আইফোন ১০ য়ে যখন notch আনা হয়েছিলো তখন থেকেই অনান্য বেশ কয়েকটি কোম্পানি তাদের প্রিমিয়াম ফোনেও এই নচ সিস্টেমটি আনা শুরু করে। আর বর্তমানে শুধু প্রিমিয়াম ফোনেই নয় বরং আমরা মধ্যবর্তী বেশ কয়েকটি কোম্পানির ফোনেও এই নচ ডিজাইনটি দেখতে পাচ্ছি। আপনারা যারা আইফোন পছন্দ করেন না কিন্তু নতুন এই আইফোনের নচ ডিজাইনটি বেশ পছন্দ হয়েছে তারা কিন্তু এখন অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসেই নচ খুঁজে বেরাচ্ছেন। অনেকেই মনে করেন নচযুক্ত স্মার্টফোনই হচ্ছে এ যুগের স্মার্টফোনের নতুন স্টাইল। তবে বাজারে এখন হরেক রকমের নচযুক্ত অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন এসে পড়ায় আপনাকে নচযুক্ত অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন কেনার সময় বেশ ঝামেলায় পড়তে হতে পারে। আর তাই আমি আইফোনের মতো নচযুক্ত বেষ্ট কয়েকটি অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনের কথা আজকে পোষ্টে উল্লেখ করবো। তো চলুন দেখে নেই আইফোনের মতো নচযুক্ত সেরা অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনগুলো যা নিশ্চিন্তে আপনি কিনে নিতে পারেন:

OnePlus 6

হ্যাঁ নচযুক্ত বাজেট এবং প্রিমিয়াম কোয়ালিটি এই দুটির সম্মনিত রূপ আপনি পাবেন ওয়ানপ্লাস ৬ ডিভাইসটিতে। খোদ ওয়ানপ্লাস তাদের কম বাজেটে প্রিমিয়াম উপাদান দেওয়ার জন্যই বিশ্বব্যাপী কত কয়েকবছর ধরেই ক্রেতাদের কাছে বেশ জনপ্রিয় একটি ব্রান্ড। আর যারা যারা নচযুক্ত অ্যান্ড্রয়েড সেট নিতে চান আবার আইফোনের মতো বিশাল বাজেট খরচ করতে চান না তাদের জন্য এই ওয়ানপ্লাস ৬ ডিভাইসটি বেশ উপযুক্ত। ওয়ানপ্লাস ৬ ডিভাইসটিতে আপনি পাবেন ১৯:৯ রেশিও ৬.২৮ ইঞ্চির ফুল HD+ AMOLED ডিসপ্লে, স্ন্যাপড্রাগন ৮৪৫ SoC প্রসেসর, ৬/৮ গিগাবাইটের র‌্যাম, ৬৪ গিগাবাইট থেকে শুরু করে ২৫৬ গিগাবাইট পর্যন্ত রম, অ্যান্ড্রয়েড ৮.১ । ডিভাইসটির পেছনে পাবেন দুটি ক্যামেরা যাদের একটি হচ্ছে ১৬ মেগাপিক্সেলের এবং আরেকটি হচ্ছে ২০ মেগাপিক্সেলের, ডিভাইসটির সামনের ক্যামেরায় রয়েছে ২০ মেগাপিক্সেলের লেন্স। আর ব্যাটারী হিসেবে পাবেন 3450mAh ক্ষমতার Non-removable ব্যাটারি। বাংলাদেশে ডিভাইসটির ৬জিবি র‌্যাম আর ৬৪জিবি রম মডেলের দাম হচ্ছে ৫৬ হাজার টাকা।

Huawei P20 Pro / P20

বিশ্বের জনপ্রিয় স্মার্টফোন ব্রান্ডের তালিকায় ৩য় স্থান অধিকারী হুয়াওয়ের P20 Pro এবং P20 ডিভাইসটি আমাদের আজকের লিস্টের ২য় স্থানে রয়েছে। আপনি যদি স্বনামধন্য ব্রান্ডের অ্যান্ড্রয়েড ফোনের মধ্যে নচ পেতে চান তাহলে এর থেকে প্রিমিয়াম কোয়ালিটির ফোন আর হয় না। Huawei P20 Pro এবং P20 এর মধ্যে মূল পার্থক্য হচ্ছে P20 Pro ডিভাইসে আপনি পেছনে ট্রিপল ক্যামেরা পাবেন। এছাড়াও P20 এর থেকে তুলনামূলক বড় OLED ডিসপ্লে, বড় ব্যাটারী এবং বেশি র‌্যাম বেছে নেবার সুযোগ পাবেন। উল্লেখ্য যে বিশ্বের প্রথম ট্রিপল রেয়ার ক্যামেরা সেটআপের স্মার্টফোন কিন্তু এই Huawei P20 Pro।

