38 C
Dhaka
Tuesday, April 16, 2024

একসাথে ৩টি ফোন লঞ্চ করে অফিশিয়ালি Poco এখন বাংলাদেশে

- Advertisement -

২০১৮ সালের অগাস্টে POCO F1 ফোনে নিয়ে আসে Xiaomi তখন মার্কেটে রীতিমত একটা বিস্ফোরণ ঘটিয়ে দেয়। মিড বাজেটে ফ্ল্যাগশিপ প্রসেসর(তখন স্ন্যাপড্রাগন ৮৪৫ দিয়েছিল) কল্পনার বাহিরে ছিল যা এখনো অনেকটা প্রযোজ্য। কিন্তু তখন তাই করে দেখিয়েছিল Xiaomi । তারপর থেকেই POCO লাইনাপ নিয়ে আমজনতার এস্পেক্টেশন বেড়ে গিয়েছিল বহুগুনে কিন্তু POCO শাওমি থেকে আলাদা হয়ে স্বাধীন ব্র্যান্ডে পরিণত হয়ে যায়। যা আগে ছিল Xiaomi একটি সাবব্র্যান্ড। এরপর অনেকদিন POCO এর কোনো ফোন বাজারে দেখা যায়নি।

দীর্ঘ বিরতির পর POCO X2 বাজারে আসে কিন্তু ঐটা ছিল Xiaomi এর K30 এর রিব্র্যান্ড। এরপর POCO F2 Pro তাও আবার Xiaomi K30 Pro এর রিব্র্যাণ্ড। এভাবে আরো কয়েকটি ফোন যথাক্রমে POCO M2 Pro , POCO M2 , POCO C3 বাজারে নিয়ে আসে কিন্তু সবকটি ফোনই Xiaomi Redmi এর কোনো না কোনো ফোনের রিব্র্যান্ড অথবা ক্ষেত্রবিশেষে দুইএকটি ফিচার হয়ত এক্সট্রা এড হয়েছে এবং কালারে কিছু পরিবর্তনসহ। যাতে আসলে তাঁদের ফ্যানবেজ সহ অনেকেই হতাশ হয়ে যায়। এই কাজটি Xiaomi ছাড়াও আরো গুটিকয়েক কোম্পানিকে করতে দেখা যায়।

- Advertisement -

অবশেষে POCO একটি সম্পূর্ন নতুন ফোন অর্থাৎ শাওমির রিব্র্যান্ডেড কোনো ফোন নয় এমন একটি ফোন বাজারে আনার ঘোষনা দেয়। এমনকি ঐফোনের ব্যবহৃত চিপসেটও হয়ে যায় একদম নতুন। বলছিলাম POCO X3 এর কথা।

কিন্তু বাংলাদেশে শাওমির অনেকগুলো ফোন অফিশিয়ালি লঞ্চ হলেও পোকো অফিশিয়ালি না থাকার দুরুন বাংলাদেশে অফিশিয়ালি পোকোফোন বাজারে পাওয়া যেত না। অপেক্ষার পালা শেষে, বাংলাদেশে পোকো অফিশিয়ালি চলে এল ৩টি ফোনসহ। Xiaomi Bangladesh এর পেইজ থেকে বেশ কিছুদিন আগে থেকে POCO নিয়ে বিভিন্ন টিজার দিয়ে আসছিল। তারপর ৫ তারিখ এক অনলাইন ইভেন্টের মাধ্যমে POCO এর ৩টি ফোন অফিশিয়ালি এনাউন্স করা হয়। প্রাইস ও ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে ঐ ইভেন্ট হতে যা জানা গিয়েছে তা বিস্তারিত তুলে ধরা হবে আজকের কভার আর্টিকেলে।

