশেপাশে পাওয়া যেত। তবে বর্তমানে এটি ১০০০০~ টাকায় পাওয়া যাবে।

গ্রাফিক্স কার্ড ছাড়া পিসি বিল্ডিং এর ক্ষেত্রে AMD এর পক্ষ থেকে আমাদের জন্য অপশন রয়েছে গত বছর বাজারে আসা AMD Ryzen 3 3100। এন্ট্রি লেভেলের পিসির জন্য দাম হিসেবে যথেষ্ট ভালো স্পেসিফিকেশন এবং পারফর্মেন্স অফার করছে এটি। চার কোর ,আট থ্রেডের এই প্রসেসরটির দাম পড়বে ১০০০০টাকার আশেপাশে।

Motherboard:

AMD এর মাদারবোর্ড নির্বাচন করার ক্ষেত্রে যেকোনো বাজেটে বা যেকোনো লেভেলের বিল্ড এর জন্যই আমাদের হাতে প্রচুর পরিমাণে ব্রান্ড এবং মডেলের অপশন থাকে যেটা অবশ্যই ভালো একটি দিক। প্রথমে আসা যাক integrated graphics সহ Ryzen 3 3200G এর বিল্ডটির দিকে। এই প্রসেসর বা বিল্ডটির জন্য আমাদের একটি এন্ট্রি লেভেল B450M হলেই পারফেক্ট হয়। যদিও আমরা আরো কিছু টাকা বাচাতে 32O chipset এর বোর্ড ও ব্যবহার করতে পারি। তবে upgrade এর কথা মাথায় রেখে আমরা 450  ই বেছে নিব।

Gigabyte এর B450M S2H রয়েছে যেটির দাম 6300 টাকা। আমাদের পিসির জন্য ideal হবে, Intel এর H410 এর মতই পর্যাপ্ত র‍্যাম স্লট, এসএসডি ,I/O,USB স্লট রয়েছে।পাওয়া যাবে যেকোনো দোকানে।

For the External GPU-Ryzen 3 3100 Build:

আমাদের দ্বিতীয় অপশন বা জিপিইউ সহ বিল্ডের ক্ষেত্রে মাদারবোর্ড হিসেবে আগে উল্লেখ করা 450M S2H দিয়ে ভালমতই কাজ চালানো যাবে।

তবে, 3100 প্রসেসরটি দিয়ে আমরা ২৫-৩০ হাজার রেঞ্জের গ্রাফিক্স কার্ড ও লাগাতে পারি পরবর্তীতে। পিসির আপগ্রেডের জন্য বেশ বড় জায়গা রয়েছে এক্ষেত্রে। এবং এই বিষয়টি মাথায় রেখে বিল্ডটিতে আমরা B550M মাদারবোর্ড ব্যবহার করতে পারি। এর জন্য খুব বেশি অতিরিক্ত খরচ করা লাগবে না।

কেননা 7500 টাকায় রয়েছে BIOSTAR B550MH মাদারবোর্ড। 550 বোর্ডের এডভান্টেজ রয়েছে অনেক, আস্তে আস্তে আমরা Gen 4 এসএসডির যুগে প্রবেশ করছি,বর্তমানে বাজারে একমাত্র B550 বোর্ডেই যা লাগানোর সুযোগ রয়েছে। অর্থাৎ পরবর্তীতে আপনি যদি এই এসএসডি লাগাতে চান তাহলে 550 মাদারবোর্ড কাজে আসবে। তাছাড়া আরো বড় কারণ হচ্ছে 550 সিরিজের মাদারবোর্ডটিতে ভবিষ্যতে AMD এর পরবর্তী সিরিজের প্রসেসরগুলো ও লাগানো যেতে পারে (যদিও এই মুহুর্তে সেটি নিশ্চিত নয়)। (পাওয়া যাবে বাইনারি লজিক সহ অন্যন্য দোকানে)

মনিটরঃ Viewsonic VA2261-2 22inch:

