বিশ্বের লীডিং টপ হার্ডওয়্যার ম্যানুফ্রেকচারিং কোম্পানি আসুস ও ক্রিপ্টোকারেন্সি কোম্পানি কোয়ান্টাম ক্লাউড এর মধ্যে একটি স্ট্র্যাটেজিক চুক্তি হয়েছে। ২৬ নভেম্বর আসুসের এক প্রেস ব্রিফিঙ্গে এই তথ্য জানানো হয়। গেমিং হার্ডওয়্যার ইন্ডাস্ট্রিতে আসুস বেশ বড় ধরণের মার্কেট দখল করে আছে। আসুস ও কোয়ান্টাম ক্লাউডের এই পার্টনারশিপের মাধ্যমে এখন আসুসের গ্রাফিক্স কার্ড বা গেমিং ল্যাপটপের মালিকরা খুব সহজেই বেশি এফিসিয়েন্সিতে ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইন করতে পারবে।

এই পার্টনারশিপে আসুসের হার্ডওয়্যারের মালিকরা যে ধরণের সুবিধাগুলো পাচ্ছেনঃ

  • আসুসের গ্রাফিক্স কার্ড ও কোয়ান্টাম ক্লাউড সফটওয়্যার ব্যাবহার করে গেমাররা গেম অফ থাকা অবস্থায় ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইন করতে পারবে যা ক্যাশ আউট করা যাবে পেপ্যাল অথবা উই চ্যাট একাউন্ট দিয়ে।
  • সকল কাস্টোমারের ডাটা GDPR এর আন্ডারে রক্ষণাবেক্ষণ করা হবে যাতে করে আপনার সকল প্রকারের ফাইন্যান্সিয়াল একাউন্ট সেটিংস কারো কাছে লিক হয়ে যাবে না।
  • ডিজিটাল ওয়ালেট ম্যানেজমেন্ট, ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইনিং মিক্স, কনভার্সন এবং ট্রান্সফার সহ সকল প্রকারের কাজ কোয়ান্টাম ক্লাউডের নিজস্ব সফটওয়্যারের মাধ্যমে অটোম্যাটিকালি করা হবে। আপনাকে ম্যানুয়ালি কোন কাজ করতে হবে না।

মূল প্রেস রিলিজ

তাইপে, তাইওয়ান নভেম্বর ২৬ ২০১৮

আজ (২৬ নভেম্বর) আসুস কোয়ান্টাম ক্লাউডের সাথে একটি স্ট্র্যাটেজিক পার্টনারশিপ ঘোষণা করল যাদের সফটওয়্যার সলিউশন গেমারদের তাদের আইডল জিপিউকে ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইন করার সুযোগ দেয় যা ক্যাশ আউট করা যাবে পেপ্যাল অথবা উই চ্যাট একাউন্টের মাধ্যমে।

দুনিয়ার গ্রাফিক্স কার্ড মার্কেটে লিডিং ব্র্যান্ড হিসেবে আসুস অনেকটাই মুগ্ধ কোয়ান্টাম ক্লাউড এপের ডিস্ট্রিবিউশন পার্টনার হতে পেরে যারা মাইনিং এফিসিয়েন্সির ভিত্তিতে কাস্টোমারদের ক্যাশ প্রোভাইড করে থাকে। আসুস প্রতি বছরই হাই এন্ড ও কোয়ালিটির জিপিউ বাজারে এনে থাকে যার কারণে আসুসের একটি বিরাট জিপিউ ইউজার বেইজ রয়েছে যারা কিনা পটেনশিয়ালি গেমিঙ্গের পাশাপাশি নিজেদের গ্রাফিক্স কার্ড থেকেই ভালো ইনকাম করতে পারার সুযোগ পেতে পারে।

অন্যান্য মাইনিং এপ থেকে কোয়ান্টাম ক্লাউড এর বিশেষত্ব হচ্ছে, তারা ইউজারদের ডাটা ও প্রাইভেসির প্রতি যথাসম্ভব সম্মান বজায় রাখে। এই কারণেই তাদের ডাটাবেইজ GDPR রেগুলেশন দ্বারা মেইন্টেইন করা হয়। এতে করে এই সফটওয়্যারের জন্য কোন প্রকার আলাদা একাউন্ট ক্রিয়েট করা লাগে না, বরং নিজের পেপ্যাল অথবা উই চ্যাট একাউন্ট লিংক করেই সকল ইউজার ক্যাশ আউট করতে পারবে। এই সফটওয়্যারের আরো একটি বিশেষত্ব হচ্ছে সকল প্রকার ঝামেলা থেকে মুক্তির জন্য ডিজিটাল ওয়ালেট ম্যানেজমেন্ট, ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইনিং মিক্স, কনভার্সন এবং ট্রান্সফার সহ সকল প্রকারের কাজ কোয়ান্টাম ক্লাউডের নিজস্ব সফটওয়্যারের মাধ্যমে অটোম্যাটিকালি করা হবে। যার ফলে ইউজারদের আলাদা করে একাউন্ট মেইন্টেইন করার ঝামেলা নেই।

আরো তথ্যের জন্য ভিজিট করুন অফিসিয়াল ওয়েবসাইট

অথবা যোগাযোগ করুন আপনার নিকটস্থ আসুস অফিস, রেপ্রেজেন্টেটিভ অথবা ডিস্ট্রিবিউটরদের সাথে।