অফিশিয়ালি এনাউন্স করা তিনটি ফোনগুলো হলঃ- POCO X3, POCO M2 , POCO C3

- Advertisement -

নিচে ফোন ৩টির কি স্পেসিফিকেশন ও বাংলাদেশের এর অফিশিয়াল মূল্য দেওয়ায় হল-

POCO X3 NFC – Key Specifications

  • Qualcomm Snapdragon 732G চিপসেট
  • Adreno 618 জিপিউ
  •  64MP Sony IMX682 মেইন ক্যামেরা সেন্সর
  • 13MP আল্ট্রাওয়াইড + 2MP(ম্যাক্রো+ডেপস্থ)
  • 6.67inch এর IPS LCD ডিসপ্লে সাথে ১২০হার্টজ রিফ্রেশ রেইট
  • 5160mAh ব্যাটারি যা চার্জ করার জন্য বক্সের সাথেই থাকছে 33W এর ফাস্ট চার্জার
  •  হিটিং ইস্যু এড়ানোর জন্য LiquidCool Technology 1.0 Plus
  •  ডিসপ্লে প্রোকেটশনের জন্য Corning Gorilla Glass 5
  •  IP53 Rated splash protection
  •  সাইড ফ্রেইম অ্যলুমিনিয়ামের কিন্তু ব্যাকপার্ট প্লাস্টিকের
  •  স্টেরিও স্পিকার, z-axis vibration motor ও সাইড মাউন্টেড ফিংগার প্রিন্ট
  •  ডুয়েল সীম 4G কানেক্টিভিটি

বিস্তারিত জানতে পড়তে পারেন আমাদের ওয়েবসাইটে অলরেডি পাবলিশড হওয়া আর্টিকেল –এখান থেকে 

এছাড়া আরো অফিশিয়াল তথ্য জানে ভিজিট করে পারেন পোকোর ওয়েভে

- Advertisement -

কালার ও প্রাইসঃ-

দুইটি কালারে এভাইলেবল- Shadow Grey, Cobalt Blue

দুইটি ভ্যারিয়েন্টে অর্থাৎ শুধুমাত্র 6GB র‍্যাম কিন্তু 64GB ও 128GB এই দুই স্টোরেজ অপশানে পাওয়ার যাবে যাদের মধ্যে মূল্য পার্থক্য ২হাজার টাকা।

POCO X3 NFC 6GB+64GB – BDT 25,999

POCO X3 NFC 6GB+128GB – BDT 27,999

POCO M2 – Key Specifications

  •  6.53-inch FHD+ IPS LCD ডিস্পপ্লে
  • 12nm অক্টাকোর এর Mediatek Helio G80 চিপসেট
  •  ARM Mali-G52 MC2 জিপিও
  • 13MP(ওয়াইড)+8MP(আল্ট্রা ওয়াইড)+5MP(ম্যাক্রো)+2MP(ডেপথ) সম্মিলিত কোয়াড ক্যামেরা সেটাপ
  •  8MP ফ্রন্ট ফেইসিং ক্যামেরা
  • ডিসপ্লে প্রোকেটশনের জন্য Corning Gorilla Glass 3
  • P2i স্প্ল্যাশ প্রুফ প্রোটেকশন
  • রিয়ার মাউন্টেড ফিংগার প্রিন্ট সেন্সর
  • 5000mAh ব্যাটারি সাথে 18W ফাস্ট চার্জিং
  • ডুয়েল সীম 4G কানেক্টিভিটি

আসলে POCO M2 বাংলাদেশের ইতিমধ্যে অফিশিয়ালি লঞ্চ হওয়া Redmi 9 এর রিব্র্যান্ড করা। কিন্তু র‍্যাম স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দিকে আপডেটেড। Redmi 9 বাংলাদেশে 4GB+64GB এর ভ্যারিয়েন্ট লঞ্চ হয়েছিল যার মূল্য ধরা হয়েছিল ১৪৯৯ টাকা। POCO M2 ওরফে Redmi 9 নিয়ে  বিস্তারিত জানতে পড়তে পারেন আমাদের ওয়েবসাইটে অলরেডি পাবলিশড হওয়া আর্টিকেল –এখান থেকে ( Redmi 9 নিয়ে)
এছাড়া আরো অফিশিয়াল তথ্য জানে ভিজিট করে পারেন পোকোর ওয়েভে