পিসি যেরকমই হোক না কেন, এখন ২০২১ সালের প্রেক্ষাপটে Minimum Resolution এবং Size হলো 1080p-21/21.5/22 Inch। স্টার্টআপ পিসির জন্য Viewsonic এর VA2261-2 মডেলটি যথেষ্ট হতে পারে। ফুল এইচডি রেজুলুশনের এই মনিটরটির Response time 5ms, প্যানেল টাইপঃTN।

দামঃ 7500Tk।(টেকল্যান্ড সহ যেকোনো শপে)

2nd choice(optional)

একেবারেই entry Level এর FHD Panel হলেও বেসিক অফিস এর কাজ,দোকানপাট এর জন্য ভিউসনিক এর উপরে উল্লেখিত মডেলটি নিলেই কাজ চলে যাবে। তবে একান্তই কারো বাজেট এর flexibility যদি থাকে, সেক্ষেত্রে আর 1300টাকা বাড়িয়ে viewsonic এর ইই VA2210-H মনিটরটি নিয়ে নিতে পারেন।VA2261-2 থেকে সবদিক দিয়েই মোটামুটি অনেক এগিয়ে এই মনিটরটি। দাম ৮৮৫০টাকা (টেকল্যান্ড সহ যেকোনো শপে)

গ্রাফিক্স কার্ডঃ

যেহেতু একেবারেই বেসিক স্টার্টআপ ,রেগুলার ইউসেজ এর পিসি আমরা বিল্ড করছি। এখানে গ্রাফিক্স কার্ড অপশন খোজার সময় আমরা 60fps এর মত বিষয়গুলো গোনায় ধরবো না। এক্সট্রিম গেমিং বা workload টার্গেট না হওয়ায় আমরা কাজ চলে যায়, হালকা পাতলা fifa, gta,free fire  এর মত গেম খেলা যায় এই টাইপ গ্রাফিক্স কার্ড ই চয়েস করবো।

জিপিইউ হিসেবে Biostar এর RX550 4GB গ্রাফিক্স কার্ড টি হতে পারে একটি ভালো অপশন। এটির দাম মাত্র ৮ হাজার টাকা। একই দামে 1030 রয়েছে কিন্ত সেটির ২ জিবি ক্যাপাসিটি।

অথবা যারা বাজেট বেশ অনেকটাই বাড়াতে পারবেন তারা নিতে পারেন ASUS Phonnix GTX 1050ti 4GB কার্ডটি।এটির দাম ১৪২০০টাকা~। পাওয়া যাবে স্টারটেক সহ অন্যন্য দোকানে।

এবং আরো ১ হাজার বাড়িয়ে রয়েছে GTX 1650 4GB। কালারফুল এর সুন্দর ডিজাইন এর এই কার্ডটির দাম পড়বে ১৫৫০০ টাকা।

Other Components: র‍্যাম,এসএসডি/স্টোরেজ/পাওয়ার সাপ্লাই/কেসিং 

এবার আসা যাক আমাদের মাদারবোর্ড-প্রসেসর-মনিটর কম্বোকে পুর্ণতা দিয়ে একটা পুর্ণাঙ্গ পিসি বিল্ড এর জন্য অন্যন্য ভালো কম্পোনেন্ট কম দামে কি কি নেওয়া যায় তার দিকে।

Ram:Patriot/Apacer

আমাদের দেশের বাজারের প্রেক্ষাপটে সবথেকে অস্থির এবং সেন্সিটিভ একটি কম্পোনেন্ট হলো র‍্যাম। কারণ প্রায়  প্রতিদিনই ব্রান্ড ও মডেল অনুযায়ী র‍্যাম এর দাম ৫০-১০০-২০০(কখনো বা এর চেয়েও বেশি) টাকা উঠানামা করে।