Huawei P20 এবং Huawei P20 Pro দুটি ফোনেই আপনি পাবেন আইফোনের মতো নচ সিস্টেম।

Huawei P20 ডিভাইসে রয়েছে ৫.৮ ইঞ্চির OLED 2.5D কার্ভড গ্লাস ডিসপ্লে, Kirin 970 SoC প্রসেসর, Mali-G72 Mp12 গ্রাফিক্স কার্ড, ৬ গিগাবাইট পর্যন্ত র‌্যাম, ৬৪ গিগাবাইট পর্যন্ত রম, অ্যান্ড্রয়েড ৮.১, 3400 mAh ব্যাটারী। ডিভাইসের পেছনে পাবেন দুটি ১২ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা এবং সামনে পাবেন ২৪ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা।

অন্যদিকে Huawei P20 Pro ডিভাইসে রয়েছে ৬.১ ইঞ্চির OLED 2.5D কার্ভড গ্লাস ডিসপ্লে, Kirin 970 SoC প্রসেসর, Mali-G72 Mp12 গ্রাফিক্স কার্ড, ৬ গিগাবাইট পর্যন্ত র‌্যাম, ১২৮ গিগাবাইট পর্যন্ত রম, অ্যান্ড্রয়েড ৮.১, 4000 mAh ব্যাটারী। ডিভাইসটির পেছনে পাবেন ৮ মেগাপিক্সেল, ২০ মেগাপিক্সেল এবং ৪০ মেগাপিক্সেলের ট্রিপল ক্যামেরা এবং সামনে পাবেন ২৪ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা। বাংলাদেশে Huawei P20 ডিভাইসটির দাম ৪৫ হাজার টাকা এবং Huawei P20 Pro ডিভাইসটির দাম ৮৩ হাজার টাকা।

Vivo X21

আইফোনের মতো নচ এবং In Display ফিঙ্গারপ্রিন্ট যুক্ত Vivo X21 ডিভাইসটিকে অনেকেই ওয়ানপ্লাস ৬ এর অন্যতম নিকটবর্তী প্রতিযোগী ডিভাইস হিসেবে বলে থাকেন। ডিভাইসটি দেখতে বেশ চমৎকার। ডিভাইসটিকে আপনি পাবেন স্ন্যাপড্রাগন ৬৬০ প্রসেসর, ৬ গিগাবাইট র‌্যাম এবং ১২৮ গিগাবাইটের স্টোরেজ। ৬.৩ ইঞ্চির AMOLED ডিসপ্লের এই ডিভাইসে আপনি পেছনে পাবেন ডুয়াল লেন্সের ১২ ও ৫ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা এবং সামনে সেলফি ক্যামেরায় পাবেন ১২ মেগাপিক্সেলের লেন্স। আর ব্যাটারী হিসেবে পাবেন 3200mAh ক্ষমতার ব্যাটারি। বাংলাদেশে ডিভাইসটির দাম ৪৬,৫০০ টাকা।

Honor 10

হুয়াওয়ের একটি সাব ব্রান্ড (sub-brand) হচ্ছে Honor । আর এই ব্রান্ডের Honor 10 ডিভাইসটি দিয়ে হুয়াওয়ে প্রকৃতপক্ষে OnePlus 6 কেই চ্যালেঞ্জ করছে। কারণ P20 Pro এর দামের সাথে OnePlus 6 এর দামের পার্থক্য প্রায় দ্বিগুণ তাই Honor 10 দিয়েই ওয়ানপ্লাস ৬ ডিভাইসের সাথে প্রতিযোগীতায় রয়েছে। আইফোনের মতো নচ ছাড়াও স্লিম ও কমপ্যাক্ট ডিভাইস Honor 10 য়ে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সরকে সামনে নিয়ে আনা হয়েছে। Kirin 970 অক্টা কোর প্রসেসর, অ্যান্ড্রয়েড অরিও, 3400mAh ব্যাটারি, ৫.৮৪ ইঞ্চি IPS ডিসপ্লে, ৬ গিগাবাইট র‌্যাম, ১২৮ গিগাবাইট স্টোরেজ, পেছনে ১৬ এবং ২৪ মেগাপিক্সেল ও সামনে ২৫ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরার এই ফোনটির বাংলাদেশে দাম রয়েছে ৪০ হাজার টাকা।

Huawei Nova 3 / Huawei Nova 3i

হুয়াওয়ের নোভা ৩ এবং ৩আই দুটি ডিভাইসেই চমৎকার নচ রয়েছে। নোভা ৩ ডিভাইসটি দাম প্রায় ৪০ হাজার টাকার মতো আর অন্যদিকে মিডরেঞ্জ বাজেটে ২৯ হাজার টাকায় আপনি পাবেন নোভা ৩আই ডিভাইসটি। নোভা ৩আই ডিভাইসে পাবেন ৪/৬ জিবি র‌্যাম, ৬৪/১২৮ জিবি স্টোরেজ, ৬.৩ ইঞ্চির IPS ডিসপ্লে, পাবেন হুয়াওয়ের লেটেস্ট মিড রেঞ্জ Kirin 710 প্রসেসর, ক্যামেরায় পাবেন ১৬ ও ২ মেগাপিক্সেল এবং সামনের ক্যামেরায় পাবেন ২৪ ও ২ মেগাপিক্সেল। ব্যাটারি পাবেন 3340mAh।