কালার ও প্রাইসঃ-

তিনটি কালারে এভাইলেবল- Slate Blue, Brick Red and Pitch Black

POCO M2 6GB+64GB – BDT 15,999

POCO C3 – Key Specifications

  • 6.53″ HD+ Display ডিসপ্লে
  • 12nm অক্টাকোর এর Mediatek Helio G35চিপসেট
  • PowerVR GE8320 জিপিউ
  • 5000mAh ব্যাটারি
  • P2i Nano-coating
  • 13MP(মেইন ওয়াইড)+2MP(ম্যাক্রো)+2MP(ডেপথ)
  • 5MP ফ্রন্ট ক্যামেরা

বিস্তারিত জানতে ভিজিট করতে পারেন পোকোর অফিশিয়াল ওয়েবে – এইখান থেকে

কালার ও প্রাইসঃ-

তিনটি কালারে এভাইলেবল-: Arctic Blue, Matte Black, & Lime Green.
POCO C3 3GB+32GB – BDT 11,999
POCO C3 4GB+64GB – BDT 12,999

এগেইন এটিও একটি রিব্র্যান্ডেড ফোন। Redmi 9C কে রিব্র্যান্ড করে POCO C3 করা হয়েছে। লোএন্ড বাজট ডিভাইসটি অলরেডি বাংলাদেশে এভাইলেবল। এর দুইটি ভ্যারিয়েন্ট বাংলাদেশে এভাইলেবল 2GB+32GB একটি হচ্ছে 3GB+64GB অন্যটি হচ্ছে যাদের মূল্য যথাক্রমে 10,999 ও 12,499। সেইম ফোন পোকোর ব্যানারে আসলেও দেখা যাচ্ছে র‍্যাম এ আপগ্রেড এসেছে অর্থাৎ প্রতিটি ভ্যারিয়েন্টেই ১ জিবি করে র‍্যাম বৃদ্ধি পেয়েছে যার কারণে মূল্যও কিছুটা বেড়ে গিয়েছে। দেখা যাচ্ছে 2GB+32GB >> 3GB+32GB তে ১০০০ টাকা ও 3GB+64GB >> 4GB+64GB তে ৫০০ টাকা বৃদ্ধি পেয়েছে। আরেকটি বিষয় সেটি হচ্ছে Redmi 9C তে ফিংগার প্রিন্ট সেন্সর থাকলেও তা POCO C3 তে অনুপস্থিত।

কখন পাওয়া যাবে?

এই নিয়ে কোনো তথ্য আমাদের হাতে এই মুহুর্তে নেই কেননা লঞ্চিং ইভেন্টে শাওমি থেকে নির্ধারিত কোনো তথ্য দেওয়া হয়নি বরঞ্চ তাঁরা এটা বলেছে যে, খুব শীঘ্রই সারা বাংলাদেশে এই ফোনগুলো পাওয়া যাবে।

বিঃদ্রঃ POCO এর সাথে Redmi এর একটি পার্থক্য হচ্ছে দুইটা লাইনআপের ফোন বাজেট মিডবাজেটের হলেও Redmi ফোন গুলো এড(বিজ্ঞাপন) দিয়ে ভর্তি অন্যদিকে POCO এড ফ্রি।

বোনাসঃ– আপনি যদি ইতিমধ্যে Xiaomi ফোন এর ব্লোটওয়ার-এড নিয়ে তক্তবিরক্ত হল তাহলে আপনি আমাদের এই আর্টিকেলটি(নন-রুটেড ফোনও হবে) ফলো করেই ব্লোটওয়ার ও এড-ফ্রি করে নিতে পারবেন।

- Advertisement -

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here