আমরা যে ধরণের পিসি নিয়ে এখানে কথা বলছি তার জন্য 3200Mhz এর র‍্যামের একেবারেই দরকার নেই। 2400/2666Mhz যথেষ্ট, একই সাথে ক্যাপাসিটিও ৮ জিবিই যথেষ্ট এবং সেক্ষেত্রে আমি যখন লেখাটা লিখছি, কম দামের মধ্যে আমাদের হাতে অপশন রয়েছে Apacer 8GB 2666Mhz র‍্যাম এবং Patriot Signature Line Premium 2666Mhz র‍্যাম। দাম যথাক্রমে ২৯০০,৩০০০ টাকা।

৩১০০/৩২০০ টাকাতে PNY এর 3200Mhz র‍্যাম ছিল দুদিন আগেও, কিন্ত দাম এর উঠানামার জন্য সেটা এখন বেশ কিছু দূর গিয়ে দাড়িয়েছে, তাছাড়া ইন্টেলের এই প্রসেসর+মাদারবোর্ড Combo এর জন্য 2666+ অর্থহীন। হয়তোবা আপনি যখন পোস্টটা পড়ছেন তখন দাম আরো কম। (হতে পারে আরো বেশি ও)

SSD/Hard Disk Drive:

এখানে বেশ কিছু ঘটনা ঘটতে পারে, ইউজার থেকে ইউজার কার কতটুক স্টোরেজ লাগবে এই বিষয়টি পরিবর্তনশীল। তাই আমরা একাধিক অপশন নিয়ে আলোচনা করবো।

Only 128/128GB SSD or 240/256 GB SSD:

শুধুমাত্র উইন্ডোজের সাথে যারা দুচারটি সফটওয়্যার চালানো, অফিস apps,ব্রাউজিং এর পাশাপাশি বেসিক কাজ করবেন তাদের ক্ষেত্রে শুধুমাত্র C Drive বা Boot Drive ই চলে । এক্ষেত্রে 128gb এর একটিমাত্র এসএসডি নিতে পারেন। তবে সাজেশন থাকবে চেষ্টা করবেন ২৫৬/২৪০ জিবির এসএসডি নিতে।

অপশন হিসেবে রয়েছে Transcend 820S 120GB M.2 SSD, Transcend 220S SATA SSD , Lexar NM100 128GB M.2 SSD, TEAM GX200 128GB SATA SSD।দাম ২০০০-২২০০ এর মধ্যেই।

240/256 জিবির জন্য রয়েছে Netac N535N 256GB M.2, Team MS30 256GB M.2 SSD অথবা HP S600 SATA, PNY CS900SATA।  দাম ২৮০০-৩১০০ এর মধ্যে।

SSD+HDD:

একসাথে SSD এবং HDD নেওয়ার দরকার হলে Seagate BARRACUDA 7200RPM HDD (৩৬০০টাক) এবং সাথে উপরে উল্লেখিত এসএসডি গুলোর মধ্যে যেকোনোটা নিতে পারবেন। তবে Minimum খরচ এর জন্য ১২০ জিবি নেওয়াটাই ভালো হবে সেক্ষেত্রে।

সব মিলিয়ে এখানে খরচ হবে 5600/5700টাকা মত।

Power Supply:Corsair CV Series CV450W/Cooler Master MWE 450W

জিপিইউ না নিয়ে Intel IGPU দিয়ে বিল্ড করলে কেসিং এর সাথে পাওয়ার সাপ্লাই দিয়ে কাজ চলে যাবে। কিন্ত কম্পোনেন্ট এর সিকিউরিটির জন্য পাওয়ার সাপ্লাই নেওয়াটাই ভালো হবে। আমাদের সিস্টেমের জন্য একটি ব্রান্ডেড 400-450W পাওয়ার সাপ্লাই যথেষ্ট এবং এর জন্য অপশন রয়েছে Corsair CV Series CV450W পাওয়ার সাপ্লাইটি। এটির ওয়ারেন্টি 5 বছরের এবং Bronze Certified. স্টক সমস্যার কারণে এটি না পেলে নিতে পারেন Cooler Master MWE 450W পাওয়ার সাপ্লাই।