অন্যদিকে নোভা ৩ ডিভাইসে রয়েছে ৬.৩ ইঞ্চির IPS ডিসপ্লে, Kirin 970 প্রসেসর, ৬ গিগাবাইট র‌্যাম, ১২৮ গিগাবাইট স্টোরে, অ্যান্ড্রয়েড ৮.১,ক্যামেরায় পাবেন ১৬ ও ২ মেগাপিক্সেল এবং সামনের ক্যামেরায় পাবেন ২৪ ও ২ মেগাপিক্সেল এবং ব্যাটারিতে নোভা ৩ আই এর চেয়ে একটু বেশি 3750mAh এর পাবেন।

Poco F1

আপনি যদি মিডরেঞ্জের মধ্যে শাওমির বেস্ট স্মার্টফোন টি কিনতে চান তাহলে আমি রেকোমেন্ড করবো এই Poco F1 স্মার্টফোনটি নেবার জন্য। ৩০ হাজার টাকায় এই ফোনটি শাওমির mid-high range এর বেষ্ট স্মার্টফোন। আর উল্লেখ্য যে ৩০ হাজার টাকায় আপনি অন্যকোনো ব্রান্ডেড ডিভাইসে স্ন্যাপড্রাগন ৮৪৫ প্রসেসরটি পাবেন না। ৬.১৮ ইঞ্চির LCD ডিসপ্লে, মডেল ভেদে ৮ গিগাবাইট পর্যন্ত র‌্যাম, ২৫৬ গিগাবাইট পর্যন্ত স্টোরেজ, অ্যান্ড্রয়েড ৮.১, পেছনের ক্যামেরায় ১২ এবং ৫ মেগাপিক্সেল, সামনের ক্যামেরায় ২০ মেগাপিক্সেল, 4000mAh এর বিশাল ব্যাটারী সহ অনেক ফিচারই পাবেন এই ডিভাইসে।

Honor Play

মিডরেঞ্জের এই ডিভাইসটিকে একটি গেমিং স্মার্টফোন হিসেবে মাকের্টিং করা হচ্ছে। তবে এই ডিভাইসটিতেও আইফোন ১০ এর মতো সুন্দর নচ রয়েছে। ৩৩ হাজার টাকা বাজেটে থাকলে নিয়ে নিতে পারেন এই সুন্দর ফোনটি। এটায় রয়েছে হুয়াওয়ের ফ্ল্যাগশীপ Kirin 970 প্রসেসর, স্মুথ গেমিংয়ের জন্য রয়েছে হুয়াওয়ের নতুন GPU Turbo টেকনোলজি, রয়েছে ৬.৩ ইঞ্চির IPS ডিসপ্লে, মডেল ভেদে ৬ গিগাবাইট পর্যন্ত র‌্যাম, ৬৪ গিগাবাইট পর্যন্ত স্টোরেজ, পেছনের ক্যামেরায় রয়েছে ১৬ এবং ২ মেগাপিক্সেলের লেন্স, সামনের ক্যামেরায় রয়েছে ১৬ মেগাপিক্সেলের লেন্স এবং 3750mAh ব্যাটারী।

Xiaomi Mi A2 Lite

আপনি যদি কম বাজেটের মধ্যে সেরা নচযুক্ত স্মার্টফোন কিনতে চান তাহলে Xiaomi Mi A2 Lite ডিভাইসটি আপনি একবার চেক করে নিতে পারেন। মাত্র ১৬ হাজার টাকায় এই ডিভাইসে আপনি আইফোন ১০ এর মতো নচ ছাড়াও পাবেন  অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম Android One, 5.84 ইঞ্চির IPS ডিসপ্লে, স্ন্যাপড্রাগন ৬২৫ প্রসেসর, ৪ গিগাবাইট র‌্যাম, ৬৪ গিগাবাইট স্টোরেজ, পেছনের ক্যামেরায় পাবেন ১২ এবং ৫ মেগাপিক্সেলের লেন্স, সামনের ক্যামেরায় পাবেন ৫ মেগাপিক্সেলের লেন্স এবং পাবেন 4000mAh এর বিশাল ব্যাটারী।

Realme 2

সবথেকে কম টাকায় ব্রান্ডেড নচযুক্ত ফোন হচ্ছে এই Realme 2 ডিভাইসটি। Oppo ব্রান্ডের প্যারেন্ট কোম্পানির এই স্মার্টফোনটি বাংলাদেশে আপনি মাত্র ১১ হাজার টাকায় পাবেন। ১১ হাজার টাকায় আইফোনের মতো নচ ছাড়াও পাবেন ৩ গিগাবাইট র‌্যাম এবং ৩২ গিগাবাইট স্টোরেজ। তবে ৪ গিগাবাইট র‌্যাম ও ৬৪ গিগাবাইটের স্টোরেজের মডেলটির দাম ১৩ হাজার টাকা। ফোনটিতে রয়েছে ৬.২ ইঞ্চির IPS ডিসপ্লে, রয়েছে প্রিমিয়াম লুক, বিশাল 4230mAh ব্যাটারী, ডুয়াল লেন্সের রিয়ার ক্যামেরা (13+2MP), ৮ মেগাপিক্সেলের সামনের ক্যামেরা।