21 C
Dhaka
Monday, December 6, 2021

দুইটি ফোন নিয়ে Redmi Note 10 Series চলে এল দেশে

- Advertisement -asus motherboards

শাওমির অন্যতম হাইপড ও মোস্ট সেলিং সিরিজ বলা যায় Redmi Note Series। এই মাসের ৪ তারিখে অনেক হাইপ তোলার পর ভারতে এনাউন্স করা হয় একসাথে ৩টি ফোন। ফোনগুলো হল Redmi Note 10,Redmi Note 10 Pro, Redmi Note 10 Pro Max। কিন্তু গ্লোবালি এভাইলেবল এনাউন্স করা হয়েছে এই তিনটির মধ্যে দুইটি। যেখানে ইন্ডিয়ান Redmi Note 10 Pro Max গ্লোবালি Redmi Note 10 Pro নামে পরিচিত। সাথে MediaTek চিপসেট দিয়ে আর দুইটি ফোন গ্লোবালি এনাউন্স করা হয়েছে যার মধ্যে একটি 5G।

গতবার মহামারীর কারনে বাংলাদেশে এনাউন্স হতে দেরি হলেও এইবার খুব অল্প দিনের ব্যবধানে  বাংলাদেশে আজকে গ্লোবাল নেমিং অনুযায়ী Redmi Note 10 ও Redmi Note 10 Pro অফিশিয়ালি এনাউন্স করে Xiaomi Bangladesh। এই দুইটি ফোনের স্পেসিফিকেশন বিশ্লেষন সহকারে উপস্থাপন, ভ্যারিয়েন্টসহ প্রাইসিং ও এভাইবিলিটির বিস্তারিত তথ্য জানানো হবে আমাদের আজকের কভার আর্টিকেলে-

Design

- Advertisement -

Note 10 সিরিজের সব ফোনের আউট লুক একদম সেইম। ফোনের সামনে রয়েছে সেন্টার পাঞ্চহোল কাটআউট ফর সেলফি ক্যামেরা। তাছাড়া নিচে রয়েছে হালকা করে চিন এরিয়া। পিছনের ক্যামেরা মডিউল পিল সেইপডের যা শাওমির এই বছরের অন্যান্য ফোনের সাথে সিমিলারিটি রয়েছে এবং যার অবস্থান হচ্ছে ফোনের লেফট সাইডে। কিন্তু ভাল করে লক্ষ্য করলে দুইটির মধ্যে একটি তফাৎ লক্ষ্য করা যাবে। Redmi Note 10 Pro এর ক্যামেরা মডিউলে মেইন ক্যামেরা সেন্সরকে ঘিরে একটি সিলভার কালারের রিং রয়েছে অন্যদিকে Redmi Note 10 তে এই রিং এর কালার সম্পূর্ন ভিন্ন। Redmi Note 10 এর পিছনে গ্লাসব্যাক দেওয়া হলেও হাই এন্ড ভ্যারিয়েন্ট Redmi Note 10 Pro তে দেওয়া হয়েছে গ্ল্যাসব্যাক।

Display

যদি প্রশ্ন করা হয় কোথায় এই সিরিজে সবচেয়ে বড় আপগ্রেড এসেছে? উত্তর হবে এই সিরিজের ডিসপ্লে সেকশান। গতবার 120Hz এর চরম হাইপ থাকার স্বর্তেও শাওমি তা স্কিপ করে গিয়েছিল। এইবার শুধু 120Hzই দেয়নি সাথে দিয়েছে স্যামসাং এর তৈরি Super Amoled। এছাড়া ডিসপ্লেটি HDR10 সাপোর্টেড এবং 1200 nits পর্যন্ত ব্রাইটনেস তুলতে সক্ষম। প্রোকেটশনের জন্য দেওয়া ভ্যানিলা ভারিয়েন্টে Corning Gorilla Glass 3 দেওয়া হলেও প্রো ভ্যারিয়েন্টে Corning Gorilla Glass 5  দেওয়া হয়েছে। Redmi K40 সিরিজের মত এইখানেও Super Amoled ব্যবহার করা হলেও In-Display Finger Print সেন্সর দেওয়া হয়নি বরং দেওয়া হয়েছে Side Mounted Finger Print সেন্সর। ডিসপ্লে সাইজ ভিন্নতার কারণে ফোন দুইটির হাইট ভিন্ন কেননা Redmi Note 10 এর ডিসপ্লে সাইজ হচ্ছে 6.43-inch এবং Redmi Note 10 Pro এর 6.67-inch।