কেসিংঃ

কেসিং এর জন্য আমাদের হাতে অপশন রয়েছে Goldenfield এর G9B এবং G7B অথবা Value Top এর VT-P300। দাম ২৭০০,২৫০০। স্টার্টআপ পিসি হিসেবে এই কেসিং প্রয়োজনের তুলনায় বেশি ভালো তা বলাই যায়। ভ্যালু টপের মডেলটিতে 3 colors static ফ্যান রয়েছে ৩টি যা আপনার বিল্ডের সৌন্দর্য বৃদ্ধি করবে, Goldenfield এর মডেল দুটিও এন্ট্রি লেভেল গেমিং বিল্ডে বহুল ব্যবহ্বত হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে,সেগুলোতেও রয়েছে ৩টি করে Blue Led ফ্যান এবং পর্যাপ্ত স্পেস। এগুলো পাওয়া যাবে টেকল্যান্ড,স্টারটেক সহ মোটামুটি সব শপেই।

gallery: tap to expand

সর্বমোট খরচঃ

Without GPU Intel Build:

গ্রাফিক্স কার্ড ছাড়া ইন্টেলের বিল্ড টি করলে সর্বমোট খরচ আসতে পারে-

  • মাদারবোর্ড প্রসেসর এর সাথে 7500 টাকার ভিউসনিক এর 7500টাকার মনিটর এবং ১২০জিবি এসএসডি+হার্ড ড্রাইভ নিলে (সাথে অন্যন্য কম্পোনেন্ট যেগুলো ফিক্সড) খরচ হবে ৩৮৫০০-৩৯০০০ টাকা।
  • অথবা এখানে সব সেইম রেখে শুধু hard drive নিলে খরচ পড়বে ৩৬৩০০-৩৭৮০০ টাকা।
  • অথবা ,মনিটর একটু বাজেট বাড়িয়ে IPS Panel এর ভার্সনটা নিলে খরচ দাঁড়াবে 40000-40500 টাকা।
  •  আমরা শুধু একটি ২৪০ জিবির এসএসডি লাগালে সাথে ভিউসনিক এর মনিটর নিলে খরচ হবে ৩৫০০০-৩৬০০০ টাকা,  IPS মডেল এর মনিটর নিলে আর 1400  টাকা বাড়বে।

কি কি কাজ করতে পারবোঃ

  1. একদম বেসিক অফিস এর কাজ, স্কুল কলেজে ব্যবহার এর মত পিসি হতে পারে এটা, বরং প্রসেসর সেই হিসেবে যথেষ্ট শক্তিশালী।
  2. যারা ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য পিসি বানাতে চান। তাদের জন্য অসাধারণ ডিল হতে পারে এটি। বরং একটি সাদামাটা পিসি নয়, যথেষ্ট সুন্দর এবং কোয়ালিটি সম্পন্ন পিসি আপনি পাচ্ছেন মনিটর সহ,৪০০০০ টাকার ও কমে।

With GPU Intel Build:

  • ভিউসনিকের মনিটর,১২০জিবি এসএসডি+হার্ডডিস্ক এর সাথে বাকি কম্পোনেন্ট সেইম রেখে Intel core i3 10100f এর সাথে RX 550 কার্ড এর বিল্ডে খরচ হবে ৪৪০০০ টাকা। মনিটর IPS  model টা নিলে তা ৪৫৫০০ এ গিয়ে ঠেকবে। শুধু ২৪০ জিবি এসএসডি নিলে খরচ ২৬০০,২৭০০টাকা কমবে।
  • অথবা যাদের বাজেট রয়েছে তারা যদি উপরের বিল্ডের সাথে গ্রাফিক্স কার্ড হিসেবে 1650/1050Ti নিতে চান তাদের ক্ষেত্রে খরচ গিয়ে দাঁড়াবে ৫০৫০০-৫১৫০০ টাকা।

