31 C
Dhaka
Monday, July 15, 2024

RTX 4060, 4060 Ti 8GB ও 16GBঃ আমাদের মন্তব্য

- Advertisement -

অবশেষে এনভিডিয়া এনাউন্স করেছে তাদের RTX 40 লাইনআপের 60 class এর মোট ৩টি গ্রাফিক্স কার্ড। এর মধ্যে ২৫শে মে থেকে বাজারে পাওয়া যাবে RTX 4060 Ti, বাকি গ্রাফিক্স কার্ড গুলো আগামীতে বাজারে আসবে। চলুন দেখে নেওয়া যাক গ্রাফিক্স কার্ড গুলোর স্পেসিফিকেশন,দাম, আগের জেনারেশন এর সাথে এগুলোর পার্থক্য ও 1st party পারফর্মেন্স চার্ট। তুলে ধরেছি প্রাইসিং ,স্পেকস ও পারফর্মেন্স নিয়ে আমাদের মতামত ও।

RTX 4060 Ti: স্পেসিফিকেশনঃ

প্রথমেই এনভিডিয়ার RTX 40 সিরিজের 60 class এর গ্রাফিক্স কার্ডটির স্পেসিফিকেশন এক নজর দেখে নেওয়া যাক।TSMC এর 4N নোড এ প্রস্তত AD106-350-A1 জিপিইউ ফিচার করছে 4060 Ti.

- Advertisement -

RTX 4060 Ti  এর জিপিইউ , অর্থাৎ AD106-350-A1  এ রয়েছে 4352  টি কুডা কোর যা ২২ টেরাফ্লপ্স পারফর্মেন্স দিতে সক্ষম। ৩৪টি করে RT Core ও SM রয়েছে ও এর পাশাপাশি ১৩৬টি করে TMU ও 4th gen Tensor Cores রয়েছে।

3rd Gen RT Core এর capability 51 Tflops ও Tensor Cores গুলোর capability 353 TFLOPs। ৩২ মেগাবাইট এর লেভেল টু ক্যাশ মেমোরি দেওয়া হয়েছে 4060 Ti তে।

জিপিইউ টির বেস ক্লক ২৩১০ মেগাহার্জ ও বুস্ট ক্লক ২৫৩৫ মেগাহার্জ।

- Advertisement -

Memory Specs:

মেমোরি সেকশনে আসা যাক, সবাই ই জানেন যে দুটি মেমোরি ভ্যারিয়েন্টে আসছে RTX 4060 Ti, ৮ গিগাবাইট ও ১৬ গিগাবাইট। তবে উভয় ক্ষেত্রেই জিপিইউ থেকে শুরু করে মেমোরির অন্যান্য কনফিগারেশন,ক্লক স্পিড ,অর্থাৎ বাদবাকি সবকিছুই শতভাগ অভিন্ন থাকছে। সাধারণত মেমোরি ভ্যারিয়েন্ট কার্ডগুলোতে এনভিডিয়া মেমোরির ক্যাপাসিটির পাশাপাশি মেমোরি স্পিড থেকে শুরু করে ক্লক স্পিড, জিপিইউ ,কুডা কোরের সংখ্যা,সবকিছু তেই কমবেশি  করে থাকে। তবে এবার অভিন্ন জিপিইউ,অভিন্ন প্যাকেজেই শিপড হবে দুটি ভ্যারিয়েন্ট এর গ্রাফিক্স কার্ড।১২৮ বিটের GDDR6 মেমোরির bandwidth 288GB/s ও মেমোরির ক্লক স্পিড ২২৫০ মেগাহার্জ।

- Advertisement -

Power ,PCIe and others

RTX 4060 Ti এর টিডিপি ১৬০ ওয়াট। দুটি ভ্যারিয়েন্টই একই রকম পাওয়ার ব্যবহার করবে। PCIe4x8 ইন্টারফেস ব্যবহার করবে এই গ্রাফিক্স কার্ডটি। পাওয়ার দেওয়ার জন্য একটি ১৬ পিনের কানেক্টর এর প্রয়োজন হবে। স্পেসিফিকেশন গুলোর মধ্যে এনভিডিয়ার সব্রথেকে বড় চমকের জায়গা হচ্ছে এই পাওয়ার কনসাম্পশন। মাত্র ১৬০ ওয়াট পাওয়ার ব্যবহার করে ।