- Advertisement -

Chipset

প্রো ভ্যারিয়েন্ট দেওয়া হয়েছে Snapdragon 732G এবং ভ্যানিলা ভ্যারিয়েন্টে দেওয়া হয়েছে Snapdragon 678। দুইটি প্রসেসর আসলে একদম নতুন না ইতিমধ্যে Snapdragon 732G POCO X3 তে এটি ব্যবহার করা হয়েছে। দুইটিই অক্টাকোর কিন্তু একটি 8nm অন্যটি 11nm এর। Snapdragon 732G হচ্ছে Snapdragon 730G এর ওভারক্লকড ভার্সন। কেননা এতে বড় দুইটি কোরের স্পিড বাড়ানো হয়েছিল 100Mhz করে এবং জিপিউ পারফরমেন্স(Adreno 618) ১৫% বাড়ানো হয়েছিল। অন্যদিকে Snapdragon 678 এর অবস্থাও একই। ২০১৮ সালের প্রসেসর Snapdragon 675 এর Cortex A76 কোরের স্পিড 200Mhz বাড়িয়ে নতুন নাম দেওয়া হয়েছে। অবশ্যই এই ফোনগুলোতে LPDD4X র‍্যাম ব্যবহার করা হয়েছে এবং স্টোরেজ টাইপ হচ্ছে UFS2.2। ভ্যানিলা ভ্যারিয়েন্ট 4/6GB র‍্যাম ও প্রো ভ্যারিয়েন্ট 6/8GB র‍্যাম দিয়ে এভাইলেবল। উভয় ফোনে 64GB থেকে 128GB পর্যন্ত স্টোরেজ অপশান রয়েছে।

Camera

- Advertisement -

ক্যামেরা মডিউল নিয়েই আগেই আলোচনা করেছি। এইবার সেন্সরের পালা। দুইটি ফোনেই রয়েছে কোয়াড ক্যামেরা সেটাপ যেখানে প্রাইমারি ক্যামেরা সেন্সর বাদ বাকি তিনট ক্যামেরা অর্থাৎ 8MP এর আল্ট্রাওয়াইড সেন্সরটি হচ্ছে Sony IMX355, 5MP ম্যাক্রো ক্যামেরা ও 2MP এর ডেপথ সেন্সর। শাওমিকে ধন্যবাদ ইউসলেস 2MP ক্যামেরা না দিয়ে 5MP দেওয়ার জন্য। Redmi Note 10 Pro তে ব্যবহার করা হয়েছে 108MP মেইন ক্যামেরা সেন্সর যা note সিরিজে এই প্রথম। অন্যদিকে স্ট্যান্ডার্ড Redmi Note 10 তে দেওয়া হয়েছে 48MP এর প্রাইমারি ক্যামেরা। 108MP সেন্সরটি হচ্ছে Samsung ISOCELL HM2 এবং 48MP সেন্সরটি IMX582 ব্যবহার করা হয়েছে। ফ্রন্ট ক্যামেরা হিসেবে যথাক্রমে 16MP ও 13MP এর সেন্সর দেওয়া হয়ছে। উভয় ফোন 4K@30FPS এ ভিডিও শুট করতে পারবে।