গ্রাফিক্স কার্ড সহ বিল্ড টি দিয়ে-

  • মিডিয়াম,বেসিক হালকা পাতলা রেন্ডারিং এর কাজ করতে পারবেন এই পিসি দিয়ে ,যথেষ্ট ভালোভাবেই।
  • জিটিএ ,ফ্রি ফায়ার,ফিফা,ক্রিকেট,counter strike,Paladin এর মত Esports গেম সহ অনেক গেমই mid,low mid,mid high তে সেটিংস টুইক করে,মিক্স করে খেলা যাবে স্মুদলি।
  • GTX 1650 নিলে সেক্ষেত্রে এক্সপেরিয়েন্স অনেক গুন ভালো পাওয়া যাবে।

AMD Build without GPU:

গ্রাফিক্স কার্ড ছাড়া AMD এর বিল্ডের ক্ষেত্রে-

  • ভিউসনিক এর ৭৫০০টাকার মনিটর এর সাথে-এসএসডি+হার্ডড্রাইভ নিলে খরচ হবে ৩৯০০০টাকা। এবং iPS প্যানেল এর মনিটর নিলে তা দাঁড়াবে ৪০৫০০টাকা।
  • শুধু ২৪০জিবি এসএসডি নিলে খরচ দাঁড়াবে ৩৭৫০০(কিংবা ৩৮৫০০) টাকার আশেপাশে এবং হার্ড ড্রাইভ নিলে খরচ পড়বে ৩৮০০০টাকার মত।

AMD Build With GPU:

AMD এর জিপিইউ সহ বিল্ড এর ক্ষেত্রে খরচে শুধু 8000টাকা বৃদ্ধি পাবে RX 550 এর ক্ষেত্রে, এবং 14500 টাকা বৃদ্ধি পাবে 1050ti দিয়ে বিল্ড করলে। সেক্ষেত্রে সম্পুর্ণ খরচ কমাতে আমাদের সাজেশন হবে যতটুকু সম্ভব  মনিটর,এবং এসএসডিতে কিছু টাকা কম খরচের। সব মিলিয়ে মনিটর সহ ৫১-৫২/৫৩ হাজার খরচ হবে। এবং আমরা আগেই উল্লেখ করেছি যে Ryzen 3 3100 এর সাথে ভালো গ্রাফিক্স কার্ড নিলে মাদারবোর্ড হিসেবে 7500 টাকায় Biostar এর B550M রয়েছে (যেটি সবথেকে “affordable” B550M বর্তমানে ) ডিলটি আরো ভালো হবে এবং ফিউচার আপগ্রেডের ক্ষেত্রে বেশ ভালো এডভান্টেজ দিবে। এক্ষেত্রে খরচ ১২০০টাকা বাড়বে।

এবং ইন্টেল বিল্ড এর মতই কাজ করা যাবে AMD এর জিপিইউ সহ বা জিপিইউ ছাড়া বিল্ড এ।

যাদের বাজেট বাড়ানোর সুযোগ রয়েছে তারা আমাদের “সেরা বাজেট ফ্রেন্ডলি পিসি কম্পোনেন্ট” আর্টিকেল থেকে কম্পোনেন্ট সিলেক্ট করে বিল্ডে আরো খানিকটা premium-ness যোগ করতে পারেন।

ইউপিএস এর গুরুত্ব,প্রয়োজনীয়তা, কিভাবে কাজ করে,কম্পিউটারের এর শাটডাউন প্রসেস জানতে এই আর্টিকেলটি পড়ুন।

আপনার জন্য কোন ইউপিএস পারফেক্ট, আপনার বাজেটের সেরা ইউপিএস কোনটি জানতে এই ইউপিএস বায়িং গাইডটি দেখুন।

পিসি বিল্ড করতে যাওয়ার আগে এই আর্টিকেলটি পড়তে ভুলবেন নাঃ পিসি বিল্ডিংঃ যত ভুল ধারণা ও ভুল পরিকল্পনা

- Advertisement -asus graphics card
Soaad Bin Zaman Shoron
Gamer | Memer | Tech Enthusiast | Sports Lover | Food Hunter | JUST PHYSICS 2018

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here