RTX 4060 Ti VS 3060 Ti: পার্থক্য সমুহ

এবার আলোচনা করা যাক 3060 ti ও 4060 ti এর পার্থক্য গুলো নিয়ে। Samsung এর 8nm node ভিত্তিক RTX 30 সিরিজের জিপিইউ ছিল rtx 3060 ti । কুডা কোরের সংখ্যা এতে ছিল ৪৮৫২টি,অর্থাৎ 4060 ti তে মোটামুটি ৫০০ ইউনিট কুডা কোর কমানো হয়েছে। যদিও অবধারিত ভাবে 4060 ti এর Cuda core next gen এর হওয়ায় বেশি ফাস্ট হওয়ার কথা।

40 series এর অন্যান্য GPU এর মত এখানেও বড় পার্থক্যের জায়গা হচ্ছে ক্লক স্পিড। 4060 Ti ২৩০০-২৫০০ মেগাহার্জের মধ্যে চলবে।সেখানে 3060 Ti এর ক্লক স্পিড ছিল ১৪০০-১৬৬৫ মেগাহার্জ। অর্থাৎ অন্যান্য ৪০ সিরিজ জিপিইউ এর মত এখানেও বড় রকমের একটা ব্যবধান লক্ষ করা যাচ্ছে।

GPU তে RT Cores,SM এর সংখ্যা আগের তুলনায় ৪টি করে কম। 3060 Ti তে ছিল ৩৮টি। একই রকম ভাবে TMU, Tensor Cores এর সংখ্যা ও কমানো হয়েছে কিছুটা।

মেমোরি কনফিগারেশনে ২৫৬ বিটের পরিবর্তে ১২৮ বিট ইন্টারফেস ব্যবহার করা হয়েছে। PCIe Interface 3060 Ti তে ছিল 4×16, অন্যদিকে অর্ধেক সংখ্যক লেন, অর্থাৎ 4×8 লেন PCIe ইন্টারফেসে চলবে RTX 4060 Ti। এটাও একটা ডাউনগ্রেড বলা যায়।

মেমোরি bandwidth 3060 ti তে ছিল 448 GB/S, সেটিও 160 GB/s কমিয়ে ২৮৮ তে নামিয়ে আনা হয়েছে 4060 ti তে। তবে বেড়েছে মেমোরি ক্লক ও ইফেক্টিভ স্পিড, 14K MB/s থেকে ইফেক্টিভ ক্লক স্পিড বেড়ে দাড়িয়েছে 18K MB/s এ। মেমোরি ক্লক ও ১৭৫০ মেগাহার্জ থেকে ৫০০ মেগাহার্জ বেড়েছে।

4060 ti এর অন্যতম প্রশংসার জায়গা হতে পারে এর পাওয়ার এফিশিয়েন্সি। RTX 3060 Ti যেখানে ২০০ ওয়াট পাওয়ার ব্যবহার করতো, সেখানে মাত্র ১৬০ ওয়াট পাওয়ারেই চলবে 4060 ti।

RTX 4060 Ti 16G and 8G price-performance comparison with RTX 3060 Ti and release date

এবার সেই মহাগুরুত্বপুর্ণ বিষয়ে আসা যাক, দাম। RTX 4060 Ti ৮গিগাবাইট ভ্যারিয়েন্ট এর দাম এনভিডিয়া নির্ধারণ করেছে ৪০০ ডলার। বলে রাখা ভালো, 4060 ti এর ১৬গিগাবাইট বা ৮ গিগাবাইট,কোনো ভ্যারিয়েন্টেরই থাকছে না Founders Edition। প্রথমবারের মত RTX ৪০ সিরিজের কোনো গ্রাফিক্স কার্ডের দাম  আগের জেনারেশন এর সমান হতে দেখা গেলো।

এক্ষেত্রে আমরা প্রথমবারের মত 40 সিরিজের মিনি,ডুয়াল, দুই ফ্যান এর কার্ড গুলো দেখতে পাবো AIB পার্টনারদের থেকে।

অন্যদিকে RTX 4060 Ti এর ১৬ গিগাবাইট ভ্যারিয়েন্ট এর MSRP নির্ধারণ করা হয়েছে ৫০০ ডলার। অর্থাৎ এবার আমরা ১০০ ডলারের বিনিময়ে ৮ গিগাবাইট অতিরিক্ত মেমোরি ছাড়া আর কিছুই বেশি পাচ্ছি না। অন্যান্য বার তো ক্লক স্পিড, কুডা কোর, মেমোরির অন্যান্য কনফিগারেশনে পার্থক্য থাকতো। এবার এর স্পেকসে এমন কিছু যে হচ্ছে না তা উপরে আগেই আলোচনা করা হয়ে গিয়েছে।