Battery & Others

ব্যাটারি সাইজ অনেকটা একই বলা যায় যা হচ্ছে 5000mAh(Note 10) এবং 5020mAh(Note 10 Pro)। উভয় ফোন বক্স দেওয়া চার্জার দিয়েই ৩৩ওয়াটের ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। অর্থাৎ ৩০ মিনিট প্রায় 60% চার্জ হয়ে যাবে। বলার মত আরো কয়েকটি ফিচার রয়েছে এই সিরিজে। যেমনঃ হ্যাপটিক ফিডব্যাকের জন্য রয়েছে Z axis linear vibration motor, ডুয়েল স্পিকার, IP53 স্প্ল্যাশপ্রুফ, হেডফোন জ্যাক ও ট্রিপল সিম কার্ড ট্রে অর্থাৎ ডুয়েল সিমের পাশাপাশি 512GB পর্যন্ত মাইক্রো এসডি কার্ড সাপোর্ট করবে।

Why No Redmi Note 10S?

আমরা জানি যে, গতবার Redmi Note 9S এনাউন্স করলেও এইবার গ্লোবালি Redmi Note 10S এনাউন্স করা হয়েছে ভিন্নভাবে অর্থাৎ গতবার ইন্ডিয়ান Redmi Note 9 Pro কে গ্লোবালি Redmi Note 9S বানানো হয়েছিল কিন্তু এইবার ভিন্ন একটি ফোন হিসেবে এসেছে Redmi Note 10S যেটি কিনা MediaTek Helio G95 চিপসেট দিয়ে। যা শাওমি বাংলাদেশ এনাউন্স করেনি আজকে।

Price in Bangladesh

Redmi Note 10

তিনটি কালারে এভাইলেবল- Onyx Gray Pebble White Lake Green

অন্যদিকে র‍্যাম ও স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টও তিনটি যাদের প্রাইস হচ্ছে-
4GB + 64GB at ৳ 19,999
4GB + 128GB at ৳ 20,999
6GB + 128GB at ৳ 21,999

বিস্তারিত জানতে ভিসিট – অফিশিয়াল ওয়েবসাইট

Redmi Note 10 Pro

তিনটি কালারে এভাইলেবল- Glacier Blue Gradient Bronze Onyx Gray

অন্যদিকে র‍্যাম ও স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টও তিনটি যাদের প্রাইস হচ্ছে-
6GB + 64GB at ৳ 26,999
6GB + 128GB at ৳ 27,999
8GB + 128GB at ৳ 29,999

বিস্তারিত জানতে ভিসিট – অফিশিয়াল ওয়েবসাইট

 

এভাইভিলিটির ব্যাপারে এই আর্টিকেল লিখা পর্যন্ত তেমন কোনো তথ্য আমাদের হাতে এসে পৌছায়নি। আমরা ফোনে শাওমি বাংলাদেশের সাথে যোগাযোগ করে ব্যর্থ হয়েছি। কোনো আপডেট পাওয়া মাত্র এইখানে সংযুক্ত করে দেওয়া হবে।

বিঃদ্রঃ লাস্ট ইয়ারে চায়নার জন্য এক্সক্লুসিভলি এনাউন্স হয়েছে Redmi Note 9 সিরিজ কারণ গ্লোবালি এনাউন্স হওয়া ভ্যারিয়েন্ট গুলোতে কোনো 5G ফোন ছিল না। কিন্তু চায়নার জন্য বলা যায় 5G একটি অত্যবশীয়কীয় ফিচার। এইবারও আমার হাইএন্ড ভ্যারিয়েন্টগুলোতে কোনো ধরনের 5G সাপোর্ট দেখতে পাচ্ছি না তাই আশা করা যাচ্ছে এই বছরের যেকোনো সময়ে আবার আলাদা করে চায়নার জন্য আসতে পারে Redmi Note 10 সিরিজ। 

- Advertisement -asus graphics card
Kowcher Chy
A tech enthusiast ,amateur photographer and sluggish coder with an Engineering degree to destroy them all.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here