RTX 4060 Ti 8G বা Base variant ২৪শে মে বাজারে পাওয়া যাবে। অন্যদিকে 16G ভ্যারিয়েন্ট টির জন্য অপেক্ষা করা লাগবে জুলাই মাস পর্যন্ত।

performance:

এনভিডিয়া শেয়ার করেছে বেশ কিছু গেম এ RTX 4060 Ti 8G ও 16G এর পারফর্মেন্স চার্ট। এর মধ্যে কিছু গেমে Frame Generation সহ রেজাল্ট দেখানো হয়েছে। একই সাথে RT support করা টাইটেল গুলোতে RT ও চালু ছিল।  তবে Frame Generation ছাড়া যেসব গেম এর পারফর্মেন্স দেখানো হয়েছে যেমন WD Legion,Metro Exodus,Far Cry 6, RE 2023,Last of US, AC Valhalla ইত্যাদি টাইটেলে 4060 ti এর 16g বা 8g কোনোটিরই পারফর্মেন্স খুবই আহামরি ভালো মনে হয়নি । এখান থেকে আপাতদৃষ্টিতে মনে হচ্ছে এটি 3070 এর মত পারফর্মেন্স দিচ্ছে।

 

4060 Ti সম্পর্কে আমাদের অভিমত

নতুন জেনারেশনের Ray Tracing Cores, অনেক বেশি L2 Cache,  Tensor Cores, DLSS3 এর support। ৪০ ওয়াট কম পাওয়ার খরচ করেও 3060 ti থেকে বেশ ভালো পারফর্মেন্স ।এবং সবথেকে বড় কথা একই দামে পাওয়া যাবে এই গ্রাফিক্স কার্ড। এই হচ্ছে 4060 ti এর হাইলাইটস এর দিক গুলো।

তবে, এর মধ্যে যদি কিন্ত এর শেষ নেই। দাম একই থাকলেও মেমোরি কনফিগারেশনে মেমোরি ব্যান্ডউইডথ, মেমোরি ইন্টারফেস কমানো হয়েছে, নতুন জেনারেশনের কূডা কোর, আরটি কোর  ও টেন্সর কোর দিলেও প্রতি ক্ষেত্রেই সংখ্যা কমানো হয়েছে। তবে সবথেকে বড় আলোচনার যে জায়গাটা,সেটা হচ্ছে মেমোরি ক্যাপাসিটি।

দুই বছরে গেমিং ইন্ডাস্ট্রি এগিয়েছে বহুদুর। একের পর এক ডিমান্ডিং ও আনঅপ্টিমাইজড টাইটেল বাজারে রিলিজ করছে ডেভেলপার রা। আমরা ইতিমধ্যেই দেখেছি RTX 30 সিরিজের  অত্যন্ত পাওয়ারফুল অনেকগুলো গ্রাফিক্স কার্ড যেমন 3060 ti, 3070 কে 2k resolution বা 4k resolution এ VRAM স্বল্পতার জন্য খাবি খেতে। এই গ্রাফিক্স কার্ড গুলো শুধুমাত্র তাদের ভির‍্যাম স্বল্পতার জন্য অন্যান্য স্পেসিফিকেশন ও পাওয়ার অনেক বেশি হওয়া স্বত্বেও ১০০% আউটপুট দিতে পারছে না। বিশেষ করে 2k,4k তে ultra বা maxed settings এ গেম খেলতে গেলে এই জিপিইউ গুলোর দুর্বলতা স্পষ্ট হয়ে আসছে। আর রে ট্রেসিং চালু অবস্থায় এই সমস্যা আরো বেড়ে দাঁড়ায়।

এমতাবস্থায় 8GB VRAM দিয়ে GPU লঞ্চ করাটা কতটুকু যুক্তিসঙ্গত সে প্রশ্ন থেকেই যায়। ২০২৩ এর টাইটেল গুলো তো বটেই ,আগামীতে যে গেম গুলো রিলিজ হবে সেগুলোতে এই জিপিইউ এর ইউজার রা সমস্যায় পরবেন VRAM এর জন্য, সে কথা বলে দেওয়াই যায়। অর্থাৎ 4060 ti 8GB ফিউচার এর দিক দিয়ে খুব একটা ভালো অবস্থানে আছে বলা যাচ্ছে না। ৪০০ ডলার প্রাইস ধরে রাখা নিসন্দেহে প্রশংসনীয়। পারফর্মেন্স আপলিফট, রে ট্রেসিং, DLSS3, NVENC ,AV1 Encoder এর মত ফিচার রয়েছে এগুলো ও ভালো দিক । কিন্ত ৮ গিগাবাইট VRAM অনেক বড় Dealbreaker। অন্তত ১০ বা ১২ গিগাবাইট VRAM দিলে অনেক বেশি প্রশংসা কুড়াতো এনভিডিয়া, সেক্ষেত্রে 4060 Ti হতো 40 সিরিজের সবথেকে ভ্যালু ফর মানি কার্ড।

এবার আসা যাক 16GB ভ্যারিয়েন্ট এর ব্যাপারে। এইযে ৮ গিগাবাইট VRAM বাড়িয়ে তার জন্য ১০০ ডলার চার্জ করা, এখান থেকেই এনভিডিয়ার ব্যবসায়ী মন , লাভ এর প্রতি অন্ধ লোভ এর বহিঃপ্রকাশ পাওয়া যায়।

আমাদের মতে ১২ গিগাবাইট বা ১০ গিগাবাইট VRAM দিয়ে যদি ৪০০ এর জায়গায় 420 ডলারেও লঞ্চ করা হতো 4060, তাহলে এটা খুবই সুন্দর একটি প্রোডাক্ট হতো। অন্যদিকে দ্বিতীয় ভ্যারিয়েন্টটি যদি ৪৫০ ডলারে লঞ্চ করা হতো। তাহলেও মোটামুটি একটা ভ্যালু ফর মানি লঞ্চ হতো এটা।

আর ফ্রেম জেনারেশন ছাড়া 1.15x performance improvement, খুব বেশি ভালো কি?

RTX 4060 এর স্পেসিফিকেশন

3060 VS 4060: পার্থক্য সমুহ

3060 এর সাথে 4060 এর মুল পার্থক্যের জায়গাটা আসলে VRAM ক্যাপাসিটি। সরাসরি আগের জেনারেশন থেকে চার গিগাবাইট VRAM কমানো হয়েছে এতে। এছাড়া কুডা কোর কমানো হয়েছে ৩৫০টি, RT,SM সমান ২৮ টি থাকলেও Tensor,TMU কমিয়ে আনা হয়েছে ১৬টি।

যথারীতি ক্লক স্পিড ১৩০০-১৮০০ এর মধ্যে ছিল 3060 এর, 4060 তে তা ১৮০০-২৪০০ রেঞ্জে উন্নিত হয়েছে।

মেমোরি তে ক্যাপাসিটি বাদেও আরো ভয়াবহ কিছু কাটছাট করা হয়েছে। Interface 192 বিট থেকে আরো ছোট করে ১২৮ বিটে নামিয়ে আনা হয়েছে। 360GB/s bandwidth এর স্থলে 4060 তে রয়েছে 272 GB/s। PCIe 4×16 লেন কেও কমিয়ে অর্ধেক করে দেওয়া হয়েছে।

4060 এর একমাত্র ভালো দিক হয়তো পাওয়ার কনসাম্পশন।RTX 3060 ব্যবহার করতো ১৭০ ওয়াট। সেখানে মাত্র ১১৫ ওয়াট পাওয়ার এর প্রয়োজন হবে 4060 এর।

4060 price-performance, release date and comparison with 3060

4060 এর দাম নির্ধারণ করা হয়েছে 300 ডলার। অর্থাৎ RTX 3060 থেকে ৩০ ডলার কম। পারফর্মেন্স এর যে চার্ট দেখা যাচ্ছে, সেখানে এটাকে 3060 ti বা এর আশেপাশের কোনো একটি GPU ই মনে হচ্ছে।

4060 বাজারে আসবে জুলাই মাসে।

RTX 4060 সম্পর্কে আমাদের অভিমত

দাম কম,পাওয়ার কনসাম্পশন কম এর বিপরীতে কিছুটা ভালো পারফর্মেন্স। সাথে অসংখ্য জায়গায় আগের জেনারেশন এর তুলনায়  ডাউনগ্রেড । এটাই হচ্ছে 4060 এর সারমর্ম। আগের জেনারেশন এর তুলনায় পারফর্মেন্স ভালো হলেও 1440p,2k তে গেম খেলতে গেলে এর VRAM যথেষ্ট ভোগাবে গেমারদের। পরবর্তীতে সেই সমস্যা অনেক বেশি ই প্রকট হবে।

ভালোভাবে বলতে গেলে 4060 কে একটি ভালো,পাওয়ারফুল 1080p জিপিইউ বলা যেতে পারে। ৩০০ ডলারের পরিবর্তে ৩৩০ ডলার দাম রেখেই যদি ১২ গিগাবাইট ভির‍্যাম দেওয়া হতো। তাহলে এটি একটি অসাধারণ প্যাকেজ হিসেবে বিবেচিত হতো।

- Advertisement -

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here